এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > তৃণমূল করার ‘অপরাধে’ এবার বঞ্চনার অভিযোগ বিজেপি পরিচালিত পঞ্চায়েতের বিরুদ্ধে

তৃণমূল করার ‘অপরাধে’ এবার বঞ্চনার অভিযোগ বিজেপি পরিচালিত পঞ্চায়েতের বিরুদ্ধে

এতদিন রাজ্যের শাসক দল তৃণমূলের বিরুদ্ধে বৈষম্যের অভিযোগ তুলতে বিরোধীরা। এবার কিছু পঞ্চায়েতে ক্ষমতার স্বাদ পেতে না পেতেই সেই বিরোধী বিজেপির বিরুদ্ধেও উঠতে শুরু করেছে বৈষম্যের অভিযোগ। সূত্রের খবর, কেশিয়াড়ির লালুয়া পঞ্চায়েতের বিচিত্রপুর গ্রামে শাসক দলের কর্মী-সমর্থকদের আবাস যোজনার দ্বিতীয় ধাপের টাকা দিচ্ছে না এখানকার বিজেপি পরিচালিত পঞ্চায়েত।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, এই পঞ্চায়েতটি এবার বিজেপি দখল করেছে। আর ক্ষমতা পেয়েই সেখানে তৃণমূল কর্মী-সমর্থকদের আবাস যোজনার দ্বিতীয় দফার টাকা দিচ্ছেই না তারা বলে অভিযোগ শাসকদলের স্থানীয় নেতাদের। এমনকি এই ব্যাপারে সেই পঞ্চায়েতে অভিযোগ জানাতে গেলেই নাকি বলা হচ্ছে যে, বিজেপি না করলে এই টাকা দেওয়া হবে না।

পাশাপাশি এই ঘটনায় দুজন মহিলা সমর্থক কেও মারধোর করা হয়েছে বলে দাবি শাসকদলের। যদিও বা এই মারধরের ঘটনাটি অস্বীকার করেছেন বিজেপি নেতৃত্ব। এদিন এই প্রসঙ্গে তৃণমূলের প্রাক্তন ব্লক সভাপতি জগদিশ দাস বলেন, “তৃণমূল সমর্থক হওয়ার জন্যই আজকে আবাস যোজনার দ্বিতীয় দফার টাকা গ্রামের গরিব মানুষেরা পাচ্ছে না। বাড়ি পেতে গেলে বিজেপি করতে হবে হলে লাগাতার হুমকি দিচ্ছেন পঞ্চায়েত সদস্যরা।”

তবে তৃণমূলের তরফে ওঠা এই অভিযোগকে সম্পূর্ণ অস্বীকার করেছেন বিজেপির উত্তর মন্ডলের সভাপতি জগন্নাথ বোস। তার দাবি, প্রথম ধাপের টাকা পাওয়ার পর বাড়ি তৈরি হওয়ার প্রমাণ সহকারে ছবি পঞ্চায়েতে পাঠাতে হয়। কিন্তু আদতে তা না করে উল্টে পঞ্চায়েতকেই অসহযোগিতা করছেন তৃনমূলের কর্মী-সমর্থকরা।

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

 

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

এদিকে শাসক বনাম বিরোধীর অভিযোগ পাল্টা অভিযোগে এই গ্রামে শিকেয় উঠেছে আবাস যোজনার পরিষেবা। তাই গোটা বিষয়টি ইতি টেনে পুরো ঘটনাটি খতিয়ে দেখার আশ্বাস দিয়েছেন বিডিও সৌগত রায়। সব মিলিয়ে এবার তৃণমূল করার অপরাধে আবাস যোজনার বাড়ি পাওয়া থেকে বঞ্চনা করার অভিযোগ উঠল বিজেপি পরিচালিত কেশিয়াড়ি লালুয়া পঞ্চায়েতের বিরুদ্ধে।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!