এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > ভোট বড় বালাই, সরকারি কর্মীদের মন জয়ে বড় সিদ্ধান্ত নিতে চলেছেন মোদী

ভোট বড় বালাই, সরকারি কর্মীদের মন জয়ে বড় সিদ্ধান্ত নিতে চলেছেন মোদী

দীর্ঘ প্রতিক্ষার অবসান হতে চলেছে কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারীদের। নতুন বছরের শুরুতেই বড়সড় সুখবর হতে পারে তাদের জন্যে। সপ্তম পে কমিশনের সুপারিশ অনুযায়ী মোদী সরকার ২০১৯ সালের শুরুতেই এক অংশের কর্মচারীদের বেতন বৃদ্ধি করার প্রবল সম্ভাবনা তৈরি হয়েছে।

বেশ কয়েকদিন ধরে গোটা দেশের সরকারি কর্মচারীরা বেতন বৃদ্ধির জন্যে লাগাতার দাবী জানিয়ে আসছে। কেন্দ্র সরকার তাদের চাহিদা মতো পারিশ্রমিক বাড়াচ্ছে না,এ নিয়ে মোদীর বিরুদ্ধে বিষোদগারও করেছেন তারা। কর্মচারীদের দাবী মেনে বেতন বাড়ালেও তা এতোটাই ন্যূনতম যে এর সাহায্যে জীবন ধারণ করা অসম্ভব।

এমন যুক্তিকে সামনে রেখেই ফের কেন্দ্রের বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন তারা। এবার লোকসভা ভোটের আগে কর্মচারীদের কথা কানে গেল বিজেপি সরকারের। তবে শুধুমাত্র চিকিৎসক এবং বিএসএনএল কর্মচারীদেরই বেতন বাড়ানোর পথে হাঁটছে কেন্দ্র,এমনটাই প্রশাসনিক সূত্রে জানা গিয়েছে।

যদিও সপ্তম পে কমিশন এখনো দেশের বিভিন্ন রাজ্যের কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারীদের উপর প্রযোজ্য হয়নি। তবে লোকসভা ভোটের আগে পশ্চিমবঙ্গের কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারীদের এই সুপারিশ অনুযায়ী বেতন বাড়ার একটা সম্ভাবনা তৈরি হল। এর আগেও একাধিক বার সপ্তম পে কমিশনের সুপারিশ অনুযায়ী বেতন বৃদ্ধি করার দাবীকে সামনে রেখে কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ আন্দোলন করেছে কর্মচারীরা।

কর্মীদের শান্ত করতে যে বেতন বাড়ানোর প্রস্তাব দিয়েছিল কেন্দ্র। কমিটি গঠন করে সমস্যা সমাধানের চেষ্টা করেছে। কিন্তু কোনো কিছুতেই সন্তুষ্ট না হয়ে ফের আন্দোলনের পথে হেঁটেছেম কর্মীরা। তবে এবার যদি সপ্তম পে কমিশন লাগু হয় তাহলে ১০ হাজার কোটি টাকা খরচ হবে কেন্দ্রের এবং কর্মীরা ১৪ মাসের মহার্ঘ ভাতা পাবেন। এবং কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারীরা ৩৬ মাসের বকেয়া টাকা পাবেন,এমনটাই জানা যাচ্ছে।

উল্লেখ্য, মহারাষ্ট্র সরকার কিন্তু সপ্তম পে কমিশন লাগু করে ইতিমধ্যেই রাজ্যের ২০ লক্ষ সরকারি কর্মচারীদের বেতন বৃদ্ধি করেছে। এখন সারা দেশে কবে কর্মীদের উপর সেটি প্রযোজ্য হয় সেটাই দেখার। তবে বিজেপির এই মুহূর্তে যা অবস্থা তাতে ভোটব্যাঙ্কের স্বার্থে সরকারি কর্মচারীদের হয়তো নিরাশ করবে না।

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

কারণ সদ্য সমাপ্ত পাঁচ রাজ্যের বিধানসভা ভোট প্রমাণ দিয়ে দিয়েছে দেশে প্রতিষ্ঠান বিরোধী হাওয়া কতোটা প্রবল! এছাড়া দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে বিজেপি নেতা-কর্মীরা যেভাবে দলবদল করছেন তাতে সাংগঠনিক শক্তিতে নেতিবাচক প্রভাব পড়ছে। এছাড়া শরিক দলগুলোরও বর্তমানে মোদী বিদ্বেষী আচরণ চিন্তায় ফেলছে বিজেপিকে। এই অবস্থায় লোকসভা ভোটের আগে কেন্দ্রীয় সরকারের কর্মচারীদের বেতন বৃদ্ধি করার চিন্তাভাবনার নেপথ্যে রাজনৈতিক স্বার্থ আছে বলেই মনে করছেন রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!