এখন পড়ছেন
হোম > Posts tagged "central minister"

স্কুলে গিয়ে পড়ুয়াদের বড় নেতা হবে উপায় বাতলে দিয়ে বড়োসড়ো বিতর্কে মন্ত্রী – জেনে নিন

এবার আবার একবার বিতর্কে জড়ালেন ছত্রিশগড়ের শিল্প ও আবগারি দপ্তরের মন্ত্রী কংগ্রেসের কাওয়াসি লাখমা। বেফাঁস মন্তব্যে রীতিমতন অস্বস্তিতে পড়লেন তিনি। আর তাঁর মন্তব্যকে ঘিরে রীতিমতো চরম অস্বস্তি কংগ্রেস শিবিরে। এর আগেও লাকমা বিতর্কিত মন্তব্য করেছেন জেলায় নির্বাচনী প্রচারে গিয়ে। সেখানে তিনি দেখিয়েছিলেন, ইলেক্ট্রিক শক খেলে কি রকম লাগে। তিনি বলেছিলেন,

৩৭০ ধারা নিয়ে কেন্দ্রীয় সরকারের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে সুপ্রিম কোর্টে মামলা জেনে নিন

সম্প্রতি সকলকে মাস্টারস্ট্রোক দিয়ে সংবিধানের 370 ও 35 এ ধারা প্রত্যাহার করে জম্মু-কাশ্মীরে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল ঘোষণা করেছে কেন্দ্রের মোদি সরকার। আর বিজেপি সরকারের এই সাহসী সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানাতে দেখা গেছে দেশের সিংহভাগ মানুষকে। তবে এর বিরুদ্ধে নানা রাজনৈতিক প্রতিক্রিয়াও তৈরি হয়েছিল। বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলোর তরফে গোটা ঘটনাটিকে অসাংবিধানিক বলে এই বিলের

জিতলেই কেন্দ্রীয় মন্ত্রী – বার্তা তুলে ধরে আলিপুরদুয়ারে প্রচার জমাতে মরিয়া গেরুয়া শিবির

এবারে আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে উত্তরবঙ্গের আলিপুরদুয়ার লোকসভা আসনে জিততে একটি মোক্ষম কৌশল বিজেপি। প্রসঙ্গত, এবারে এই আসনে বিজেপির তরফে প্রার্থী হয়েছেন জন বারলা। ইতিমধ্যে ভোটের প্রচারে চা শ্রমিক মহল্লায় গিয়ে এই জন বারলাকে জেতালে উত্তরবঙ্গের চা শিল্পের সঙ্কট দেখভাল করার জন্য তাকে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী করার দাবি দলের কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের কাছে

পরের এয়ারস্ট্রাইকে বিরোধীদের বিমানে বেঁধে নিয়ে গিয়ে লাশ গুনিয়ে আনতে চান কেন্দ্রীয় মন্ত্রী!

পুলওয়ামার মর্মান্তিক জঙ্গী হামলার প্রতিশোধ নিতে ভারত সরকারের পাকিস্তানের বিরুদ্ধে এয়ারস্ট্রাইকের সিদ্ধান্তের ভূয়সী প্রশংসা করে দেশবাসী। ভারতীয় বায়ুসেনার গৌরবান্বিত কাজে উৎসবের জোয়ারে ভাসে গোটা দেশ। বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে এই খবর চাউর হয়,৪৪ জন সিআরপিএফ জওয়ানদের মৃত্যুর বদলা ৩০০-র বেশি জঙ্গী খতম করে নিয়েছে ভারতীয় বায়ুসেনা। এই খবরের সত্যতা নিয়ে সাধারণ মানুষের আপত্তি

অপরাধী সনাক্তকরণে এবার বিল এনে নতুন অস্ত্র নিরাপত্তা সংস্থার হাতে তুলে দিল কেন্দ্র সরকার

লোকসভা ভোটের আগে আরো এক নতুন চমক বিজেপি সরকারের। অপরাধী সনাক্তকরণে এবার ডিএনএ প্রযুক্তির ব্যবহার সংক্রান্ত বিল পাশ হয়ে গেল লোকসভায়। এই বিল আইনে পরিনত হলে ফৌজদারি অপরাধ প্রমাণের জন্যে ডিএনএ প্রযুক্তির ব্যবহার করার সুবিধা পাবে নিরাপত্তা সংস্থাগুলি। পাশাপাশি,বংশপরিচয় নিয়ে বিরোধ,অভিবাসন,শরণার্থী এবং অঙ্গ-প্রত্যঙ্গ সংস্থাপনের মতো সিভিল বিষয়েও ডিএনএ প্রযুক্তির ব্যবহার করা

কেন্দ্রের পরোয়া না করে বকেয়া আড়াই হাজার কোটি টাকার মজুরি মিটিয়ে দেবেন তিনিই, দাবি মুখ্যমন্ত্রীর

প্রশাসনিক সভা হোক বা রাজনৈতিক সভা - প্রায় প্রতি জায়গা থেকেই বাংলার প্রতি কেন্দ্রের বিমাতৃসুলভ আচরণের কথা তুলে সরব হতে দেখা যায় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে। কেন্দ্রের কাছে বারবার দাবি জানিয়ে এ বিষয়ে কোনো সুরাহা হয়নি বলে বারবার অভিযোগও করেছেন তিনি। আর এবার ফের সেই কেন্দ্রের বিরুদ্ধে গঙ্গাসাগর সুন্দরবন কাপ উদ্বোধনী

Top
error: Content is protected !!