এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > ভোট দিতে গেলেও মানুষ দেখবেন, রাস্তায় উন্নয়ন দাঁড়িয়ে রয়েছে: অনুব্রত মন্ডল

ভোট দিতে গেলেও মানুষ দেখবেন, রাস্তায় উন্নয়ন দাঁড়িয়ে রয়েছে: অনুব্রত মন্ডল



মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারে শেষদিনে বোলপুরে সাংবাদিক সম্মেলনের আয়োজন করেছিলেন তৃণমূল কংগ্রেসের বীরভূম জেলা সভাপতি তথা বিধায়ক অনুব্রত মন্ডল। সেখানে তিনি বলেন, “এ বার ভোট দিতে গেলেও মানুষ দেখবেন, রাস্তায় উন্নয়ন দাঁড়িয়ে রয়েছে।” সাংবাদিক সম্মেলন করে এলাকার প্রতাপশালী নেতার এহেন বক্তব্যে কার্যতই রাজ্যের বিরোধী দলের কর্মী সমর্থকেরা কিঞ্চিৎ হলেও উদ্বিগ্ন। এদিন অনুব্রতবাবু নিজেই মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের পরে জেলায় নির্বাচনের পরিসংখ্যান জানালেন। তাঁর হিসেব মতো জেলা পরিষদের ৪২টি আসনের প্রতিটিতেই তৃণমূল কংগ্রেস দল বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয়ী।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

পঞ্চায়েত সমিতির ৪৬৫টি আসনের মধ্যে ৬০টিতে এবং গ্রাম পঞ্চায়েতে ২,২৪৭টি আসনের মধ্যে ভোট হচ্ছে ১৯৬৭টি তে তৃণমূল কংগ্রেসকে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করতে হবে। এই প্রসঙ্গে বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বললেন,”ওরা কাউকে মনোনয়ন জমা দিতেই দেয়নি। আসন পাওয়া না পাওয়া আবার কী?” অন্যদিকে অনুব্রত বাবু বললেন, ”উন্নয়ন মানে তো পাকা ড্রেন, রং করা স্কুল। মানুষ তাই তৃণমূলে ভোটটা দেবে।যারা বয়স্ক লোক, ভোট দিতে পারবে না, অন্যদের বলবে, ‘ভোটটা দিয়ে দাও’, তারাই ভোট দিয়ে দেবে। অন্ধ মানুষকে ধরে নিয়ে যাবে। তার হয়ে বোতামটা টিপে দেবে।” এদিন রাজ্যের পুলিশ প্রশাসন কে সাধুবাদ জানিয়ে শাসক দলের জেলা সভাপরি বললেন, ‘পুলিশ সুন্দর কাজ করেছে। জেলাশাসক, পুলিশ সুপার, সমস্ত বিডিও, এসডিও-কে ধন্যবাদ।” তিনি আদৌ কাউকে ভয় পান কীনা এই প্রশ্ন করা হলে খুবই সাবলীল ভাবে তাঁর জবাব, ”সিপিএমের অত্যাচার যখন মনে পড়ে যায়, ভয়ে ঘরে ঢুকে যাই। ইদানীং বিজেপি যা ভয় দেখাচ্ছে, খুব ভয় লাগছে রাস্তাঘাটে বেরোতে।”

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!