এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > আবার রাজ্যভাগের রাজনীতি উত্তাল উত্তরবঙ্গ – এবার ৮ জেলাকে নিয়ে পৃথক রাজ্যের দাবি!

আবার রাজ্যভাগের রাজনীতি উত্তাল উত্তরবঙ্গ – এবার ৮ জেলাকে নিয়ে পৃথক রাজ্যের দাবি!

একসময় গোর্খাল্যান্ডের দাবি তুলে পাহাড়কে ভাগ করে আলাদা রাজ্যের দাবিতে আন্দোলন শুরু করেছিল বিমল গুরুংয়ের নেতৃত্বাধীন গোর্খা জনমুক্তি মোর্চা। কিন্তু 2011 সালে রাজ্যে রাজনৈতিক পালাবদলের পর উত্তরবঙ্গ সফরে এসে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় স্পষ্টই জানিয়ে দিয়েছিলেন যে “পাহাড়কে কখনই তিনি আলাদা করবেন না। পাহাড় এবং সমতল নিয়েই বাংলা যেমন আছে, তেমনই থাকবে।”

তারপর বহু দিন গড়িয়েছে। এখন বিমল গুরুং ফেরার। গোর্খাল্যান্ডের দাবিও তেমন নেই বললেই চলে। কিন্তু তাতে কি হবে? এবারে আর পাহাড় নয়, উত্তরবঙ্গের আটটি জেলাকে নিয়েই পৃথক রাজ্যের দাবিতে সরব হল উত্তরবঙ্গ জনমুক্তি মঞ্চ। এদিন কোচবিহারে এক সাংবাদিক বৈঠক করে এই দাবি তোলেন সংগঠনের সদস্যরা। শুধু তাই নয়, কোচবিহার এবং রায়গঞ্জে এইএমসের দাবিও এদিন তোলে তাঁরা।

সূত্রের খবর, এদিনের এই সাংবাদিক বৈঠকে এই রাজ্য ভাগের দাবিতে সাংবাদিক বৈঠকে বিজেপির এক প্রাক্তন জেলা পদাধিকারীকেও দেখা যায়।যা নিয়েও ইতিমধ্যেই প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। এদিন সাংবাদিক বৈঠকে এই উত্তরবঙ্গ জনমুক্তি মঞ্চের সভাপতি গৌতম রায় বলেন, “উত্তরবঙ্গের আটটি জেলাকে নিয়ে পৃথক রাজ্য, বীর চিলা রায়ের মূর্তি স্থাপন, কোচবিহার ও রায়গঞ্জে এইমস হাসপাতাল গড়া। এই তিনটি দাবিতে আমাদের আন্দোলন চলবে।” 

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

পাশাপাশি দাবি পূরন না হলে অনশনের বসারও হুমকি দিয়েছেন এই সংগঠনের সদস্যরা।  অনেকের মতে, পাহাড়কে নিয়ে আলাদা রাজ্য গড়ার দাবিতে নানা আন্দোলন সংগ্রাম করলেও তার কাছে মাথা নত করেনি সরকার। নিজের জীবন দিলেও রাজ্যকে ভাগ করতে দেবেন না মুখ্যমন্ত্রী। তাই বৃথাই এ আন্দোলনের প্রস্তুতি নিচ্ছে উত্তরবঙ্গ জনমুক্তি মঞ্চ বলে মনে করছে ওয়াকিবহাল মহল।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!