এখন পড়ছেন
হোম > Posts tagged "tmc candidate"

বিদ্রোহ শেষ করে !মমতার ফোন এলে তৃণমূলে ফেরার ইচ্ছাপ্রকাশের পর হেভিওয়েট প্রাক্তন মন্ত্রীই এবার ইসলামপুরের তৃণমূল প্রার্থী

বেশ কিছুদিন আগেই তৃণমূল ছেড়ে পৃথক দল গড়ে চমক দিয়েছিলেন রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী তথা বর্তমানে বাংলা বিকাশবাদী কংগ্রেস দলের সুপ্রিমো জনাব আব্দুল করিম চৌধুরী। আর করিম সাহেব পৃথক দল করার পরেই লোকসভা নির্বাচনে তিনি লড়বেন বলে জানালেও সেইভাবে এবার তিনি নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেনি। তবে ইসলামপুর বিধানসভার তৃণমূল বিধায়ক কানাইয়ালাল আগরওয়াল এবার

দলীয় কর্মীদের থানায় ডেকে তৃণমূল প্রার্থীদের জেতানোর পাশাপাশি মার্জিন বাড়ানোর চাপ পুলিশের, কমিশনে যাচ্ছে বামেরা

রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেস পুলিশ প্রশাসনকে কাজে লাগিয়ে গণতান্ত্রিক ব্যবস্থাকে ভেঙে দখলের রাজনীতি কায়েম করতে চাইছে বলে বিভিন্ন সময়ে অভিযোগ করতে দেখা গেছে রাজ্যের বিরোধী শিবিরকে। তবে আসন্ন লোকসভা নির্বাচনের দামামা বাজার সাথে সাথেই এই পুরো প্রশাসনিক নিয়ন্ত্রণের ব্যাপারটা নির্বাচন কমিশনের হাতে চলে যাওয়ায় অনেকেই সুষ্ঠ নির্বাচনের ব্যাপারে আশ্বস্ত

মালদার দুটি আসনেই ঘাসফুল ফোটাতে এবার বিশেষ পরিকল্পনায় তৃণমূল নেত্রী – জানুন বিস্তারিত

দীর্ঘদিন ধরেই কংগ্রেসের শক্ত ঘাঁটি বলে পরিচিত মালদহ জেলা। কিন্তু আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে তৃণমূল নেত্রীর ঘোষিত বার্তা,"রাজ্যের 42 টি লোকসভা কেন্দ্রের মধ্যে 42 টি লোকসভা কেন্দ্রই দখলে চাই।" আর তাই তো এবার কংগ্রেসের একদা শক্ত ঘাঁটি বলে পরিচিত মালদহে জোর প্রচার শুরু করে দিয়েছে তৃণমূল। কিছুদিন আগেই কংগ্রেস ছেড়ে তৃণমূলে যোগ

দলীয় প্রার্থীকে পাশে বসিয়ে কেন্দ্রীয় বাহিনীকে নিয়ে বেফাঁস মন্তব্য করে বিপাকে তৃণমূলের জেলা সভাপতি

এবার দেবকে পাশে নিয়ে কেন্দ্রীয় বাহিনীর হাতচ মুচড়ে দেওয়ার পরামর্শ দিয়ে বিতর্কে জড়ালেন তৃণমূল কংগ্রেসের পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার সভাপতি অজিত মাইতি। বাড়িতে গিয়ে কেন্দ্রীয় বাহিনী ধমক দিলে হাত মুচড়ে দিবেন। ঘাটাল লোকসভা কেন্দ্রে দীপক অধিকারী নির্বাচনী প্রচারে বক্তব্য রাখতে গিয়ে এমনটাই বললেন তৃণমূলের পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা সভাপতি অজিত মাইতি। অজিত বাবু

রিয়া-রাইমাকে প্রচারে এনে ঝড় তুলে সেলিব্রিটি প্রার্থী মুনমুন সেনকে জেতানোর মাস্টারপ্ল্যান তৃণমূলের

গত লোকসভা ভোটে আসানসোল লোকসভা কেন্দ্রটি দখল করতে পারেনি তৃণমূল। বরঞ্চ এখানে তৃণমূল প্রার্থীকে পরাজিত করে জয় লাভ করেছে বিজিপির বাবুল সুপ্রিয়। তবে এবার সেই আসানসোল লোকসভা কেন্দ্র দখল করতে বাবুলের বিরুদ্ধে যাতে জোর কদমে লড়াই করে যায় সেজন্য সেলিব্রিটি প্রার্থী হিসেবে অভিনেত্রী মুনমুন সেনকে দাঁড় করিয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস। সূত্রের

দেওয়াল লিখনেও নীল- সাদা উন্নয়নকে বেশি গুরুত্ব দিয়ে জয়ের মার্জিন বাড়াতে চান শতাব্দী রায়

2009 এর পর 2014 সালের লোকসভা নির্বাচনে বীরভূমের তৃণমূল প্রার্থী হিসেবে অভিনেত্রী শতাব্দী রায় জয়লাভ করলেও আসন্ন 2019 এর লোকসভা নির্বাচনে তিনি আদৌ বীরভূম লোকসভা আসন থেকে তৃণমূলের প্রার্থী হিসেবে দাঁড়াবেন কি না তা নিয়ে প্রথম থেকে নানা জল্পনা চললেও অবশেষে বীরভূমের তৃণমূল প্রার্থী শতাব্দী রায়ের ওপরই আস্থা রাখতে দেখা

Top
error: Content is protected !!