এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > আলকায়দা জঙ্গিরা গ্রেপ্তার হতেই জোরদার হল ‘লাভ- জিহাদের’ তত্ত্ব? ৫ তরুনীর অন্তর্ধানে রহস্য!

আলকায়দা জঙ্গিরা গ্রেপ্তার হতেই জোরদার হল ‘লাভ- জিহাদের’ তত্ত্ব? ৫ তরুনীর অন্তর্ধানে রহস্য!



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট – এবার আল-কায়দা জঙ্গীদের নিয়ে তৈরি হল নতুন আতঙ্ক। জানা গেছে, সংগঠনে মহিলাদের সদস্য সংখ্যা বাড়াতে লাভ জ্বিহাদের ফাদ পেতেছে জঙ্গিরা। যে ফাঁদে ইতিমধ্যেই রাজ্যের বেশ কিছু তরুণী পা দিয়েছে বলে খবর রয়েছে গোয়েন্দাদের কাছে। যা নিয়ে এখন ব্যাপক চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে গোটা রাজ্যে।

বস্তুত, হুগলির ধনেখালির এক তরুণী সম্প্রতি বাংলাদেশ থেকে গ্রেপ্তার হয়েছেন। জানা গেছে, এই তরুণী জঙ্গিদের লাভ জিহাদের শিকার হয়েছেন। এছাড়াও দক্ষিণবঙ্গের তিন জেলার আরও পাঁচ তরুণীর হঠাৎ করেই অন্তর্ধান রহস্য ঘিরে তীব্র চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে। গোয়েন্দাদের দাবি, যে পাঁচ তরুণীকে নিয়ে গুঞ্জন তৈরি হয়েছে, তার মধ্যে দুজন মুর্শিদাবাদ, একজন পুরুলিয়া এবং বাকি দুজন দক্ষিণ 24 পরগনার বাসিন্দা। প্রত্যেকেই নেট এবং মোবাইল ফোন নিয়ে ব্যস্ত থাকত। কিন্তু হঠাৎ করেই তারা তাদের বাড়ি থেকে নিখোঁজ হয়ে যায়। আর এরপরেই নেট ঘেটে গোয়েন্দারা ধারণা করছেন যে, এই সমস্ত তরুণীরা জঙ্গিদের লাভ জিহাদের শিকার হয়েছেন।

গোয়েন্দাদের মতে, মহিলা সদস্যকে আরও বেশি করে নিয়োগ করতেই জঙ্গিরা এখন লাভ জিহাদের ওপর সবথেকে বেশি গুরুত্ব দিতে শুরু করেছে। তাই সোশ্যাল মিডিয়াকে হাতিয়ার করে অনলাইনে বন্ধুত্ব তৈরী করে তারা নিজেদের প্রচার করতে ব্যস্ত রয়েছে। যার ফলে স্কুল এবং কলেজের ছাত্রীদের নিজেদের দিকে টেনে আনছে সেই সমস্ত জঙ্গীরা।


WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, বেশ কয়েক বছর আগে রাজ্যের জেএমবি জঙ্গিদের মধ্যে মহিলা সদস্য বৃদ্ধি করার তৎপরতা লক্ষ্য করা গিয়েছিল। যেখানে প্রায় প্রত্যেক জঙ্গিনেতা নিজেদের পরিচিত পরিসরে বিবাহ করতে শুরু করেছিলেন। আর তার পরেই তাদের সহধর্মীনিদের এই জেহাদী কার্যকলাপে লিপ্ত হতে দেখা গিয়েছিল। আর এবার সংগঠনে তরুণীদের ভিড় বাড়াতে স্কুল এবং কলেজের ছাত্রীদের টার্গেট করতে শুরু করেছে জঙ্গী সংগঠন বলে দাবি গোয়েন্দাদের।

ইতিমধ্যেই রাজ্যের বেশকিছু তরুনীর অন্তর্ধান হওয়ার ঘটনাকে কেন্দ্র করে আশঙ্কা তৈরি হয়েছে। তবে গোটা ব্যাপারে বিশদে জানতে মুর্শিদাবাদ এবং কেরল থেকে গ্রেপ্তার হওয়া আল-কায়েদা জঙ্গীদের জেরা করতে শুরু করেছে গোয়েন্দারা।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এখন থেকেই যদি পরিস্থিতি আয়ত্তে না আনা যায়, তাহলে ধীরে ধীরে সংগঠনে তরুণী সদস্যদের আরও বেশি করে টানার চেষ্টা করবে এই জঙ্গী সংগঠন। যার ফলে বাংলার ভাগ্যাকাশে চিন্তা ক্রমশ বাড়তে পারে। তাই গোয়েন্দারা এই ব্যাপারে পদক্ষেপ গ্রহণের পর সেই সমস্ত তরুণীদের উদ্ধার করা সম্ভব হয় কিনা এবং এর ফলে জঙ্গী কার্যকলাপ আটকানো কতটা সম্ভব হয়, সেদিকেই নজর থাকবে সকলের।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!