এখন পড়ছেন
হোম > Posts tagged "kalighat"

অশান্ত বাংলাকে শান্ত করতে আপৎকালীন ভিত্তিতে কালীঘাটে উচ্চপর্যায়ের বৈঠক মুখ্যমন্ত্রীর

  নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের প্রতিবাদে গত শুক্রবার থেকে বাংলার বিভিন্ন প্রান্তে প্রবল আন্দোলন শুরু হয়েছে। কোথাও রাস্তা অবরোধ, কোথাও ট্রেনে হামলা, আবার কোথাও বা স্টেশনে আগুন জ্বালিয়ে দেওয়ার মতো ঘটনা ঘটতে দেখা গেছে। যত দিন যাচ্ছে, ততই বাড়তে শুরু করেছে উত্তেজনা। আর এই পরিস্থিতিতে নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন না মানলেও, আন্দোলনকারীদের আন্দোলন যাতে

পদ পাইয়ে দেওয়ার “টোপ” দিয়ে টাকা হাতিয়েছেন নেতা! তৃণমূল কর্মীর অভিযোগ সোজা কালীঘাটে

ক্ষমতায় আসবার পরই তৃণমূলের বিভিন্ন স্তরে দুর্নীতি বাসা বেঁধেছে বলে বিভিন্ন মহলের তরফে অভিযোগ শোনা যেত। এমনকি বিরোধীদের তরফেও এই ব্যাপারে অভিযোগ করা হয়েছিল। আর দুর্নীতি চরম জায়গায় পৌঁছে যাওয়ার কারণেই যে সদ্যসমাপ্ত লোকসভা নির্বাচনে বাংলায় তৃণমূল খুব একটা ভালো ফলাফল করেনি, তা ফলাফল পর্যালোচনা বৈঠকে স্পষ্টভাবে উঠে এসেছে। যার

আইনশৃংখলার অবনতি, বড়সড় আন্দোলনের ডাক দিলেন দিলীপ ঘোষ

লোকসভা নির্বাচনের পর থেকেই রাজ্যের বিভিন্ন এলাকায় রাজনৈতিক হিংসার ঘটনা ঘটতে শুরু করে। সম্প্রতি সন্দেশখালি পর ভাটপাড়ার ঘটনা রাজ্যের আইন-শৃঙ্খলার দিকেই প্রশ্ন তুলে দিয়েছে। আর যা নিয়ে প্রথম থেকেই শাসক দল তৃণমূলের বিরুদ্ধে সোচ্চার হতে শুরু করেছিলেন বিজেপি নেতারা। কিন্তু আর বসে থাকা নয়, এবার শাসকদলের বিরুদ্ধে তীব্র আন্দোলন গড়ে তুলতে

অবশেষে ‘অসুবিধা’ মিটিয়ে কালীঘাটের নির্বাচনেও বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয়ী সকল প্রার্থীই

বিভিন্ন জায়গায় বারবার বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জেতারজন্য বিরোধীদলের বারবারই সন্ত্রাসের অভিযোগ আনছিলো তৃণমূলের বিরুদ্ধে। কালীঘাটের মন্দিরের কাউন্সিলর ভোট নি কিছু অসুবিধা ছিল শাসক দলের। কিন্তু সমস্ত প্রতিবন্ধকতাকে দূরে সরিয়ে রেখে কালীঘাট মন্দিরের কাউন্সিল অব সেবাইতের ভোটে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় বিজয়ী হলেন ১৮ জন প্রার্থী। মন্দির ও আদালত সূত্রে জানা গিয়েছে, মন্দির কমিটির চেয়ারম্যান

Top
error: Content is protected !!