এখন পড়ছেন
হোম > Posts tagged "facebook"

উপনির্বাচনে বিজেপির ভরাডুবির কারণ সামনে এল! কর্মী সমর্থকদের পোস্ট ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়!

ইতিমধ্যেই প্রকাশিত হয়েছে তিনটি বিধানসভা উপনির্বাচনের ফলাফল। আর এই কেন্দ্রগুলোর মধ্যে এক করিমপুর বাদ দিয়ে বাকি খড়গপুর এবং কালিয়াগঞ্জ দুইটি আসনে লোকসভা ভোটের নিরিখে যথাক্রমে 45 হাজার এবং 57 হাজার ভোটে এগিয়ে ছিল ভারতীয় জনতা পার্টি। কিন্তু ফলাফল ঘোষণা হওয়ার সাথে সাথেই মাথায় হাত পড়েছে পদ্মফুল শিবিরের। সেখানে দেখা যাচ্ছে,

ভালো পাঞ্জাবী পরা আর ফেসবুক করা এখন নেতাদের একমাত্র কাজ: হেভিওয়েট তৃনমূলের প্রাক্তন মন্ত্রী

  সম্প্রতি কয়েক দিন আগে তৃণমূলের কিছু ফেসবুক পেজে দেখা যেতে শুরু করেছিল নতুন বনাম পুরনো তৃণমূল তরজা। অর্থাৎ 98 এর তৃণমূল এবং নব্য তৃণমূলের মধ্যেকার তফাতের কিছু সূচক। মাঠে ময়দানে দলের জন্য কাজ করে, পরনে মলিন জামাকাপড়, হাতে দলের পতাকা, মিছিল অথবা জনসভার শেষের শাড়িতে, দেখলেই বুঝতে হবে পুরাতন তৃণমূল। আর

পাঞ্জাবি পরে ফেসবুকে ছবি দিয়ে নেতা সাজা যায়! মানুষের সমর্থন নয় – নিদান প্রাক্তন মন্ত্রীর

2011 সালে তৃণমূল ক্ষমতায় আসার পরই সেই তৃণমূল দলে আদি বনাম নব্যের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব প্রকট হতে শুরু করে। যেখানে অনেকে ক্ষমতায় আসার পর তৃণমূলে যারা প্রবেশ করেছে, তারা হাতে সোনার ঘড়ি, গলায় মালা এবং ঝাঁ-চকচকে পাঞ্জাবি পড়ে নেতা বনে গেছেন বলে কৌতুক করেন। অন্যদিকে যারা আদি তৃনমূলী, তারা যে তিমিরে ছিল, সেই

পিকের পরিকল্পনায় এবার “পিসি-ভাইপোর” উন্নয়ন ঘরে ঘরে পৌঁছাবে ঝুলনের মাধ্যমে

একসময় ছোট ছোট শিশুরা ঝুলন উপলক্ষে নিজেদের বাড়িতে কোথাও পৌরাণিক কাহিনী আবার কোথাও বা গ্রামের দৃশ্য সাজিয়ে তুলত। কিন্তু সময়ের চাকা ঘোরার সাথে সাথে এখন তা অতীত হয়ে দাঁড়িয়েছে। তবে এবার ভোট কৌশলী প্রশান্ত কিশোরের হাত ধরে সেই ঝুলন যাত্রা দেখতে পাবে বঙ্গবাসী। কিন্তু তা কোন গ্রামের দৃশ্য বা পৌরাণিক কাহিনী

Top
error: Content is protected !!