এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > ভেজাল ব্যবসা রুখতে বড় পদক্ষেপের পথে ইবি, বার্তা গেল একেবারে নবান্নে

ভেজাল ব্যবসা রুখতে বড় পদক্ষেপের পথে ইবি, বার্তা গেল একেবারে নবান্নে

দীর্ঘদিন ধরেই উত্তরবঙ্গের ভেজাল কারবারে অতিষ্ঠ সেখানকার বাসিন্দারা। খাবার থেকে ইলেকট্রনিক্স সামগ্রী, বাড়ি তৈরির সিমেন্ট থেকে ইট – প্রতিটি বস্তুতেই ভেজাল রয়েছে বলে বিভিন্ন সময় অভিযোগ আসত রাজ্য পুলিশের এনফোর্সমেন্ট ব্রাঞ্চে।

কিন্তু কলকাতায় বসে উত্তরবঙ্গের এই সমস্ত ভেজাল দ্রব্যের বাড়বাড়ন্ত কমাতে বড়ই চাপের মুখে পড়তে হতো ইবি কর্তাদের। জেলা গুলিতে এই তদন্তকারী সংস্থার কোনো পৃথক ইউনিট না থাকায় অভিযোগ না জানালে তাদের কাছে কোনরূপ তথ্যও আসতো না। ফলে তদন্তে একপ্রকার ঘাটতি থেকেই যেতো। এমনকি অভিযোগ পেলেও কলকাতা থেকে উত্তরবঙ্গে যেতে না যেতেই অনেক সময় সেই নকল কারবারে যুক্ত ব্যবসায়ীরা তাদের জায়গা বদল করতো।

ফলে মূল অভিযুক্তকে ধরা থেকে কিছুটা ত্রুটি থেকেই যেতো এই তদন্তকারী সংস্থার। কিন্তু এভাবে আর কতদিন! তাই উত্তরবঙ্গের এই ভেজাল ব্যাবসার রমরমা বন্ধ করতে এবার সেই উত্তরবঙ্গেই পৃথক ইউনিট তৈরির ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নিচ্ছেন ইবি কর্তারা।

সূত্রের খবর, একজন এসপিকে মাথায় রেখে 100 জনকে নিয়ে এই ইউনিট তৈরীর একটি খসড়াও তৈরি করেছে তারা। জানা গেছে, শিলিগুড়িতে একটি জায়গায় এই ইবির অফিস তৈরি করার পাশাপাশি উত্তরবঙ্গের প্রতিটি জেলাতেই ইবির শাখা রাখার চিন্তাভাবনাও করছেন তদন্তকারী কর্তারা। আর এই সমস্ত প্রস্তাব ইতিমধ্যেই পুলিশ ডিরেক্টরেটের মারফত পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে রাজ্য সরকারের সদর দপ্তর নবান্নে।

কিন্তু ইবির এই উদ্যোগে কি আদৌ সায় রয়েছে রাজ্য সরকারের? সূত্রের খবর, প্রাথমিক পর্যায়ে ইবির পাঠানো এই প্রস্তাবের গুরুত্ব বিবেচনা করে তাতে সায় দিয়েছেন রাজ্য প্রশাসনের কর্তারা। সেইমতো নবান্নের পক্ষ থেকে ইবির কাছে জানতে চাওয়া হয়েছে, ভাড়াবাড়ি নিয়ে ইউনিট চালু করলে কত খরচ? আর জমি কিনলে তা কোথায় কেনা হবে?

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

 

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

আর নবান্নের এই প্রশ্নের উত্তরে ইবির পক্ষ থেকে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে যে, এই ইউনিট তৈরীর ব্যাপারে শিলিগুড়ির একটি জায়গায় তারা জমি দেখেছে। সব মিলিয়ে এখন উত্তরবঙ্গের এই ভেজাল ব্যবসা রুখতে রাজ্য সরকারের সবুজ সংকেত পেলেই শিলিগুড়িতে নিজেদের ইউনিট তৈরি করে সেই ব্যবসার রমরমা কারবার বন্ধ করতে তৎপর হবে ইবি।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!