এখন পড়ছেন
হোম > Posts tagged "dilip ghosh"

  দিলীপ ঘোষের নতুন টিমে কে কে জায়গা পেতে চলেছেন ! জোর গুঞ্জন!

  দ্বিতীয়বারের জন্য রাজ্য বিজেপির সভাপতি হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন দিলীপ ঘোষ। আর দীলিপ বাবুর নেতৃত্বেই 2021 এর বিধানসভা নির্বাচন যে বিজেপিকে ফেস করতে হবে, তা জানেন প্রত্যেকেই। কিন্তু বঙ্গ বিজেপির সভাপতি দিলীপ ঘোষ একুশের বিধানসভা নির্বাচনে সাফল্য আনতে তার রাজ্য কমিটিতে কাকে কাকে নিয়ে আসবেন, তা নিয়ে বর্তমানে চরম জল্পনা তৈরি

ঘরে বাইরের সমালোচনা এড়িয়ে রাজ্য বিজেপি সভাপতি তাঁর বক্তব্যে অবিচল

লোকসভা ভোটের পর থেকে এ রাজ্যে বিজেপি পাখির চোখ করেছে আগামী দিনের 2021 এর বিধানসভা নির্বাচনকে। লক্ষ্য 2021 এ পৌঁছে বিধানসভা নির্বাচনের মধ্য দিয়ে রাজ্যের শাসক দলকে উৎখাত করা আর এরপর রাজ্যের মসনদ দখল করে বিজেপি নেতৃত্বের স্থাপন। আর সেই লক্ষ্যে অবিচল থাকতে এ রাজ্যে বেশকিছু পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে ইতিমধ্যে

দিলীপের পর বুদ্ধিজীবীদের আক্রমণ করে বিতর্কিত মন্তব্য এই হেভিওয়েট বিজেপি নেতার!

  শুরুটা করেছিলেন বঙ্গ বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। বিভিন্ন সময় কখনও শাসক দল তৃণমূলের উদ্দেশ্যে, আবার কখনও বা বাংলার বুদ্ধিজীবী সম্প্রদায়ের উদ্দেশ্যে কুকথার বন্যা বইয়ে দিয়েছিলেন তিনি। যাকে নিয়ে বঙ্গ রাজনীতিতে ব্যাপক সমালোচনা হয়েছিল। কিন্তু তা সত্ত্বেও দিলীপ ঘোষ থামেননি। আর এবার তার কুকথার ভাইরাস প্রবেশ করল বঙ্গ বিজেপির আরেক

দিলীপ ঘোষের প্রশংসা তৃণমূলের হেভিওয়েট মন্ত্রীর মুখে, জোর জল্পনা রাজ্যে

  নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন বেশ কিছুদিন আগেই লাগু হয়ে গিয়েছে। তবে এই আইন লাগু হওয়ার পর থেকেই তার চরম বিরোধিতা করতে শুরু করেছে রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেস। ইতিমধ্যেই কার্যত স্পষ্ট ভাষায় তৃণমূল নেত্রী তথা বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়ে দিয়েছেন যে, তিনি থাকতে কোনভাবেই বাংলায় এনআরসি হবে না। আর এই

এবার কি দিলীপের হাত ধরে রাজ্য বিজেপিতে বড় পদ পাবেন মুকুল? জোর গুঞ্জন!

  তৃণমূল ছেড়ে যখন তিনি বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন, তখন বিজেপির সদর দপ্তরে প্রথম সাংবাদিক বৈঠকে দাবি করেছিলেন, বাংলায় তার ক্যাপ্টেন দিলীপ ঘোষ। কিন্তু দিলীপ ঘোষের ক্যাপটেনশিপ লড়েও, তৃণমূলের এককালের সেকেন্ড-ইন-কমান্ড তথা যাকে বঙ্গ রাজনীতিতে চাণক্য বলা হয়, তাঁকে তেমনভাবে কোনো পদ দেয়নি ভারতীয় জনতা পার্টি। কিন্তু তা সত্ত্বেও, দাঁতে দাঁত চেপে

নন্দীগ্রামে উলটপুরান, এবার প্রচার করতে গিয়ে জোর বাধা পেলেন দিলীপ ঘোষ!

  বর্তমানে রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেসের আমলে বিরোধীরা মিটিং-মিছিল করার কোনো সুযোগ পায় না বলে মাঝেমধ্যেই অভিযোগ করতে দেখা যায় বিরোধী দল বিজেপিকে। শুধু তাই নয়, রাজ্যে গণতান্ত্রিক পরিবেশ ধুলুন্ঠিত বলেও অভিযোগ করে ভারতীয় জনতা পার্টি। কিন্তু একসময় যে নন্দীগ্রামে গণতান্ত্রিক অধিকারের আন্দোলন বিগত বাম সরকারের সময় করে এসেছিল তৃণমূল

ফের গুলিচালানোর কথা বলে বিতর্ক বাড়ালেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ!

  দ্বিতীয়বার রাজ্য সভাপতি পদে নির্বাচিত হয়ে বিতর্ককে যেন ক্রমশ বাড়িয়ে দিচ্ছেন দীলিপবাবু। সম্প্রতি নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের পরিপ্রেক্ষিতে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে বিক্ষোভ শুরু হয়েছে। যার ফলস্বরুপ অনেক জায়গাতেই সরকারি সম্পত্তি ভাংচুর ও নষ্টের মত ঘটনা ঘটেছে। সম্প্রতি এই ব্যাপারে মন্তব্য করতে গিয়ে রানাঘাটের সভা থেকে একটি বিতর্কিত কথা বলে বসেন বিজেপির

রাজ্যে শাসক দল বাঙালীকে বোকা বানাচ্ছে, আক্রমণাত্মক রাজ্য বিজেপি সভাপতি

সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন ও জাতীয় নাগরিকপঞ্জি নিয়ে ইতিমধ্যে দেশজুড়ে প্রতিবাদের ঝড় উঠেছে। পশ্চিমবঙ্গ সরকারও পিছিয়ে নেই। মোদি সরকারের বিরুদ্ধে কলকাতায় মহামিছিল হয়েছে। যেখানে দলীয় সমর্থকদের সঙ্গে পা মিলিয়ে রীতিমতো তুলোধোনা করছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কেন্দ্রীয় নেতৃত্বকে। মোদি সরকারের নাগরিকত্ব আইনের প্রতিবাদের মিছিল কলকাতা পেরিয়ে সারা পশ্চিমবঙ্গে ছড়িয়ে পড়েছে। তবে এবার

শাসকদলের ঘুম ছুটিয়ে ‘তৃণমূল ছাড়ার জন্য মুখিয়ে আছেন ওঁরা’ বিস্ফোরক দাবি দিলীপের

2021 এর বিধানসভা নির্বাচনকে পাখির চোখ করেছে কেন্দ্রীয় বিজেপি নেতৃত্ব। আর তাই রাজ্য বিজেপির খোলনলচে বদলে দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছিলে কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব আগেই। কথামতোই সদ্য দ্বিতীয় বার রাজ্য বিজেপি সভাপতির আসনে আবার এসে বসলেন মেদিনীপুরের সাংসদ দিলীপ ঘোষ। রাজ্য বিজেপি সভাপতি নির্বাচিত হওয়ার পরেই আবার পুরনো ফর্মে ফিরে গেলেন নবনির্বাচিত

দিলীপ ঘোষের বিরুদ্ধে এবার মাঠে একযোগে তৃণমূল, বাম, কংগ্রেস

সংশোধনী আইন নিয়ে ইতিমধ্যেই সরব হয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস। যা নিয়ে তৃণমূল বনাম বিজেপির মধ্যে দ্বৈরথ চরমে উঠেছে। মাঝেমধ্যেই এই ব্যাপারে বিতর্কিত মন্তব্য করে শোরগোল তুলে দেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। সম্প্রতি নাগরিকত্ব আইনের বিরোধিতা নিয়ে বিরোধী দলগুলির ভূমিকায় প্রশ্ন তুলে দেন দীলিপবাবু। যেখানে তিনি বলেন, "যাদের মা বাপের ঠিক

Top
error: Content is protected !!