এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > নতুন দলে যোগ দিয়েই তৃণমূলকে নিয়ে বিস্ফোরক মমতার কাননের, জেনে নিন বিস্তারিত

নতুন দলে যোগ দিয়েই তৃণমূলকে নিয়ে বিস্ফোরক মমতার কাননের, জেনে নিন বিস্তারিত

দীর্ঘদিন দলের সঙ্গে কানামাছি ভোঁ ভোঁ খেলেছেন শোভন চট্টোপাধ্যায়। দলে আছেন, কিন্তু তবুও তিনি নেই। নেত্রীর সাথে এবং দলের মূল সারির নেতাদের সাথে তার এই আড়ালে আবডালে খেলাটাকে ঠিকমতো মেনে নিতে পারেননি কেউই। কিন্তু কি করবেন শোভনবাবু! তৃণমূলে থাকবেন না কি বিজেপিতে যাবেন!

তা আন্দাজ করতে পারছিলেন না কেউই। অবশেষে সমস্ত জল্পনাকে নিবৃত্ত করে গত বুধবারই বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন শোভন চট্টোপাধ্যায় এবং তার বান্ধবী বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়। আর বিজেপিতে যোগ দিয়েই তৃণমূল ছাড়ার কারণ হিসেবে বিগত পঞ্চায়েত নির্বাচনে ব্যাপক সন্ত্রাসের কথা উল্লেখ করেন তিনি।

আর এবার নিজের প্রাক্তন দল সম্পর্কে বিস্ফোরক মন্তব্য করলেন সেই শোভন চট্টোপাধ্যায়। এক সময় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সর্বক্ষণের সঙ্গী এই মানুষটা এবার বললেন, বাংলায় পরিবর্তন প্রয়োজন হয়ে পড়েছে। আর সেই কারণেই তার বিজেপিতে আসা। আর এরপরই তার ব্যক্তিগত সম্পর্ক নিয়ে যেভাবে তার প্রাক্তন ধরে টানাটানি করেছে তা নিয়েও কটাক্ষ করেন শোভন বাবু।

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

তিনি বলেন, “আমার নিশ্চয়ই পারিবারিক সমস্যা আছে। আমার স্ত্রী আমাকে পেছন থেকে ছুরি মেরেছে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সব জানেন। সাহায্য চাইলে তিনি পরামর্শ দিয়েছেন। তবে ক্যাবিনেট এবং বিধানসভায় যেভাবে আমার ব্যক্তিগত বিষয় নিয়ে আলোচনা হয়েছিল, তাতে আমার সম্মান নিয়ে টানাটানি হয়েছে।”

অন্যদিকে একসময় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছ থেকে সমস্ত পরামর্শ নেওয়া শোভন চট্টোপাধ্যায় এবার বিজেপিতে যোগ দিয়েই সেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে পাল্টা পরামর্শ দিতে শুরু করলেন। এদিন প্রাক্তন নেত্রীর উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, “দলের পুরোনো কর্মীরা সম্মান পাচ্ছে না।আত্মসমালোচনা এবার জরুরি হয়ে পড়েছে।”

অন্যদিকে বিধানসভায় এক সময় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে আলোচনা করতে গিয়ে তৃণমূল কতগুলো সিট পাবে, তা নিয়ে শোভন চট্টোপাধ্যায় মন্তব্য করলেও তার বিরোধিতা করে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মন্তব্য যে তার ভাল লাগেনি তাও এদিন উল্লেখ করেছেন শোভনবাবু। সব মিলিয়ে এক সময় দিদি বলা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে এবার শিবির বদল করা ভাই কানন জোর কটাক্ষ করে শোরগোল তুলে দিলেন।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!