এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > দুঃসংবাদ অঙ্গনওয়াড়ি কর্মীদের জন্য,বিকল্প পথ খুঁজতে মুখ্যমন্ত্রীর দ্বারস্থ হচ্ছেন মন্ত্রী

দুঃসংবাদ অঙ্গনওয়াড়ি কর্মীদের জন্য,বিকল্প পথ খুঁজতে মুখ্যমন্ত্রীর দ্বারস্থ হচ্ছেন মন্ত্রী



মোদী সরকার এক ধাক্কায় রাজ্যের লক্ষাধিক অঙ্গনওয়াড়ি কেন্দ্রের জন্য বরাদ্দ টাকা কমিয়ে দিল। এর জেরে রাজ্যসরকার অঙ্গনওয়াড়ি খাতে বেশ আর্থিক চাপের মুখোমুখি হতে চলেছে। এদিন শিশু,নারী ও সমাজকল্যাণ দপ্তরের মন্ত্রী শশী পাঁজা এমনটাই জানালেন প্রশ্নোত্তর পর্বে। এছাড়া তিনি আরো জানান, আইসিডিএস কর্মীদের যে সাম্মানিক দেওয়া হয়, শুধু সেই খাতেই ২৫০ কোটি টাকার বাড়তি বোঝা পড়তে চলেছে রাজ্যের উপর। এরকম প্রতিকূল পরিস্থিতিতেও মুখ্যমন্ত্রী অঙ্গনওয়ারি কর্মীদের সাম্মানিক বাড়িয়ে দিয়েছেন।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

——————————————————————————————-

 এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

উল্লেখ্য,২০১৪ সালে ইউপিএ আমলে অঙ্গনওয়ারি প্রকল্পের ক্ষেত্রে কেন্দ্র ও রাজ্যের বেতন দেওয়ার আনুপাতিক হার ছিল ৯০:১০%। বোঝাই যাচ্ছে, প্রকল্পের  আর্থিক খরচের বেশিরভাগটাই বহন করতে কেন্দ্রীয় সরকার। কিন্তু মোদীজি প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর থেকেই কেন্দ্র থেকে বরাদ্দ টাকার পরিমান ক্রমশ কমতে শুরু করেছে। যার জেরে রাজ্যকে বহন করতে হয় খরচার ৭৫ % এবং কেন্দ্র সরকার দেয় মাত্র ২৫ %। অর্থাৎ শুধুমাত্র বেতনখাতেই রাজ্যসরকারের দিতে হবে বাড়তি ২৫০.৬৩ টাকা। এই বাড়তি খরচের কথাই মুখ্যমন্ত্রীর নজরে আনার জন্য জানানো হবে বলেই বললেন মন্ত্রী শশী পাঁজা। কোন খাত থেকে এই বাড়তি টাকা জোগাড় করবে রাজ্য,তার চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন নেত্রীই।

প্রসঙ্গত,রাজ্যে বর্তমানে ১ লক্ষ ১৫ হাজার ৪৫৯ টি অঙ্গনওয়াড়ি কেন্দ্র রয়েছে। জেলাস্তরে প্রকল্প আধিকারিক ছাড়াও আরো সাতজন এই প্রকল্প তদারক করেন। ব্লকস্তরে আছেন চারজন করে। জেলাস্তর এবং ব্লকস্তরে একজনের বেতন বেতনই কেন্দ্র দেয়। সম্প্রতি যেভাবে কেন্দ্রীয় সরকার প্রকল্পটি শুরু করে  আর্থিক বরাদ্দ কমাচ্ছে তাতে বোঝাই যাচ্ছে,প্রকল্প চালানোর সদিচ্ছা মোদীসরকারের নেই। এই ইস্যুকে সামনে রেখে আগামী দিনে রাজ্যসরকারের কেন্দ্রবিরোধী আন্দোলনে নামার সম্ভাবনাকে একেবারেই উড়িয়ে দিচ্ছেন না রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকরা। দলীয় অন্দরে দফায় দফায় এই সমস্যা নিয়ে উঠছে প্রশ্ন। এর জেরে জল্পনাও দানা বাঁধছে।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!