এখন পড়ছেন
হোম > Posts tagged "narendra modi"

মোদির সাথে বৈঠকে স্বয়ং তৃণমূল নেত্রী – দলের নেতাদের বিজেপি সংস্পর্শে সো-কজ ঘিরে এবার সাবধানী তৃণমূল

দলের নেতাদের বিজেপি সংস্পর্শ ঘিরে জোর চাঞ্চল্য ছড়িয়েছিলো তৃণমূলের অন্দরে। জেলার তৃণমূল নেতা,জনপ্রতিনিধিরা এই নিয়ে বেজায় আশঙ্কায় ছিলেন। কখন কোন বিজেপি নেতার সাথে দেখা হয়ে যায় আর তাদেরকে সো কজের মুখে পড়তে হয়। অবশ্য এই ভয়ের কারণও আছে। তা হলো বিজেপি-র রাজ্য সভাপতি তথা সাংসদ দিলীপ ঘোষের সঙ্গে মেলার অনুষ্ঠানে

প্রধানমন্ত্রীর কড়া নির্দেশ এ রাজ্যে জনসংখ্যা নথিভুক্ত হবেই, রাজ্য বিজেপিকে নির্দেশ জনগণকে বোঝানোর

সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন, জাতীয় নাগরিক পঞ্জী এবং জাতীয় জনসংখ্যা রেজিস্টার নিয়ে ইতিমধ্যে সারাদেশে বিক্ষোভের ঝড় বয়ে যাচ্ছে। ক্রমশ সেই ঝড় সাইক্লোনে রূপান্তরিত হচ্ছে। সারা দেশজুড়ে প্রতিবাদ মিছিলের মধ্য থেকে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন ও জাতীয় নাগরিক পঞ্জী নিয়ে মোদি সরকারের বিরুদ্ধে গর্জে উঠছে দেশের সাধারণ মানুষ থেকে শুরু করে বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া

কলকাতায় আসার আগে বাংলার মন জয়ের চেষ্টায় প্রধানমন্ত্রীর এবার বাংলায় টুইট

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির প্রত্যেকবারই পশ্চিমবঙ্গের আসার আগে বাংলায় একটি টুইট করে বার্তা দেন। এর আগেও লোকসভা নির্বাচনের দিন ঘোষণা হওয়ার পর প্রথম সভা করতে আসার আগে বাংলার মানুষকে বাংলা ভাষায় বার্তা দেন তিনি। এবারও তার অন্যথা হলো না। এই মুহূর্তে নাগরিকত্ব আইন লাগু নিয়ে চূড়ান্ত বিক্ষোভ শুরু হয়েছে সারা দেশজুড়ে।

প্রধানমন্ত্রীর সফর ঘিরে আজ রাজ্য উত্তাল, চিন্তার ভাঁজ বাংলার প্রশাসনের কপালে

দ্বিতীয় দফায় প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর আজ শনিবার দ্বিতীয় বার কলকাতায় আসছেন নরেন্দ্র মোদী। নাগরিকত্ব বিল পাস হওয়ার পর এটাই তাঁর প্রথম বাংলা সফর। এই সফরকে কেন্দ্র করে তুমুল বিক্ষোভের আশঙ্কা রয়েছে কলকাতায়। উল্লেখ্য, গত কালই গেজেট বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে নাগরিকত্ব আইন কার্যকর করার কথা ঘোষণা করেছে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক। দেশজুড়ে এমনিতেই নাগরিকত্ব আইন

নাগরিকত্ব সংশোধনী নিয়ে ফের হুমকি মন্তব্য, ফের বিতর্কে অনুব্রত

  নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন নিয়ে ইতিমধ্যেই বিজেপি বনাম তৃণমূলের মধ্যে তীব্র দ্বৈরথ শুরু হয়েছে। আর রাজ্যে এই আইন পাস হওয়ার পর তাতে রাষ্ট্রপতির স্বাক্ষর হয়ে গেলে সারা দেশজুড়ে তা প্রতিষ্ঠিত হয়। আর এই নাগরিকত্ব আইন প্রতিষ্ঠিত হওয়ার পরেই তার চরম বিরোধিতা করে সরব হতে শুরু করে তৃণমূল কংগ্রেস। ইতিমধ্যেই উত্তরবঙ্গ থেকে দক্ষিণবঙ্গ,

প্রধানমন্ত্রীকে “পাকিস্তানের রাষ্ট্রদূত” বললেন মমতা, জোর শোরগোল!

  অতীতে নির্বাচনী প্রচারে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে নরেন্দ্র মোদির উদ্দেশ্যে বারবার আক্রমণাত্মক মন্তব্য করতে দেখা গেছে। যেখানে কখনও কাকড়ের মিষ্টি পাঠানো, আবার কখনও বা কোমরে দড়ি পরিয়ে জেলে ঢোকানোর কথা বলে বিতর্কের কেন্দ্রবিন্দুতে চলে এসেছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে বাকচতুর নরেন্দ্র মোদী বরাবরই সুকৌশলে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের এই সমস্ত বক্তব্যের জবাব দিয়েছেন। অনেক ক্ষেত্রে পুলওয়ামা

এবার টুইটারে প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে ঝাঁঝালো আক্রমণ করলেন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢরা

সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন, জাতীয় নাগরিকপঞ্জি এবং জাতীয় জনসংখ্যা রেজিস্টার নিয়ে বিভিন্ন ব্যাখ্যার সাথে সাথে পরস্পরবিরোধী বেশকিছু তথ্য উঠে এসেছে। এবং তার সাথে পাল্লা দিয়ে বেড়েছে ধোঁয়াশা। দিন দিন এই বিভ্রান্তি যত বাড়ছে, ততই সারা দেশে তুমুল আন্দোলনের ঝাঁঝও বাড়ছে বলে খবর। অন্যদিকে, এনআরসি ও সিএএ নিয়ে এবং এনপিআরের বিরোধিতায় টানা

রাজনৈতিক উত্তাপের আঁচ নিতে এবার রাজ্যে পা দিতে চলেছেন প্রধানমন্ত্রী

ইতিমধ্যে নাগরিকপঞ্জি এবং সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের প্রতিবাদে পশ্চিমবঙ্গ উত্তপ্ত। তার ওপর গণতন্ত্র দিবসে লালকেল্লা সামনের কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠান থেকে বাদ দেওয়া হয়েছে পশ্চিমবঙ্গের ট্যাবলো। গত বছর প্রজাতন্ত্র দিবসের কুচকাওয়াজে বাংলাকে দেখা গেলেও চলতি বছরে বাংলার প্রস্তাব খারিজ করে দিয়েছে প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের কমিটি। সব নিয়ে কেন্দ্র রাজ্যের মধ্যে সংঘাতের মাঝেই এবার মমতার

রাজীব কুমারকে নিয়ে মোদী-মমতার গোপন আঁতাত ফাঁস করলেন হেভিওয়েট নেতা, জোর শোরগোল

  বর্তমানে কেন্দ্রের বিজেপি সরকারের সঙ্গে রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেসের আদায়-কাঁচকলায় সম্পর্ক প্রায় প্রত্যেকেই প্রত্যক্ষ করছে। নাগরিকত্ব সংশোধনী ইস্যুতে ইতিমধ্যেই বাংলার স্বপক্ষে এবং বিপক্ষে থেকে মূল লড়াই শুরু হয়েছে বিজেপি এবং তৃণমূলের মধ্যে। যে লড়াই চরম আকার ধারণ করেছে। তবে এই ইস্যুতে নরেন্দ্র মোদী বনাম মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকারের মধ্যে দ্বৈরথ চরম

নাগরিকত্বের পক্ষে সওয়াল মোদীর, কটাক্ষ মমতা সমেত, বাম কংগ্রেসকেও

ইতিপূর্বেও কেন্দ্র সরকারের একাধিক সিদ্ধান্ত নিয়ে জোরদার বিরোধিতা করতে দেখা গিয়েছে বিজেপি বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলোকে। কিন্তু বারবারই নিজের ব্যক্তিত্বের দ্বারা এবং নিজের তীব্র ভাষাশৈলীর মাধ্যমে ধরাশায়ী করতে দেখা গেছে ভারতীয় জনতা পার্টির প্রাণপুরুষ তথা ভারতবর্ষের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে। আর এবার যখন সংশোধিত নাগরিক আইন নিয়ে দেশের সর্বস্তরে বিজেপি বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলো

Top
error: Content is protected !!