এখন পড়ছেন
হোম > Posts tagged "narendra modi"

আয়কর নিয়ে বড়সড় ঘোষণা করতে পারে মোদী সরকার, আশায় বুক বাঁধছে মোদী সরকার

দেশের অর্থনীতির বেহাল দশা ফেরাতে আগেই পদক্ষেপ গ্রহণ করেছিলেন দেশের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মালা সিতারামন। কিছুদিন ধরেই ভারতবর্ষের অর্থনীতির আকাশে কালো মেঘ দেখা দিয়েছে, যার অস্তিত্ব এখনো রয়ে গেছে। অর্থনৈতিক মন্দার ফলে দেশের ছোট বড় মাঝারি শিল্প সংস্থা গুলির অবস্থা অত্যন্ত খারাপ। অর্থনৈতিক অবস্থা খারপের ফলে মানুষ এখন

মহারাষ্ট্র দখলে রাখতে বিজেপির ভরসা সেই ‘অমিত শাহ মডেল’ – জানুন বিস্তারিত

এবার পরপর বিধানসভা নির্বাচন শুরু হতে চলেছে। সাথে উপ-নির্বাচনও আছে‌ যা নিয়ে বিজেপি শিবিরের ব্যস্ততা তুঙ্গে। গোটা দেশের 51 টি কেন্দ্রে উপনির্বাচন হবে 21 শে অক্টোবর। লোকসভা ভোটে জয়লাভের পরেই বিজেপি সারাদেশের বিধানসভাগুলি দখল করার উদ্দেশ্যে সংগঠন বাড়িয়ে চলেছে। ইতিমধ্যে মহারাষ্ট্র, হরিয়ানা, ঝাড়খন্ডে নির্বাচনের সময় স্থির হয়ে গেছে। মহারাষ্ট্র নিয়ে

প্লাস্টিক নিয়েই প্রধানমন্ত্রী নিজেই শুরু করলেন প্লাস্টিক বর্জন,জোর বিতর্ক

দিনদিন পৃথিবীর আবহাওয়া হয়ে উঠছে উত্তপ্ত। গ্লোবাল ওয়ার্মিং এর জেরে পৃথিবীর আয়ু কমতে শুরু করেছে। আর গ্লোবাল ওয়ার্মিং এর প্রধান কারণ হলো সবুজ নিধন ও প্লাস্টিকের বাড়বাড়ন্ত। বর্তমানে বেশ কিছু ছবি সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে আমাদের চোখে এসেছে। যেখানে সামুদ্রিক প্রাণী, পাখি, স্হলচর প্রাণী ইত‍্যাদিরা প্লাস্টিক খেয়ে ফেলছে। যার ফলে তারা

ভোটে হারতেই কোদাল হাতে এলাকা সাফাইয়ে নেমে পড়েছেন তৃণমূল বিধায়ক-মন্ত্রী

ভারতবর্ষে গান্ধীজীর ভাবধারায় অনুপ্রাণিত হয়ে 'স্বচ্ছ ভারত অভিযান' প্রথম শুরু করেছিলেন বিজেপির নরেন্দ্র মোদি। এবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে অনুসরণ করেই রাজ্যের তৃণমূল বিধায়ক মন্ত্রীও একই পথের পথিক হলেন। এলাকা সাফাইয়ে নেমে পড়লেন তিনিও। কথা হচ্ছে তৃণমূল বিধায়ক মন্ত্রী শ্যামল সাঁতরার প্রসঙ্গে। লোকসভা ভোটে তৃণমূলের হয়ে তিনি বিষ্ণুপুর থেকে দাঁড়িয়েছিলেন। কিন্তু

অর্থনৈতিক মন্দার মাঝেই আরও বড় দুঃসংবাদ! মোদী-নির্মলার দুশ্চিন্তা বাড়িয়ে কমছে জিএসটি সংগ্ৰহ

বর্তমানে ভারত বর্ষ চরম অর্থনৈতিক মন্দার মুখোমুখি হয়েছে। জিডিপির হার ক্রমশ কমছে। ক্রমাগত বেড়েই চলেছে ছাঁটাইয়ের ভয়। দেশের ছোট ও মাঝারি শিল্পগুলি দেখছে ক্ষতির মুখ। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ও কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন নিত্যদিন অর্থনীতির হাল ফেরানোর চেষ্টা করে যাচ্ছেন। বিভিন্ন পদ্ধতি অবলম্বন করে বর্তমানে ভারতের উপর এসে পড়া অর্থিক

দীপাবলির আগেই কি বেতন-সাশ্রয় নিয়ে বড়সড় সুখবর পেতে চলেছেন দেশের সমস্ত সরকারি-বেসরকারি কর্মী?

2019 সাল দেশের জন্য একটা উল্লেখযোগ্য বছর। কাশ্মীর থেকে শুরু করে চন্দ্রযান অভিযান সবকিছুই হয়েছে এবছর প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির তত্ত্বাবধানে। সব ভালো করলেও এক জায়গায় এসে দেশবাসীর ভুরু কুঁচকেছে। আর তা হল অর্থনৈতিক মন্দা। হঠাৎ আসা এই অর্থনৈতিক মন্দার হাত থেকে দেশকে বাঁচাতে প্রধানমন্ত্রী ও কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নানান চেষ্টা করে

এবার মোদী-শাহ-দোভালকে প্রাণে মারার পরিকল্পনা পাকিস্তানের? সামনে এল বিস্ফোরক রিপোর্ট

পাকিস্তান বরাবরই সন্ত্রাসের শিরোনামে থাকে। আমেরিকার কালো তালিকায় একেবারে প্রথমে দিকেই রয়েছে যে জঙ্গি সংগঠন তার সঙ্গে পাকিস্তানের সরাসরি সম্পর্কের কথা জানা যায়। আল-কায়দা থেকে আইএসআই সবারই যোগ আছে পাকিস্তানের সঙ্গে। উল্লেখ্য, সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর কাশ্মীর ইস্যু নিয়ে প্রবল ক্ষোভ প্রকাশ করে পাকিস্তান। ভারতকে কোণঠাসা করতে আন্তর্জাতিক মহলের সব

প্রধানমন্ত্রীকে সম্মান জানানোর আর্জি জানিয়ে জল্পনা উসকে দিলেন হেভিওয়েট কংগ্রেস নেতা

প্রধানমন্ত্রীর নরেন্দ্র মোদির জনপ্রিয়তা এ দেশের সাথে সাথে বিদেশেও ছড়িয়েছে বলে সূত্রের খবর। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এ যাবৎকালে যা সিদ্ধান্ত নিয়েছেন, তার ফলে আন্তর্জাতিক মহলে তাঁকে নিয়ে যথেষ্ট আলোড়ন হয়েছে। কাশ্মীর ইস্যুতে কূটনৈতিক বাজিমাতে তিনি সফল। ফলে আন্তর্জাতিক ঘরানায় প্রধানমন্ত্রী মোদি কে নিয়ে কৌতুহল ক্রমাগত বেড়েই চলেছে। আর এর ফলে

মোদির বিদেশ নীতির চাপে ব্যাকফুটে চীন ? সামনে আসছে নতুন সমীকরণ – জানুন বিস্তারিত

প্রধানমন্ত্রীর নরেন্দ্র মোদীর হাত ধরে কাশ্মীর থেকে 370 ধারা অবলুপ্তির ফলে কাশ্মীর ইস্যু নিয়ে প্রবল আপত্তি প্রকাশ করে পাকিস্তানের। এই ঘটনাকে ইস্যু করে চীনের হাত ধরে রাষ্ট্রসঙ্ঘে গিয়ে গর্জন করার দাবি জানিয়েছিল পাকিস্তান। একদা বন্ধু চীন তাদের সাহায্য করবে ভারতের বিরুদ্ধে লড়াই করার ক্ষেত্রে, এমনই আশা ছিল তাঁদের। কিন্তু বর্তমানে

উন্নয়ন বৈঠকে আইনমন্ত্রী ও আইনজ্ঞ সাংসদ দোসর কেন? মমতার দিল্লি সফর নিয়ে প্রশ্ন!

প্রায় আড়াই বছর পর মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সাথে বৈঠক করতে চলেছেন। এতদিন মুখ্যমন্ত্রীর তরফ থেকে শুধুমাত্র বিষোদগারই হয়েছে প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে। কেন্দ্রের প্রতিটি বিষয়ই এ রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর না পসন্দ। সবেতেই নাক সিঁটকেছেন তিনি। লোকসভা ভোটের আগে বিষোদগারের মাত্রাও বেড়ে যায়। প্রধানমন্ত্রীকে সেসময় তিনি কোমরে দড়ি বেঁধে ঘোরাবেন বলে

Top
error: Content is protected !!