এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > লক্ষ লক্ষ টাকার কাঠ বাজেয়াপ্ত করতে গিয়ে আক্রান্ত বনকর্মীরা, অভিযোগ তৃণমূলের দিকে

লক্ষ লক্ষ টাকার কাঠ বাজেয়াপ্ত করতে গিয়ে আক্রান্ত বনকর্মীরা, অভিযোগ তৃণমূলের দিকে

সোমবার বেলা ১১ টা নাগাদ বক্সা ব্যাঘ্র প্রকল্পের পানা রেঞ্জ সংলগ্ন বনবস্তিতে লক্ষ লক্ষ টাকার বেআইনি কাঠ বাজেয়াপ্ত করতে গিয়ে আক্রান্ত হলেন এডিএফও অমর দে ও রেঞ্জ অফিসার আশিস মন্ডলসহ বেশ কয়েকজন বনকর্মী। বনদফতরের কর্মীরা এই হামলার পিছনে কালচিনি যুব তৃণমূল কংগ্রেসের এক প্রভাবশালী নেতা মাফিয়া পাষাং লামা ও তাঁর ভাই লামার প্রত্যক্ষ ভূমিকা আছে জানিয়ে অভিযোগ করেন। বনদফতরের কর্মীদের অভিযোগ অনুসারে হামলাকারীরা তাঁদের বেধরক মারধর করে এবং প্রাণনাশের হুমকি দেয়। বনদফতর হামলাকারীদের বিরুদ্ধে স্থানীয় কালচিনি থানায় এফআইআর দায়ের করেছে।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

জানা যাচ্ছে প্রাথমিক অবস্থায় কাঠ মাফিয়ারা  বাজেয়াপ্ত করা কাঠ উদ্ধার করতে না দিলেও পরে বিশাল পুলিশ বাহিনী ঘটনাস্থলে গিয়ে প্রচুর পরিমাণে সেগুন কাঠ উদ্ধার করতে শুরু করে। বনকর্তাদের অনুমান মোতাবেক উদ্ধার হওয়া এই সেগুন কাঠের আনুমানিক মূল্য কয়েক কোটি টাকা হবে। আলিপুরদুয়ার জেলা তৃণমূল কংগ্রেস সভাপতি মোহন শর্মা , এই ঘটনায় অভিযুক্ত যুব তৃণমূল কংগ্রেস নেতার কার্যকলাপ সম্পর্কে বললেন, “কেউ আইনের উর্ব্ধে নয়। দলের দোহাই দিয়ে এই ধরনের বেআইনি কাজ করা যাবে না। দল কোন ভাবেই অপরাধীদের পাশে থাকবে না। আইন আইনের পথে চলবে।” অন্যদিকে বক্সা ব্যাঘ্র প্রকল্পের ক্ষেত্র অধিকর্তা শুভঙ্কর সেনগুপ্ত বললেন, ”যে যত বড় প্রভাশালীই হোক না কেন, এই ধরণের বেআইনি কাজকে কিছুতেই প্রশ্রয় দেওয়া হবে না। আমরা কড়া পদক্ষেপ গ্রহণ করব।”

 

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!