এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > মালদা-মুর্শিদাবাদ-বীরভূম > অনুব্রত গড়ে ঘুষ নেওয়ার অভিযোগে গ্রেফতার সরকারি কর্মচারীদের,অ্যাডভান্টেজ তৃণমূলের

অনুব্রত গড়ে ঘুষ নেওয়ার অভিযোগে গ্রেফতার সরকারি কর্মচারীদের,অ্যাডভান্টেজ তৃণমূলের



দেদার ঘুষ নেওয়ার অভিযোগে এবার নাম জড়ালো অনুব্রত গড়ের দুই সরকারি কর্মচারীর। রাজ্যরাজনীতির উওপ্ত ক্ষেত্রভূমি বীরভূম। বিধানসভা নির্বাচন হোক বা পঞ্চায়েত ভোট অনুব্রত মন্ডলের জেলা সবসময় সংবাদের শিরোনামে থাকে। তবে এবার সম্পূর্ণ ভিন্ন স্বাদের খবর প্রকাশ্যে আসলো।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

——————————————————————————————-

 এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

অভিযুক্ত দুজনের নাম জার্মান মুর্মু এবং বাসুদেব মাল। জার্মানবাবু সেচ দপ্তরের হেড ক্লার্ক এবং বাসুদেব বাবু ডিআই অফিসের কর্মী। এদিন গোপনসূত্রে পুলিশ খবর পেয়ে সেচ দপ্তরের একটি আবাসনে তল্লাশি চালিয়ে গ্রেফতার করে দুজনকে। মোটা অঙ্কের টাকার বিনিময়ে চাকরি পাইয়ে দেওয়ার অভিযোগ রয়েছে তাঁদের বিরুদ্ধে। কাজ পাইয়ে দেওয়ার নাম করে ঠিকাদারদের কাছ থেকে টাকা নেওয়ার কার্যক্রম দীর্ঘদিন ধরে চলছিল বলেই জানা গেছে পুলিশি জেরার মাধ্যমে। এর আগেও তাঁদের বিরুদ্ধে অভিযোগ জানানো হয়েছিলো। তবে এদিনই ঘুষখোর দুজনকে হাতেনাতে পাকরাও করল পুলিশ। ধৃতদের এদিন সিউড়ি আদালতে পেশ করানো হয়। বিচারে ৫ দিনের পুলিশি হেফাজতের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। তবে এ ব্যাপারে ধৃতদের তরফ থেকে কোনো প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।

প্রসঙ্গত,চুলচেরা তল্লাশি চালিয়ে ধৃতদের কাছ থেকে বেশ কিছু ভুয়ো কাগজপত্র নথি এবং জাল কিছু স্ট্যাম্প উদ্ধার করেছে পুলিশ। এছাড়াও পাওয়া গেছে বান্ডিল বান্ডিল মোটা টাকা। এই টাকার সিংহভাগই পুলিশ উদ্ধার করতে সক্ষম হয়েছে এদের থেকে। তবে এই দুর্নীতিকান্ডের সঙ্গে আরো কোনো রাঘব বোয়াল যুক্ত আছে কিনা তা জানার জন্য তদন্ত অব্যাহত রেখেছে সিউড়ি থানার পুলিশ। এমনটাই জানা গেছে পুলিশি সূত্র থেকে।অনুব্রত গড়ে এইভাবে সরকারি কর্মচারীদের ঘুষ নিয়ে ধরা পড়ায় কেউ কেউ মনে করছেন যে চাপে করল রাজ্য সরকার । অন্যদিকে অনেকে মনে করছেন যে এর অ্যাডভান্টেজ পেতে চলেছে তৃণমূল। কেননা ঘুষ নেওয়া অপরাধ তাই এই অপরাধের জন্য সরকারি কর্মীদের গ্রেপ্তার করে তৃণমূল সরকার প্রমান করলো যে তারা অন্যায় সহ্য করেন না। কেউ অন্যায় করলে ছাড় পাবে না. অন্যদিকে ডিএ নিয়ে তৃণমূল সরকারকে তুলোধোনা করছে সরকারী কর্মচারীরা আর এদিকে তাদের এই দুর্নীতি সামনে আসায় কিছুটা হলেও ব্যাকফুটে সরকারি কর্মচারী এমনটাই মত রাজনৈতিকমহলের।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!