এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > অভিষেক-পিকের পরিকল্পনা সফল করে আজ গোটা রাজ্যে একসাথে ৪ লক্ষ যুব যোগ দিচ্ছেন তৃণমূল কংগ্রেসে

অভিষেক-পিকের পরিকল্পনা সফল করে আজ গোটা রাজ্যে একসাথে ৪ লক্ষ যুব যোগ দিচ্ছেন তৃণমূল কংগ্রেসে



প্রিয় বন্ধু মিডিয়া রিপোর্ট –গত ২০১৯ এর লোকসভা নির্বাচনে পশ্চিমবঙ্গের আশানুরূপ ফল লাভে অনেকটাই ব্যর্থ হয়েছিল পশ্চিমবঙ্গের শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেস। মুখ্যমন্ত্রী ৪২/৪২ এর ঘোষণা অনেকটা অসার প্রতিপন্ন করে রাজ্যের মোট ৪২ টি লোকসভা আসনের মধ্যে মাত্র ২২ টি আসন নিজেদের দখলে আনতে সমর্থ হয়েছিল রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেস। অন্যদিকে মোট ১৮ টি লোকসভা আসন নিজেদের করায়ত্ত্ব করে রাজ্যে অভূতপূর্ব আত্মপ্রকাশ ঘটে বিজেপির। শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেসের ঘাড়ে নিশ্বাস ফেলতে শুরু করে বিজেপি ।এরপর রাজ্যের ২০২১ এর বিধানসভা নির্বাচনে নিজেদের হ্যাট্রিক করতে প্রশান্ত কিশোর ও ‘টিম আইপ্যাককে’ রাজ্যে নিয়ে আসে রাজ্যের শাসক দল।

শাসক দলকে আগামী নির্বাচনে জয়লাভ করাতে শাসকদলের সংগঠনকে ঢেলে সাজাতে তৎপর হয় পিকে টিম। এ কারণেই রাজ্যের যুব সমাজকে বেশি করে তৃণমূল মুখী করতে করতে টিম পাইক সোশ্যাল মিডিয়ার প্লাটফর্মকে ব্যবহার করে ইউথ ইন পলিটিক্স নামের একটি বিশেষ কর্মসূচি গ্রহণ করে। বাংলার যুবসমাজকে এই কর্মসূচিতে যোগদানের জন্য বারবার আহ্বান জানানো হয়। আর এই কর্মসূচি সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যাপক জনপ্রিয়তা লাভ করে। রাজ্যের প্রায় ৪ লক্ষ যুবক যুবতী যাদের বয়স ১৮ বছর থেকে ৩৫ বছরের মধ্যে। তারা এই কর্মসূচির মাধ্যমে রাজ্যের রাজনীতিতে যোগদান করার প্রকাশ করেছেন। আর রাজ্য রাজনীতিতে যোগদানে উৎসাহী এই যুবক-যুবতীদের রীতিমতো অনুষ্ঠান করে আজ তৃণমূল দলে যোগদান করা হলো।


WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

আজ রবিবার সমগ্র পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য জুড়ে চার লক্ষ যুবক যুবতী তৃণমূল দলে যোগদান করলেন। নবাগত সদস্যদের এই দলে যোগদান উপলক্ষে বিভিন্ন জেলায় দলীয় কর্মসূচি ঘোষণা করে, সেখান থেকে চলল এই বিরাট যোগদান পর্ব। বিভিন্ন জেলার জেলা সভাপতি রীতিমতো অনুষ্ঠান করে এই যোগদান পর্ব সম্পন্ন করালেন। আজকের এই যোগদান পর্বের মধ্যে তৃণমূল দলের বিভিন্ন উদ্যোক্তারা ছিলেন উত্তর ২৪ পরগনার জেলা সভাপতি জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক, যুব সভাপতি দেবরাজ চক্রবর্তী, দক্ষিণ ২৪ পরগনার তৃণমূল নেতা শুভাশিস চক্রবর্তী, পূর্ব মেদিনীপুরের জেলা সভাপতি শিশির অধিকারী, নদিয়া জেলায় মহুয়া মৈত্র, হুগলি জেলায় দিলীপ যাদব, হাওড়া জেলাতে ছিলেন প্রাক্তন ক্রিকেটার লক্ষ্মীরতন শুক্লা, মালদহ জেলায় ছিলেন মৌসম বেনজির নুর।

এককথায় বিধানসভা নির্বাচনের আগে তৃণমূল দলকে শক্তিশালী করতে রাজ্যের যুবসমাজকে তৃণমূল মুখী করার যে প্রচেষ্টা গ্রহণ করেছিলেন পিকে, আজ তা যথেষ্ট ভাবেই সফল হলো বলেই মনে করছেন রাজ্যের বিভিন্ন রাজনৈতিক মহল।

অন্যদিকে বিগত একুশে জুলাই তৃণমূল দলের শহীদ দিবসের ভার্চুয়াল মঞ্চ থেকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তৃণমূল থেকে বিভিন্ন দলে চলে যাওয়া অভিমানী প্রাক্তন তৃণমূল সদস্যদের পুনরায় তৃণমূল দলে যোগ দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছিলেন। আর সেই সঙ্গে তিনি অন্য দলের বিভিন্ন নেতাকর্মী তথা সদস্যদেরও তৃণমূলে যোগ দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছিলেন। তাঁর এই আহবানে বহু মানুষ সাড়া দিয়েছেন। গত কয়েকমাস ধরেই একাধিক বিরোধী দলের সংগঠনে ব্যাপক ভাঙ্গন চোখে পড়ছে। বিজেপি, সিপিএম, কংগ্রেস সহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতা-কর্মী-সদস্যেরা ব্যাপকভাবে যোগদান করছেন তৃণমূলে। এ কাজেও সহায়ক পিকে টিম।

এভাবেই তৃণমূলদলের সংগঠন কে মজবুত করে, তাকে জয়ের লক্ষ্যে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছে টিম পিকে, এমনটাই রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের অভিমত।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!