এখন পড়ছেন
হোম > Posts tagged "doctor"

চিকিৎসক নিগ্রহের ঘটনায় সরগরম এসএসকেএম, জানুন বিস্তারিত

কিছুদিন আগেই এনআরএস মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের কর্তব্যরত জুনিয়র চিকিৎসক পরিবহ মুখোপাধ্যায়কে মারধরের ঘটনায় রাজ্যজুড়ে ব্যাপক শোরগোল পড়ে গিয়েছিল। যেখানে খিদিরপুরের একদল বাসিন্দাদের বিরুদ্ধে এই চিকিৎসককে মারধরের অভিযোগ উঠেছিল। পরিস্থিতি এমন পর্যায়ে পৌঁছে যায় যে, জুনিয়র চিকিৎসককে মারধরের ঘটনায় রাজ্যের স্বাস্থ্য পরিষেবায় তীব্র অচলাবস্থা তৈরী হয়। তবে চিকিৎসকদের ওপর যাতে এইভাবে কোনরূপ

স্বয়ং তৃনমূল নেত্রীর আশীর্বাদ ধন্য চিকিৎসক নেতার হুমকি, জোর সোরগোল রাজ্যে

ক্ষমতায় আসার পর থেকেই স্বাস্থ্য ব্যবস্থাকে রাজনীতির বাইরে নিয়ে গিয়ে সঠিক পরিষেবা দিয়ে উন্নতিকরণের কথা বলেছিলেন তৃণমূল নেত্রী তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে তার সেই বার্তা যে এখনও পর্যন্ত নিচুতলায় পৌঁছয়নি, তা ফের স্পষ্ট হয়ে গেল। জানা গেছে, স্বয়ং তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের আশীর্বাদ ধন্য এক চিকিৎসক নেতার হুমকির জেরে ইতিমধ্যেই

এনআরএস কান্ডের জের,নেত্রীর নির্দেশে পদ হারালেন তৃণমূলের হেভিওয়েট ডাক্তার নেতা

এনআরএসের চিকিৎসক পরিবহ মুখোপাধ্যায়কে মারধর এবং তারপর সেখানকার মেডিকেল চিকিৎসকদের লাগাতার ধর্মঘটে রাজ্যের স্বাস্থ্য ব্যবস্থা শিকেয় উঠতে শুরু করেছিল। পরে দফায় দফায় সরকারের পক্ষ থেকে সমস্যা সমাধানের জন্য উদ্যোগী হলেও তা খুব একটা ফলপ্রসূ হয়নি। পরবর্তীতে অবশ্য মুখ্যমন্ত্রীর সাথে সেই মেডিক্যাল চিকিৎসকদের আলোচনায় অবস্থার উন্নতি হয়েছে। তবে এবার আরজিকর মেডিকেল

স্বাস্থ্য পরিস্থিতি ঠিক হতেই ভিন্ন সুর তৃনমূল পরিবারের ডাক্তারদের

এনআরএস কান্ড এবং তার জেরে মেডিকেল কলেজের চিকিৎসকদের লাগাতার কর্মবিরতিতে রাজ্যের স্বাস্থ্যব্যবস্থা শিকেয় উঠতে শুরু করেছিল। এদিকে চিকিৎসকদের পক্ষ থেকে লাগাতার ধর্মঘটে শাসক দল যখন তীব্র অস্বস্তিতে পড়তে শুরু করে, ঠিক তখনই রাজ্যের শাসকদলের হেভিওয়েট নেতা, মন্ত্রী-সাংসদের পরিবারের সদস্যরাও শাসকদলের বিরুদ্ধে প্রকাশ্যে মুখ খোলেন। যা নিয়ে প্রবল অস্বস্তিতে পড়ে ঘাসফুল

চিকিৎসা পরিষেবা কোথায়? প্রশ্ন তুলেই জলপাইগুড়িতে পদ্ম ফোটাতে চান বিজেপির ডাক্তার প্রার্থী

কাঁটা দিয়েই যে কাঁটা তুলতে হয় তা বেশ ভালোই জানে বিজেপি। আর তাইতো আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে জলপাইগুড়ি লোকসভা কেন্দ্রে নিজেদের জয় আনতে এখানে দলীয় প্রার্থী হিসেবে ডাক্তার জয়ন্ত রায়কে প্রার্থী করে রাজ্যের চিকিৎসা ব্যবস্থা সম্পর্কে প্রশ্ন তুলে দিয়ে শাসক শিবিরকে চাপে ফেলতে তৎপর হয়ে উঠেছে সেই গেরুয়া শিবির। ইতিমধ্যেই বিজেপির প্রার্থী

‘ফাঁকিবাজ’ ডাক্তারদের বিরুদ্ধে এবার কড়া পদক্ষেপ নিতে চলেছেন হেভিওয়েট তৃণমূল সাংসদ, বাড়ছে জল্পনা

রাজ্যে ক্ষমতায় এসেই স্বাস্থ্য ব্যবস্থায় চিকিৎসকদের প্রাইভেট প্যাকটিস রুখতে এবং ফাঁকিবাজি বন্ধ করতে কড়া পদক্ষেপ নেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আর এবারে নেত্রীর দেখানো পথেই হাঁটলেন বালুরঘাটের তৃণমূল সাংসদ অর্পিতা ঘোষ। কিন্তু কি এমন উদ্যোগ নিলেন বালুঘাটের এই তৃণমূল সাংসদ? প্রসঙ্গত উল্লেখ্য এই দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার একাধিক হাসপাতালে একাংশ চিকিৎসক

মহিয়সী আপনাকে স্যালুট – এই মহিলা চিকিৎসকের ঘটনা জানলে কুর্নিশ করবেন আপনিও

কেরলের মলপ্পুরম জেলার এর্নাদ তালুক। পাহাড় এবং জঙ্গলের সমাবেশ। সেখানে বসবাস করে অবলুপ্ত প্রায় প্রাচীন জনজাতি। নাম চোলানায়ক। আনুমানিক ২০০ থেকে ২২০ জন মানুষের বাস। এই জনজাতিরই প্রায় মৃত্যু পথযাত্রী এক ব্যক্তিকে আরোগ্য দিতে প্রাকৃতিক বিপর্যয় উপেক্ষা করে প্রায় দেড় কিলোমিটার পথ দড়িতে ঝুলে পিচ্ছিল পাহাড়ে উঠে চিকিৎসা করে এলেন

Top
error: Content is protected !!