এখন পড়ছেন
হোম > Posts tagged "nrc"

এনআরসি নিয়ে ভালো সাড়া, অধীর-গড়ে দাঁড়িয়ে হাওয়া আরও গরম করে দিলেন শুভেন্দু অধিকারী

  সম্প্রতি তৃণমূলের রাজ্য কমিটির বৈঠকে তৃণমূলের নিযুক্ত রননীতিকার প্রশান্ত কিশোরের নির্দেশ মত এনআরসি ইস্যুতে প্রচারে জোর দিতে বলা হয়েছে তৃনমূল নেতৃত্বদের। জেলায় জেলায় ইতিমধ্যেই সেই নিয়ে শুরু হয়ে গিয়েছে তোড়জোড়। আর সেই মোতাবেক এবার এনআরসি ইস্যুতে মুর্শিদাবাদের অধীর চৌধুরীর গড়ে জোরদার প্রচার করতে দেখা গেল জেলা তৃণমূলের পর্যবেক্ষক তথা মন্ত্রী

এনআরসি নিয়ে তৃণমূলের তীব্র প্রচারের পাল্টা দিতে বিজেপি নেতাদের প্রশিক্ষনে আসছেন কেন্দ্রীয় নেতারা

  লোকসভা নির্বাচনে বিজেপির উত্থান ছিল চোখে পড়ার মত। 2 থেকে 18 টি আসন দখল করে বিজেপি কার্যত তাক লাগিয়ে দিয়েছে। উত্তরবঙ্গে 7 টি আসন দখল করে তৃণমূলকে কার্যত ধুয়ে মুছে সাফ করে দিয়েছে ভারতীয় জনতা পার্টি। তবে লোকসভায় বিজেপির উত্থান ঘটলেও, যত দিন যাচ্ছে ততই যেন বিজেপি প্রভাব কমতে শুরু

রাজ্যে এনআরসি হলে কারা সুরক্ষিত থাকবেন আর কারা থাকবেন না, পরিষ্কার করলেন মুকুল রায়

রাজ্যের তিন বিধানসভা আসনে উপনির্বাচন হতে চলেছে। আর তিনটি আসনেই বিজেপি-তৃণমূল দুজনের কাছে প্রেস্টিজ ফাইট। করিমপুর কেন্দ্র থেকে বিজেপি প্রার্থী হয়েছেন জয়প্রকাশ মজুমদার। আজ মঙ্গলবার জয়প্রকাশ মজুমদার মনোনয়নপত্র পেশ করতে যান। এই সময় তার সাথে ছিলেন মুকুল রায় এবং দলের নেতা কর্মীরা। এদিন মুকুল রায় তৃণমূলের বিরুদ্ধে অভিযোগ তোলেন যে, তৃণমূল

এনআরসি নিয়ে বড়সড় ঘোষণা প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈয়ের – জানুন বিস্তারিত

লোকসভা ভোটের পর থেকেই কেন্দ্রের বিজেপি নেতৃত্ব এনআরসি নিয়ে তৎপর হয়েছে। এনআরসি বা নাগরিক পঞ্জিকার প্রথম পর্ব শুরু হয়েছিল আসাম থেকে। এনআরসি হওয়ার পর দেখা যায় আসাম থেকে 19 লক্ষ মানুষের নাম বাদ পড়েছে। যার মধ্যে 11 লক্ষ হিন্দু বলে দাবি করা হয়েছে। ঘটনায় সারা দেশ জুড়ে তুমুল বিতর্ক শুরু

এনআরসির হাত ধরেই কি উত্তরবঙ্গে ঘুরে দাঁড়াবে তৃণমূল? জল্পনা বাড়ালেন খোদ মুখ্যমন্ত্রী

  কিছুদিন আগেই হয়ে গিয়েছে লোকসভা নির্বাচন। যে নির্বাচনে উত্তরবঙ্গের আটটি লোকসভা আসনের মধ্যে সাতটিতেই পরাস্ত হয়েছে ঘাসফুল শিবির। যেখানে জয়লাভ করেছে বিজেপি প্রার্থীরা। আর উত্তরবঙ্গে একসময় তৃণমূলের রমরমা বাজার থাকলেও লোকসভা নির্বাচনে সেইখানে তৃণমূল ব্যাপক ধাক্কা খাওয়ায় চিন্তার ভাঁজ পড়েছিল তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কপালে। লোকসভা নির্বাচনের পর এখন বেশ কিছু

বাংলাতে কখনই এনআরসি হতে দেব না, ফের হুংকার মমতার

অসমে জাতীয় নাগরিকপঞ্জির তালিকা চূড়ান্ত হওয়ার পরই দেখা যায়, অনেক বাঙালির নাম বাদ পড়েছে। যার পরে সেই ঘটনা নিয়ে অসম তথা গোটা ভারতে আলোড়ন সৃষ্টি হয়। আর এই বিষয় নিয়ে বিজেপি বিরোধী প্রায় সব কটা রাজনৈতিক দল বিজেপির বিরুদ্ধে তীব্র আন্দোলনে গর্জে উঠলে প্রবল অস্বস্তিতে পড়ে গেরুয়া শিবির। তবে সেই অস্বস্তিকে

এনআরসি আটকাতে প্রয়োজনে ‘জঙ্গি রাজনীতি’! স্পষ্ট করলেন সূর্য্যকান্ত মিশ্র

লোকসভা ভোটের পর থেকেই কেন্দ্রে বিজেপি নেতৃত্ব এনআরসি নিয়ে তৎপর হয়েছে। এনআরসি বা নাগরিক পঞ্জিকার প্রথম পর্ব শুরু হয়েছিল আসাম থেকে। এনআরসি হওয়ার পর দেখা যায়, আসাম থেকে 19 লক্ষ মানুষের নাম বাদ পড়েছে। যার মধ্যে 11 লক্ষ হিন্দু বলে দাবি করা হয়েছে। এই ঘটনায় সারা দেশজুড়ে তুমুল বিতর্ক শুরু

গ্রামে গ্রামে জেগে ওঠা জয় শ্রীরামের হাওয়া কেড়ে নিতে শুরু এনআরসির আতঙ্ক নিয়ে জোরদার প্রচার

অসমে জাতীয় নাগরিকপঞ্জির তালিকা চূড়ান্ত হওয়ার পরই বাংলাতেও এনআরসি করা হবে বলে দাবি তুলতে শুরু করেছিল বিজেপি নেতারা। তবে বাংলায় তারা থাকতে কোনমতেই এনআরসি চালু করতে দেবেন না এবং এই এনআরসির ফলে বিজেপি বাঙ্গালীদের সর্বনাশ করতে চাইছে বলে দাবি তুলেছিল তৃণমূল। ফলে তৃণমূলের এই দাবিতে বিশ্বাসী হয়ে কি বিজেপির প্রতি আস্থা

করিমপুরে পদ্ম ফোটাতে এখন থেকেই আসরে নেমে পড়লেন কৈলাশ-মুকুলরা – জানুন বিস্তারিত

গত লোকসভা নির্বাচনে ভারতের বিভিন্ন রাজ্যের মধ্যে বাংলায় বিজেপির সাফল্য ছিল চোখে পড়ার মতো। যেখানে তিন বছর আগে বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপির জামানত জব্দ হয়ে গেছিল, সেখানে লোকসভা নির্বাচনে বিজেপির ভোট 40.30 শতাংশ বেড়ে গেছে। পাঁচ বছরে তাঁদের আসন সংখ্যা দুই থেকে বেড়েছে 18। লোকসভা নির্বাচনে পশ্চিমবঙ্গের মোট আসন 42। এর

এন আর সি নিয়ে লাগাতার আন্দোলন শুরু তৃণমূলের

লোকসভা ভোটের পর থেকে কেন্দ্রে বিজেপি নেতৃত্ব এনআরসি নিয়ে তৎপর হয়েছে। এনআরসি বা নাগরিক পঞ্জিকার প্রথম পর্ব শুরু হয় আসাম থেকে। এনআরসি হওয়ার পর দেখা যায় আসাম থেকে 19 লক্ষ মানুষের নাম বাদ পড়েছে। যার মধ্যে 11 লক্ষ হিন্দু বলে দাবি করা হচ্ছে। এই ঘটনায় সারাদেশে তুমুল বিতর্ক শুরু হয়েছে। আর

Top
error: Content is protected !!