এখন পড়ছেন
হোম > Posts tagged "dilip ghosh"

বৈশাখীর ব্যবহারে ক্ষোভ বাড়ছে বিজেপির অন্দরে, জোর চাঞ্চল্য রাজ্য বিজেপিতে

রাজ্য-রাজনীতিতে অনেক জল্পনা-কল্পনার যোগ-বিয়োগ ঘটিয়ে অবশেষে বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন এই মুহূর্তে বঙ্গ-রাজনীতির অন্যতম 'চর্চিত জুটি' শোভন চট্টোপাধ্যায় ও বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়। কিন্তু যোগদানের পর থেকেই বৈশাখীদেবীকে নাকি সামলাতে রীতিমতো বেগ পেতে হচ্ছে রাজ্য বিজেপিকে - বলে শুরু হয়েছে তুমুল জল্পনা। শুরুটা হলো এদিন যখন রাজ্য বিজেপির মিডিয়া সেল শোভন চট্টোপাধ্যায়কে রাজ্য

বিধায়ক পদ ছাড়া নিয়ে কি জানালেন শোভন চট্ট্যোপাধ্যায়? জেনে নিন

কয়েকদিন হলো বিশেষ বান্ধবী বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়কে সঙ্গে নিয়ে দিল্লিতে গিয়ে বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন শোভন চট্ট্যোপাধ্যায়। আর এরপরেই স্বাভাবিকভাবে প্রশ্ন উঠেছে যে তিনি কি এবার বিধায়ক পদ ছেড়ে দিতে চলেছেন। যদিও সেই প্রশ্নের উত্তর আজ পাওয়া গেলো না স্পষ্টভাবে। জানা যাচ্ছে এই নিয়ে শোভনবাবু এদিন দাবি করেছেন, ''আমি সবে বিজেপিতে যোগ দিয়েছি।

BIG BREAKING-দিলীপ ঘোষের সামনেই দলের মহিলা সদস্যকে মার, মহিলা কর্মীদের ,জোর চাঞ্চল্য – জানুন বিস্তারিত

বসিরহাটে দিলীপ ঘোষের সামনেই আক্রান্ত মহিলা। আজ বসিরহাটে বিজেপির সদস্য সংগ্রহ অভিযানে উপস্থিত ছিলেন বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ। তিনি যখন বেরিয়ে যাচ্ছিলেন সেসময় হাড়োয়ার এক মহিলা বিজেপি কর্মী মুখবন্ধ খামে একটি চিঠি বিজেপি সভাপতিকে দিতে যান। ঠিক তখনই সেখানে থাকা অন্যান্য মহিলা বিজেপি কর্মীরা তার উপড় চড়াও হয় এবং দিলীপ ঘোষের

শোভন বৈশাখীকে ঘিরে মন্তব্য দিলীপের, জোর জল্পনা রাজ্যে

মঙ্গলবার থেকেই রাজ্য রাজনীতিতে জোর জল্পনা শুরু হয়েছে প্রাক্তন মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায় ও বৈশাখীর বিজেপিতে যোগদান নিয়ে । এই যোগদান যে তৃণমূলকে একটা প্রবল ধাক্কা দেবে তা বলাই বাহুল্য । বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বুধবার এই ব্যাপারে সবুজ সংকেত দিয়ে রাখলেন । বুধবার রাজ্য বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষের বাড়িতে রিভিঊ

বিজেপিতে এসেও কেন ফিরে যাচ্ছেন তৃণমূল নেতারা, কারণ জানালেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ

গত লোকসভা ভোটের পর যেমন দলে দলে তৃণমূল কংগ্রেস থেকে বিজেপি যোগ দিয়েছিল ঠিক সেভাবেই কিছুদিনের মধ্যে তারা বিজেপি ছেড়ে পুরোনো দলে ফিরে যাচ্ছে।এবার বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ এর পিছনের কারণ ব্যাখ্যা করলেন। এব্যাপারে মঙ্গলবার বারাসতে সদস্য সংগ্রহ কর্মসূচিতে এসে বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বলেন ‘যে কাউন্সিলররা তৃণমূল থেকে

মহাচমক গেরুয়া শিবিরের, এবার দলে যোগ দিলেন প্রাক্তন রাজ্যপালের ঘনিষ্ঠ

লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল প্রকাশের পর থেকেই বাংলায় তৃণমূল কংগ্রেসের অবস্থা ক্রমশ সংকটজনক হতে শুরু করে। একই দলের খারাপ ফলাফল হওয়া, তার ওপরে বিজেপির প্রভাব বাড়ার সাথে সাথে প্রাক্তন তৃণমূল নেতা তথা বঙ্গ বিজেপির চাণক্য মুকুল রায়ের ক্যারিশমায় তৃণমূলের একাধিক হেভিওয়েট বিধায়ক, কাউন্সিলর, জেলা পরিষদ, পঞ্চায়েত সমিতি ও পঞ্চায়েত সদস্যরা বিজেপিতে

দিলীপ ঘোষের ঘোষণায় ঘুম ছুটল কি তৃণমূলের, জোর জল্পনা রাজ্য রাজনীতিতে

লোকসভা নির্বাচনে রাজ্যের শাসকদল তৃণমূলের ঘাড়ে নিঃশ্বাস ফেলে যাতে ব্যাপকসংখ্যক আসন নিজেদের দখলে রাখা যায়, তার জন্য প্রবল মাত্রায় প্রচার করেছিল গেরুয়া শিবির। আর তার জন্য নরেন্দ্র মোদী থেকে অমিত শাহ রাজ্যে এসে প্রচার করে তৃণমূলের ঘুম ছুটিয়ে দিয়েছিলেন। আর বাংলায় বিজেপি ভালো ফলাফল করার জন্য চেষ্টার যে কোনো ত্রুটি

বিজেপিতে যোগদান নিয়ে বড়সড় ঘোষণা দিলীপ ঘোষের, চমকে গেল রাজ্য-রাজনীতি

২০২১ কে পাখির চোখ করে এগোচ্ছে বিজেপি। আর তাই এবার চিন্তন বৈঠকে বড়সড় সিদ্ধান্ত নিলো বিজেপি। বিজেপি দলে যোগদান নিয়ে যে জলঘোলা হচ্ছিল তার আর কোনো জায়গা রাখলেন না বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ। এদিনের চিন্তন বৈঠকের শেষে বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ ঘোষণা করলেন যে এবার তাদের দলের দরজা সবার জন্য

কংগ্রেস ও গান্ধী পরিবারকে দ্বিধাবিভক্ত করে শোরগোল তুলে দিলেন দিলীপ ঘোষ

লোকসভা নির্বাচনে এবার কংগ্রেসের ব্যাপক ভরাডুবি হওয়ার পরই দলের সমস্ত পরাজয়ের দায় নিজের কাঁধে নিয়ে সর্বভারতীয় সভাপতির পদ থেকে পদত্যাগ করতে চেয়েছিলেন' রাহুল গান্ধী। কিন্তু তাকে ঘিরেও কম নাটক হয়নি। রাহুল গান্ধী যাতে ইস্তফা না দেন, তার জন্য দলের অন্যান্য সদস্যরা তাকে অনেক জোরাজুরিও করেছিলেন। তবে শেষ পর্যন্ত নিজের অবস্থানে অনড়

দক্ষিণ দিনাজপুর জেলায় সফরে দিলীপ ঘোষ, ভরসা নেই কি বিপ্লবে? জোর জল্পনা রাজনৈতিক মহলে

কিছুদিন আগেই দক্ষিণ দিনাজপুর জেলায় তৃণমূলের অবিসংবাদিত নেতা হিসেবে পরিচিত বিপ্লব মিত্র তৃনমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগদান করেন। যার পরেই সেই বিপ্লববাবুর হাত ধরে দক্ষিণ দিনাজপুর জেলায় তৃণমূলের হাতে থাকা সমস্ত জনপ্রতিনিধিরা বিজেপিতে চলে আসবে বলে বিভিন্ন মহলে জল্পনা ছড়িয়েছিল। কিন্তু তেমন কিছু তো হয়ইনি, উল্টে বিজেপিতে যে সমস্ত জনপ্রতিনিধিরা এসেছিলেন, তারা

Top
error: Content is protected !!