এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > অভিষেকের মন্তব্যের পর মাথা মুড়িয়ে আসার চ্যালেঞ্জ নিলেন মদন মিত্র

অভিষেকের মন্তব্যের পর মাথা মুড়িয়ে আসার চ্যালেঞ্জ নিলেন মদন মিত্র



মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদ মিছিলে অভিষেক ব্যানার্জী বিজেপিকে আক্রমণ করতে গিয়ে মদন মিত্র প্রসঙ্গ টানেন। অভিষেকবাবু বলেছিলেন, মদন মিত্র সারদার ২,০০০ কোটি টাকা মেরে জেলে গিয়েছিলেন। তিনি যদি সারদার ২,০০০ কোটি টাকা মেরে দিয়ে জেলে যেতে পারেন তাহলে নীরব মোদীরা বাইরে কেন? আর এর পরেই রাজনৈতিকমহলে বিতর্ক ছড়ায় যে সারদার টাকা সত্যি কি নিয়েছিলেন মদন মিত্র? আবারও বিতর্ক ছড়িয়েছিলো যে সত্যিই সারদার টাকা আত্মসাত্‍ করেছেন মদনবাবু আর সেটা প্রকাশ্যেই মেনে নিলেন অভিষেকবাবু! এবার তার উত্তর ফেসবুকের মাধ্যমে দিলেন। তিনি এদিন তিনি বলেন, “অভিষেক কী বলেছেন তার সাফাই আমি দেব না। তার উত্তর বুর্জোয়া সংবাদপত্রকে কেন দিতে যাব?”

সাথেই তিনি আরো যোগ করে বলেন যে, “অভিষেক দলের প্রধান সেনাপতি। নেত্রীর নেতা হিসেবে অভিষেকের অভিষেক হয়ে গিয়েছে, ও আমার পরিবারের একজন। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, অভিষেক, লতা বন্দ্যোপাধ্যায়রা যদি পাশে না থাকতেন তাহলে কি রাস্তায় দাঁডিয়ে মিটিং করতে পারতাম?” এছাড়া তিনি বলেন যে, “আমি মনে করি অভিষেক বলতে চেয়েছিলেন, তাঁকে মিথ্যে অভিযোগে আটকে রাখলে নীরব মোদীরা বাইরে কেন? যেহেতু সারদা চিটফাণ্ড মামলাটি বিচারাধীন তাই এ নিয়ে মন্তব্য করা ঠিক হবে না।” আদালত যা রায় দেবে তাই মেনে নেব বলেও জানান মদনবাবু। অন্যদিকে অভিষেকবাবুর প্রসংসা করে সংবাদমাধ্যমকে কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়েছেন তিনি। সাতেই চ্যালেঞ্জ নিয়ে বলেন যে,”আমি চ্যালেঞ্জ করছি, কামারহাটি থেকে দল যদি আমাকে মনোনয়ন দেয় তাহলে আমি ৫০ হাজারের বেশি ভোটে জিতব। যদি না পারি তাহলে মাথা মুড়িয়ে তিরুপতিতে দিয়ে আসব।”

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!