এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > মন্ত্রীর সামনে সভাপতির বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ তুললেন তৃণমূল নেতারা

মন্ত্রীর সামনে সভাপতির বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ তুললেন তৃণমূল নেতারা

দলীয় বিধায়কের গায়ে যদি হাত পরে তবে জেলা স্তব্ধ হয়ে যাবে এমন ভাষাতেই দলীয় বিধায়ককে হুঁশিয়ারি দিলেন তৃনমূল নেতারা।এদিন বালুরঘাটের গুলমোহর ভবনে তৃণমূলের জেলা সভাপতি বিপ্লব মিত্রর বিরুদ্ধে একনায়ক তন্ত্র ও দুর্নীতির অভিযোগ তুলে একটি সভা অনুষ্ঠিত হয় ৷কয়েক হাজার কর্মী সমর্থক হাজির ছিলেন সেই সভায়। সেখানে অভিযোগ করা হয় যে বিপ্লব মিত্র জেলাপরিষদ ও বিভিন্ন দফতরের টেন্ডারে ঠিকাদারদের কাছ থেকে ১০০ কোটিরও বেশি টাকার কাটমানি খেয়েছেন।পাশাপাশি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশও মানছেন না বিপ্লববাবু এমন অভিযোগ করা হয়।মন্ত্রী বাচ্চু হাঁসদাকে দেখে নেওয়ার হুমকি দিয়েছিলেন নাকি বিপ্লববাবু তার জবাবে এদিন হরিরামপুর পঞ্চায়েতের প্রাক্তন সভাপতি শুভাশিস পাল পাল্টা হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেন বাচ্চু হাঁসদার গায়ে হাত দিলে জেলা স্তব্ধ করে দেওয়া হবে৷ পাশাপাশি তিনি এও আশঙ্কা করেছেন যে বিপ্লববাবু যা করছেন তা যদি থামানো না যায় তবে সামনের পঞ্চায়েত ভোট সব আসন হারাবে তৃণমূল। এদিন স্বয়ং মন্ত্রী বাচ্চু হাসদাও অভিযোগ করেন যে দলীয় কর্মীদের সাথে তার অতটা ভাব নেই যতটা সিপিআইএম,বিজেপির সাথে আছে। এমনকি তাদের কথামতোই চলেন বিপ্লববাবু। এমনকি তাঁকে দলীয় সভাতেও ডাকা হয়নি বলে অভিযোগ করেন মন্ত্রী। এদিন এসসি-এসটি সেলের সভাপতি সত্যেন পাল অভিযোগ করে বলেন সভাপতির জন্যই সরকারি কাজের জন্য ঘুষ দিতে হচ্ছে। দক্ষিণ দিনাজপুরে তৃণমূল কংগ্রেসের গোষ্ঠী কোন্দল আগে থেকেই যে ছিল তা বহু বার প্রকাশ্যে এসেছে একে মেটাতে তৃণমূলের সাধারণ সম্পাদক সুব্রত বক্সী একাধিক বার জেলায় বৈঠক করেছেন। কিন্তু তেমন কিছু ফল হয় নি। এখন আগে নেত্রী কি ব্যাবস্থা নেন তাই দেখার।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!