এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > গদি যাচ্ছে নিশ্চিত বুঝেই কি মুখ্যমন্ত্রীর গলায় ঝরে পড়ছে আক্ষেপ? “আমার থেকে একা আর কেউ নন”!

গদি যাচ্ছে নিশ্চিত বুঝেই কি মুখ্যমন্ত্রীর গলায় ঝরে পড়ছে আক্ষেপ? “আমার থেকে একা আর কেউ নন”!



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট ত্রিপুরায় দীর্ঘ 25 বছরের বাম জমানায় অবসান হয়ে ক্ষমতা হাতে নেয় গেরুয়া শিবির। রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী পদে আসেন বিজেপি শিবিরের অন্যতম নেতা বিপ্লব দেব। কিন্তু আড়াই বছরের মধ্যেই বিপ্লব দেবকে নিয়ে রাজ্যের বিজেপি শিবিরে শুরু হয়েছে তুমুল অন্তর্দ্বন্দ্ব। শোনা যাচ্ছে, রাজ্যের অধিকাংশ বিজেপি বিধায়ক রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে ক্ষেপে উঠেছেন। এই পরিস্থিতিতে এবার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব তীব্র হতাশা প্রকাশ করলেন। তাঁর কথায়, সবকিছু থাকলেও তিনি বড়ই একা।

অন্যদিকে ত্রিপুরা রাজ্যে বিজেপির শরিক আইপিএফটির 8 জন সদস্য ইতিমধ্যে মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেবের বিরুদ্ধাচরণ করতে যোগ দিয়েছেন বিরোধী শিবিরে। এই অবস্থায় রাজ্যের বিজেপি শিবিরের দাবি, মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেবকে অবিলম্বে মুখ্যমন্ত্রী পদ থেকে সরিয়ে দিতে হবে। আর তারপরেই এই আবেগঘন মন্তব্য ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রীর। সূত্রের খবর, ত্রিপুরায় গেরুয়া শিবিরের অন্যান্য বিধায়করা অভিযোগ তুলেছেন, মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব রাজ্যে এখনও একতন্ত্র সরকার চালাচ্ছেন।

বিদ্রোহী গোষ্ঠীর দলনেতা সুদীপ রায় বর্মন এর নেতৃত্বে এই মুহূর্তে দিল্লি গিয়েছেন 11 জন বিজেপি নেতা। তবে বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নাড্ডা এই মুহূর্তে বিহারের বিধানসভা নির্বাচনী প্রচারে রয়েছেন বলে জানা গিয়েছে। তিনি দিল্লি ফিরলেই ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বদলানোর সিদ্ধান্তে কথা হবে বলে জানা গেছে। অন্যদিকে বিদ্রোহী বিজেপি বিধায়করা বিপ্লব দেবের বিরুদ্ধে অভিযোগ জানিয়েছেন, বিপ্লব দেব ক্রমাগত তাঁর অসাবধানী মন্তব্য এবং দুর্বল প্রশাসনিক কাজের জন্য রাজ্যের মানুষের কাছে গেরুয়া শিবিরকে চক্ষুশূল করে তুলেছেন।


ফেসবুকে আমাদের নতুন ঠিকানা, লেটেস্ট আপডেট পেতে আজই লাইক ও ফলো করুন – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের টেলিগ্রাম গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের সিগন্যাল গ্রূপে জয়েন করতে – ক্লিক করুন এখানে



আপনার মতামত জানান -

এই অবস্থা চলতে থাকলে আগামী বিধানসভা নির্বাচনে গেরুয়া শিবিরের বিপর্যয় কেউ আটকাতে পারবেনা বলে দাবি বিজেপির বিক্ষুব্ধ মহলের। সম্প্রতি ত্রিপুরা রাজ্যের সমাজকল্যাণ মন্ত্রী শান্তনা চাকমা বিপ্লব দেবের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগড়ে দেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। ফলস্বরূপ, শান্তনা চাকমাকে বর্তমানে তীব্র রোষের মুখে পড়তে হয়েছে বলে শোনা যাচ্ছে। অন্যদিকে গেরুয়া শিবিরের অনেকেই দাবি করেছেন, মুখ্যমন্ত্রীর একনায়কতন্ত্র এবং রাজকীয় জীবনযাপন পরিস্থিতি এতটা জটিল করে তুলেছে।

ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেবের বিরুদ্ধে ইতিমধ্যেই প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মানিক সরকার জানিয়েছেন, রাজ্যে নিকম্মার সরকার চলছে। তাই আগামী বিধানসভা নির্বাচন জিতে বাম শিবির আবারও ক্ষমতায় ফিরতে চলেছে। বিশেষজ্ঞদের মতে, ত্রিপুরা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব যথেষ্ট ওয়াকিবহাল তাঁর বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ নিয়ে। আর সে কারণেই তিনি পরিস্থিতি সামাল দিতে এবার সেন্টিমেন্টাল মন্তব্য করার দিকে ঝুঁকেছেন বলে দাবি রাজনৈতিক মহলের একাংশের। তবে ত্রিপুরা রাজ্যে গেরুয়া শিবির যে যথেষ্ট আতান্তরে পড়েছে, সে কথা এক বাক্যে স্বীকার করে নিচ্ছে সমগ্র রাজনৈতিক মহল।

আপনার মতামত জানান -

ট্যাগড
Top
error: Content is protected !!