এখন পড়ছেন
হোম > অন্যান্য > জ্যোতিষ মতে এই কয়টি সহজ কাজ করলেই আপনার বৈবাহিক জীবনের রোজকার ঝামেলা মেটাতে পারবেন তুড়ি মেরে

জ্যোতিষ মতে এই কয়টি সহজ কাজ করলেই আপনার বৈবাহিক জীবনের রোজকার ঝামেলা মেটাতে পারবেন তুড়ি মেরে



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট – সংসার জীবনে অশান্তি হয়না, এমন মানুষ দুর্লভ। প্রতিটা সংসারের কিছু না কিছু ঝামেলা অশান্তি থেকেই যায়। তা কখনো স্বামী স্ত্রীকে নিয়ে, বা সন্তানকে নিয়ে অথবা বাড়ির গুরুজনদের সঙ্গে। বাড়িতে নিত্যদিনের অশান্তি নিয়ে নাজেহাল হয়ে যাওয়ার নালিশ ঘরে ঘরে। তবে শুধু নালিশ না করে যদি শান্তি ফিরিয়ে আনার ব্যাপারে মন দেন, তবে আমাদের কাছ থেকে পেতে পারেন কিছু উপায়ের খোঁজ। কি বলা যায়, কাজে লেগে গেলেও যেতে পারে।

বাড়িতে যদি কালি পুজো করে থাকেন তবে প্রতিমার সঙ্গে হাতের খাঁড়াটি জলে বিসর্জন দেবেন না। বদলে ঘরের দরজার মাথায় রাখতে পারেন। অনেক কাজে আসতে পারে। এছাড়া মঙ্গলবার করে সাত্ত্বিক আহার খেতে পারেন। মনসা দেবীর পূজা করলেও ভালো ফল পাওয়া যায় বলে মনে করা হয়। এছাড়া পুজোতে সাদা ফুলের ব্যবহার বেশি করতে পারেন। তবে যে ঠাকুর যে ফুলে সন্তুষ্ট, তাকে তা দিয়েই আরাধনা করলে ভালো হয়।

প্রতি শনিবার কালো মোষের মাথায় সর্ষের তেল দিন। এছাড়া শনি ও মঙ্গলবার লাল জবা ও অপরাজিতা ফুল দিয়ে দক্ষিণাকালীর পূজা করতে পারেন। প্রতি শনিবার সকালে নুন ও আদা খাবেন। নিরামিষ বা সাত্ত্বিক খাবার খেলে ভালো হয়। প্রতিদিন সন্ধ্যাবেলা সন্ধ্যারতির সময় ধুনো জ্বালাবেন। পারলে সঙ্গে গুগ্গুল দিতে পারেন। এতে বাড়ির পরিবেশে ইতিবাচক প্রভাব পড়ে।


WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

প্রতি শুক্রবার সাদা ফুল ও ফুলের মালা দিয়ে মা মনসা ও ভুবনেশ্বরী দেবীর পূজা দিতে পারেন। প্রতি শনিবার খুব অল্প পরিমাণে আদা খেতে পারেন এবং বট গাছের নীচে কিছুক্ষণ সময় কাটাতে পারেন। ভালো ফল পাওয়া যায়। প্রতিদিন সকালে কাক ও কুকুরকে খাবার খাওয়ান। মোষ বা কালো গরুর মাথায় সর্ষের তেল দিতে পারেন।বাড়িতে মনসা দেবীর মূর্তি বা ছবি না থাকলে মনসা গাছকে পূজা করলেও উপকার পাওয়া যায়।

প্রতিদিন সূর্যোদয়ের সময় কলা গাছে জলদান এবং জলে গুড় মিশিয়ে সূর্যার্ঘ্য প্রদান করলে ভালো ফল পাওয়া যায়। প্রতি সোম ও শুক্রবার শিব লিঙ্গকে দুধ, চন্দন এবং জল দিয়ে অভিষেক করানো ভালো। প্রতি মঙ্গল ও শনিবার নিরামিষ সেদ্ধ খাবার ও পাকা কলা খাবেন। এছাড়া হনুমান চালিশা পাঠ করলে শুভ ফল পাওয়া যায়। প্রতিদিন ভগবান বিষ্ণুর উদ্দেশ্যে তুলসী চন্দন দিন। শিব লিঙ্গ বা মূর্তিকে দুধ দিয়ে স্নান করিয়ে ধুতুরা ফুলের মালা দিলেও উপকার পাওয়া যায়।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!