এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > মনোনয়ন প্রত্যাহারের জন্য ভোজালি-কুঠার নিয়ে আক্রমন মানস ভূঁইয়ার গড়ে

মনোনয়ন প্রত্যাহারের জন্য ভোজালি-কুঠার নিয়ে আক্রমন মানস ভূঁইয়ার গড়ে



মনোনয়ন প্রত্যাহারের জন্য ভোজালি-কুঠার নিয়ে আক্রমন মানস ভূঁইয়ার গড়ে।এদিন পশ্চিম মেদিনীপুরের সবংয়ে মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করতে না চাওয়া এক বাম প্রার্থীর বাড়িতে দুষ্কৃতি চড়াও হওয়ার অভিযোগ উঠলো। সবংয়ের হরিপুরা গ্রামের ওই ঘটনায় তৃণমূল কংগ্রেস মদতপুষ্ট দষ্কৃতিদের প্রত্যক্ষ ভূমিকা রয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে। অবশ্য রাজ্যের শাসকদলের পক্ষ থেকে এই অভিযোগ অস্বীকার করা হয়েছে। পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রের খবর অনুয়ারী , বৃহস্পতিবার গভীর রাতে সবং ব্লকের হরিপুরা গ্রামে পঞ্চায়েত নির্বাচনে সিপিএম প্রার্থী সুভাষ ঘোষের বাড়িতে দুষ্কৃতি আক্রমন হয়।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী শেখ লুত্‍ফর রহমানের নেতৃত্বে ৬-৭ জন দুষ্কৃতী ভোজালি, কুঠার, লাঠি নিয়ে সুভাষ ঘোষের বাড়িতে চড়াও হয়ে তাঁকে শারীরিক নিগ্রহ করে বলে অভিযোগ উঠেছে। শুধু তাই নয় আক্রমনকারীরা সুভাষবাবু মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার না করলে তাঁকে প্রাণনাশের হুমকিও দেওয়া হয়। এমনকি তাঁর পরিবারের সদস্যদের উদ্দেশ্য অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ করা হয় বলে জানা যাচ্ছে। অল্প সময়ের মধ্যে স্থানীয় অধিবাসীরা চিৎকার শুনে ঘটনাস্থলে আসতে শুরু করলে দুষ্কৃতিরা ভয়ে এলাকা ছেড়ে পালিয়ে যায়। এই ঘটনা পরে সুভাষবাবু ও তাঁর বাবা, মা, স্ত্রীকে সজ্ঞাহীন অবস্থায় উদ্ধার করে সবং গ্রামীণ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। পরে সুভাষ বাবুর চিকিৎসার প্রয়োজনে তাঁকে মেদিনীপুর মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। জানা গেছে তাঁর কোমর এবং পা ভেঙে গিয়েছে একই সাথে তাঁর মাথায় ও গভীর ক্ষত সৃষ্টি হয়েছে।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!