এখন পড়ছেন
হোম > Posts tagged "meyor"

মেয়রের কাছে চা খাওয়ার আবেদন বিজেপি সংসদের, ক্রমশ বাড়ছে জল্পনা

শিলিগুড়িতে বিজেপি সাংসদের সিপিএম নেতা তথা শিলিগুড়ি পৌরসভার মেয়র অশোক ভট্টাচার্যের কাছে চা খেতে যাওয়াকে কেন্দ্র করে জোর জল্পনা সৃষ্টি হয়েছে রাজনৈতিক মহলের অন্দরে। গত 8 তারিখে পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সরকারের তরফ থেকে কেন্দ্র বিরোধী একাধিক ইস্যুতে বাম কংগ্রেসের ডাকা বন্ধের দিন সরকারি কাজকর্ম সহ রাজ্যকে সচল রাখার ব্যবস্থা গ্রহণ করা

কালীপুজোর আবহে আসানসোলে জোর টক্কর কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বনাম মেয়রের

  লোকসভা নির্বাচনের সাফল্য পাওয়ার পর বাংলা ও বাঙালির প্রিয় উৎসবকে হাতিয়ার করার কথা ভেবেছিল গেরুয়া শিবির। আর সেই মত সদ্যসমাপ্ত দুর্গাপুজোয় বেশিরভাগ ক্লাব উদ্বোধনের টার্গেট নিয়েছিল তারা। তবে সেই সময় বিজেপির আশা অতটা পূর্ণ হয়নি। কিন্তু শক্তির দেবী মা কালীর আরাধনায় তৃণমূলকে টেক্কা দিয়ে, যাতে তারা বেশি ক্লাবের পূজো উদ্বোধন

মেয়রের দপ্তর নিয়ে বড়সড় রদবদল, কারণ জেনে নিন

গত 25 শে আগস্ট রবিবার শিলিগুড়ির মেয়র অশোক ভট্টাচার্যের মাইল্ড হার্ট অ্যাটাক হয়। প্রাথমিক চিকিৎসার পর 27 শে আগস্ট তিনি ভর্তি হন মুকুন্দ পুরের ফরটিস হাসপাতালে। তার হার্টে ব্লক ধরা পড়ে। এঞ্জিওপ্লাস্টি করা হয়। সফল এঞ্জিওপ্লাস্টির পরে আপাতত কলকাতার বাড়িতে মেয়র অশোক ভট্টাচার্য। তিনি সুস্থ আছেন বলে জানা গেছে। তবে এখনও

BIG BREAKING -হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে মেয়র, জেনে নিন

শিলিগুড়ির মেয়র অশোক ভট্টাচার্য আজ রবিবার সকালে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন বলে জানা গেছে। তবে বর্তমানে তাঁর অবস্থা স্থিতিশীল বলে হাসপাতাল সূত্রে জানা যাচ্ছে। আজ রবিবার সকালে তিনি বুকে ব্যাথা অনুভব করেন পারিবারিক চিকিত্‍সক তাঁকে ইসিজি করেন এবং হাসপাতালে ভর্তি করার পরামর্শ দেন।হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে ওখানকার চিকিৎসকরা পরীক্ষা

BIG BREAKING- অবশেষে জল্পনার অবসান, বিধাননগর পৌরসভার মেয়র হতে চলেছেন ইনি, জেনে নিন

সব্যসাচী দত্তকে নিয়ে অনেক দিন ধরেই বিধাননগর পৌরসভায় টানাপোড়েন চলছিল। বিদ্যুৎ দপ্তরের কর্মীদের সঙ্গে মিলিত হয়ে সেই আন্দোলনে যোগদান করে তিনি নিজের দল তৃণমূল কংগ্রেসের অস্বস্তিকে বাড়িয়ে দিয়েছিলেন। এমনকি সেই আন্দোলনে যুক্ত থেকে নিজের দলের বিরুদ্ধে কার্যত চ্যালেঞ্জ ছুড়তেও দেখা গিয়েছিল বিধাননগর পৌরসভার প্রাক্তন মেয়র সব্যসাচী দত্তকে। পাশাপাশি একাধিক সময়ে বিজেপি

বিধাননগরের মেয়র কে হতে পারেন,অনেক নাম থাকলেও গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব থামাতে এঁনাকেই বাছছেন নেত্রী, জল্পনা এমনটাই

সব্যসাচী দত্ত নিজের পদ থেকে সরে গেছেন তাই এবার খোঁজ মেয়রের। জোট দমে চলছে তল্লাশি। উঠে এসেছে তাপস চট্টোপাধ্যায় ও কৃষ্ণা চক্রবর্তীর নামও। কানাঘুষোয় শোনা যাচ্ছে তাপস চট্টোপাধ্যায় ও কৃষ্ণা চক্রবর্তীর রেষারেষি থামাতে এবার নাকি সুজিত বসুকে মেয়রের পদে বসানোর প্রস্তুতি শুরু করেছে শাসকদল। যদিও এই নিয়ে মুখ খুলতে নারাজ

অনাস্থা আনার পরও জল্পনা বাড়িয়ে বোর্ড মিটিংয়ে উপস্থিত সব্যসাচী দত্ত, জেনে নিন বিস্তারিত

দীর্ঘদিন ধরে তাঁকে ঘিরেই আবর্তিত হচ্ছে বঙ্গ রাজনীতি। দলের বিরুদ্ধে তার একাধিক মন্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে সম্প্রতি বিধাননগরের মেয়র সব্যসাচী দত্তের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার কথা শোনা যায় তৃণমূল শীর্ষনেতৃত্বের গলায়। আর সেই মতই মঙ্গলবার সব্যসাচী দত্তের বিরুদ্ধে অনাস্থা আনেন এই বিধাননগর পৌরনিগমের কাউন্সিলররা। যার পরে রাজনৈতিক মহলে জল্পনা তৈরি হয়, তাহলে এবার

বিজেপিতে যাওয়া নিয়ে মুখ খুলেজল্পনা বাড়ালেন মেয়র, কি বললেন তিনি?

শুরুটা হয়েছিল, বিজেপি নেতা মুকুল রায়ের তাঁর বাড়িতে গিয়ে লুচি আলুর দম খাওয়াতে কেন্দ্র করে। আর তারপর থেকেই বিভিন্ন দলবিরোধী মন্তব্য বিধাননগর পৌরসভার মেয়র সব্যসাচী দত্তের বিজেপিতে যোগদানের জল্পনা তৈরি হয়। আর সম্প্রতি তাকে নিয়ে দলে তৈরি বিভ্রান্তি এবং তার বিরুদ্ধে তৃণমূলের তরফে ব্যবস্থা নেওয়ার হুঁশিয়ারি পরও বিধাননগর সুইমিং পুলে সেই

কি হবে সব্যসাচির ভবিষ্যৎ!আজ চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিতেই কি ফের বৈঠক জেনে নিন

নিউটাউনের তৃণমূল বিধায়ক তথা বিধাননগর পৌরসভার মেয়র সব্যসাচী দত্তর বাড়ি থেকে বেরিয়ে যেদিন বিজেপি নেতা মুকুল রায় বলেছিলেন "লুচি খেলাম, মিষ্টি খেলাম", সেদিন থেকেই এই তৃণমূল বিধায়কের জীবনটা নোনতা হয়ে যেতে শুরু করে। অনেকে কৌতুক করে বলেন, মুকুল রায় হয়ত মিষ্টি খেলেন ঠিকই, কিন্তু সব্যসাচী দত্তের জীবনকে তিনি লবণের মত

তিনি অনাহুত নন বলে কি দলের ওপর ফের চাপ সৃষ্টি করলেন তৃণমূলের এই হেভিওয়েট বিধায়ক! জল্পনা তুঙ্গে

রাজ্য রাজনীতিতে এখন সবথেকে গরম ইস্যু সব্যসাচী দত্ত এবং তৃণমূলের সম্পর্ক। অনেকে ভাববেন, সব্যসাচী দত্ত তৃণমূলেরই মেয়র এবং বিধায়ক। তাই তার সাথে তৃণমূলের সম্পর্ক তো ভালো থাকবেই। সেক্ষেত্রে কেন এই ব্যক্তি এবং তার দলকে ভাগ করে দেওয়া হচ্ছে! প্রথমে শুনতে এমনটা মনে হলেও দীর্ঘদিন ধরেই তার আচার-আচরণকে খুব একটা ভালো

Top
error: Content is protected !!