এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > তৃণমূল বিধায়কের অন্দরমহলেই ফুটছে পদ্মফুল, সিপিএমকে ঢাল করে মুখরক্ষার চেষ্টা

তৃণমূল বিধায়কের অন্দরমহলেই ফুটছে পদ্মফুল, সিপিএমকে ঢাল করে মুখরক্ষার চেষ্টা

এবার ঘটালে পদ্মফুলের জয়জয়াকার। তৃণমূলকে অস্বস্তিতে ফেলে পদ্মফুল ফুটেছে তৃণমূল বিধায়ক শংকর দোলইয়ের গ্রামে। শংকরবাবুর বাড়ি মোহনপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের অধীনে আর তাৎপর্যপূর্ণ ভাবে সেই গ্রাম পঞ্চায়েতেই বিজেপি সবচেয়ে বেশি আসন পেয়েছে । জানা গেছে গ্রাম পঞ্চায়েতে মোট ২২টি আসন। তার মধ্যে ৬টি আসনে তৃণমূল বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয়লাভ করে। বাকি ১৬টি আসনে ভোট হয়। তার মধ্যে চারটিতে বিজেপির প্রার্থীরা জয়লাভ করেছেন। ঘাটাল মহকুমায় বিজেপি মোট পাঁচটি আসন পেয়েছে।আর খোদ তৃণমূল বিধায়কের নিজের গ্রাম পঞ্চায়েত থেকে বিজেপি চারটি আসন পেয়েছে ফলে অস্বস্তি বেড়েছে বিধায়কের বলেই মত রাজনৈতিকমহলের।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

তবে একথা মানতে নারাজ শঙ্করবাবু। তাঁর দাবি, “এটা কোনও উদ্বেগের বিষয় নয়। সিপিএম ওই গ্রাম পঞ্চায়েতে তাদের নিজেদের ভোট ধরে রাখতে পারেনি বলে এই অবস্থা হয়েছে। গ্রাম পঞ্চায়েত নির্বাচনে পরিচিত প্রার্থীরা থাকেন তাই কোনও কোনও ক্ষেত্রে ভোট এদিক-ওদিক হতেই পারে।বিজেপির অবস্থা সত্যিই ভালো হলে পঞ্চায়েত সমিতি এবং জেলা পরিষদেও বিজেপি এগিয়ে থাকত তা তো হয়নি। ” অন্যদিকে বিধায়কের যুক্তি মানতে নারাজ বিজেপির ঘাটাল জেলার সহ সভাপতি স্বরূপ সামুই। তিনি বলেন, “ওই গ্রাম পঞ্চায়েতে এক বিজেপি কর্মীকে ফোনে হুমকি দেওয়া হয়েছিল ফলে এলাকার ভোটাররা ক্ষুব্ধ হয়ে ও বিজেপিই নির্ভরযোগ্য দল এটা বিশ্বাস করে আমাদের ভোট দিয়েছেন।” তবে সে যাই হোক শোনা যাচ্ছে তৃণমূল বিধায়ককে কটাক্ষের সম্মুখীন হতে হচ্ছে দলের বিরোধীশিবিরেরে কাছে।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!