এখন পড়ছেন
হোম > Posts tagged "মুর্শিদাবাদ"

মুর্শিদাবাদে অধীর-ম্যাজিক অব্যাহত, এবার তাঁর হাত ধরে কংগ্রেসে যোগ দিলেন প্রাক্তন হেভিওয়েট বিধায়ক

মুর্শিদাবাদ জেলা ও অধীর রঞ্জন চৌধুরী যেন একে অপরের সমার্থক হয়ে গিয়েছিল। নিজের 'গরীবের রবিনহুড' ভাবমূর্তি নিয়ে মুর্শিদাবাদ জেলাকে কার্যত 'কংগ্রেসের-গড়' করে ফেলেছিলেন তিনি। কিন্তু বিগত বিধানসভা নির্বাচনে তিনি বামফ্রন্টের সঙ্গে জোট করে তৃণমূল কংগ্রেসকে হারানোর পরিকল্পনা করতেই যেন - তাঁকে রাজনৈতিকভাবে শেষ করে দেওয়ায় মূল লক্ষ্য হয়ে দাঁড়ায় শাসকদলের। মুর্শিদাবাদ

ব্রিগেডের আগেই বড় চমক, তৃণমূলে যোগ দিলেন হেভিওয়েট বাম বিধায়ক

এই মুহূর্তে তৃণমূল কংগ্রেস কর্মী-সমর্থকদের নয়নের মনি শুভেন্দু অধিকারী কিছুদিন আগেই হুঙ্কার ছেড়েছিলেন মুর্শিদাবাদে ১০ দিনের মধ্যে বড় উইকেট ফেলবেন। আর এবার নিজের দাবির স্বপক্ষে বাস্তবিকই তা করে দেখালেন তিনি। ব্রিগেডের প্রস্তুতি সভায় মুর্শিদাবাদে গিয়ে জলঙ্গির সিপিএম বিধায়ক আব্দুল রজ্জাককে তৃণমূলে নিলেন তিনি। প্রসঙ্গত, ২০১৬ সালের নির্বাচনে গোটা বাংলা জুড়ে ঘাসফুলের

মুকুল রায়ের থেকেও বড় চ্যালেঞ্জ মমতা ব্যানার্জির দিকে ছুঁড়ে দিলেন অধীর চৌধুরী

লোকসভা নির্বাচনের যত দিন এগিয়ে আসছে ততই জমে উঠছে রাজ্য রাজনীতি। বাংলায় এক দিকে যখন ৪২ এ ৪২ করে তৃণমূল কংগ্রেস প্রথম বাঙালি প্রধানমন্ত্রীর স্বপ্ন উস্কে দিচ্ছে - তখন গেরুয়া শিবির বাংলা থেকে অন্তত ২৩ টি আসন জিতে রাজ্যে তৃণমূলী শাসনের পতনের হুঙ্কার ছাড়ছে। আর এর মাঝেই যেন কোথাও গিয়ে

তৃণমূল ভাঙিয়ে কংগ্রেসের বড় শক্তি বৃদ্ধি করেই অধীর চৌধুরীর হুঙ্কার – তিনে তিন, তৃনমূলকে কবর দিন!

মুর্শিদাবাদ জেলা ও অধীর রঞ্জন চৌধুরী যেন একে অপরের সমার্থক হয়ে গিয়েছিল। নিজের 'গরীবের রবিনহুড' ভাবমূর্তি নিয়ে মুর্শিদাবাদ জেলাকে কার্যত 'কংগ্রেসের-গড়' করে ফেলেছিলেন তিনি। কিন্তু বিগত বিধানসভা নির্বাচনে তিনি বামফ্রন্টের সঙ্গে জোট করে তৃণমূল কংগ্রেসকে হারানোর পরিকল্পনা করতেই যেন - তাঁকে রাজনৈতিকভাবে শেষ করে দেওয়ায় মূল লক্ষ্য হয়ে দাঁড়ায় শাসকদলের। মুর্শিদাবাদ

আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে লড়াইটা তৃণমূল বনাম বিজেপি – স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন শুভেন্দু অধিকারী

রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের মতে - এ যেন ভূতের মুখে রাম নাম! যেখানে তৃণমূল কংগ্রেসের সর্বোচ্চ নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সহ অন্যান্য শীর্ষনেতারা প্রতিটা জনসভায় রীতিমত দাবি করে বলছেন, বাংলায় বিজেপির কোনো অস্তিত্ব নেই, ২০১৪-এর জেতা দুটো আসনও নাকি বিজেপি আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে ধরে রাখতে পারব না! সেখানে, সম্পূর্ণ উল্টো পথে হেঁটে তৃণমূল

বাঙালি প্রধানমন্ত্রীর স্বপ্ন উস্কে দিয়ে শুভেন্দু অধিকারীর দাবি বিজেপি-কংগ্রেস-সিপিএম এক হয়ে গেছে

তৃণমূল কংগ্রেস নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নিজে যতই বলুন - তিনি প্রধানমন্ত্রী হওয়ার স্বপ্ন দেখছেন না - তাঁর অনুগত সৈনিকরা কিন্তু সেই স্বপ্নে বিভোর। একইসঙ্গে সেই 'বাঙালি প্রধানমন্ত্রীর' স্বপ্ন তাঁরা বঙ্গবাসীকেও দেখতে শুরু করে দিয়েছেন। গতকাল, ভরতপুর ২ নম্বর ব্লকের সালার বাসস্ট্যান্ডে ব্রিগেড কর্মসূচির প্রস্তুতিসভায় আরও একবার তা স্পষ্ট করে দিলেন

মুর্শিদাবাদের ৩ লোকসভা আসনে তৃণমূলের টিকিট প্রার্থী ৬ হেভিওয়েট – তুমুল জল্পনা শাসকদলের অন্দরেই

২০১৯-এর লোকসভা নির্বাচনে মুর্শিদাবাদ জেলার ৩ লোকসভা আসনের জন্য তৃণমূল কংগ্রেসের টিকিট পেতে আগ্রহী ছয়-ছয়জন হেভিওয়েট তৃণমূল নেতা বলে তীব্র জল্পনা ছড়িয়েছে শাসকদলের অন্দরেই। একদা, কংগ্রেসের গড় বলে পরিচিত ছিল এই মুর্শিদাবাদ জেলা - ২০১৪-এর লোকসভা নির্বাচনে গোটা রাজ্যে প্রবল ঘাসফুল ঝড় চললেও, এই জেলার তিনটির মধ্যে দুটি আসনেই তৃতীয়

রাজ্যের হেভিওয়েট মন্ত্রীর সামনেই জেলার হেভিওয়েট তৃণমূল নেতাকে ‘হঠানোর’ দাবি! গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব না সিপিএম-কংগ্রেসের চাল?

শুভেন্দু অধিকারীর হাত ধরে একদা কংগ্রেস গড় মুর্শিদাবাদের ধীরে ধীরে ফুটতে শুরু করেছে ঘাসফুল। তবে, এখানে শাসকদলের দাপট বাড়লেও - পাল্লা দিয়ে বেড়েছে শাসকদলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্বও, বলে অভিযোগ বিভিন্ন মহলে। আর, এবার শুভেন্দু অধিকারীর রাণীনগরের সভাতেই জেলা তৃণমূলের কার্যকরী সভাপতি তথা ডোমকলের পুরপ্রধান সৌমিক হোসেনের বিরুদ্ধে তৃণমূলের কর্মী সমর্থকদের একাংশ বিক্ষোভ

আগাম হুঁশিয়ারি দেওয়া সত্ত্বেও বিরোধী দল থেকে শাসকদলে এলেন না কেউ, কি বলছেন শুভেন্দু অধিকারী নিজে?

একের পর এক কংগ্রেসের শক্ত ঘাঁটি বলে পরিচিত জেলাগুলির সাংগঠনিক দায়িত্ব নিয়ে সেখানে ঘাসফুলের পতাকা ওড়াতে সক্ষম হয়েছেন রাজ্যের পরিবহনমন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী। আর সেখানে একদমই ব্যতিক্রম নয় একদা কংগ্রেসের অধীর চৌধুরীর গড় বলে পরিচিত মুর্শিদাবাদ জেলাও। এই জেলায় পর্যবেক্ষকের দায়িত্ব নেওয়ার পরই বিরোধী নেতা থেকে বিধায়কদের শাসকদলে যোগদান করিয়েছেন তিনি। আর

১৯ শে ব্রিগেডে জেলা থেকে লক্ষ লক্ষ জনসমাগম করতে বিশেষ মনিটরিং কমিটি ঘিরে তীব্র অসন্তোষ শাসক দলের অন্দরেই

শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেসের উনিশের ব্রিগেড অভিযানকে সামনে রেখে মুর্শিদাবাদ জেলা থেকে দলের চেয়ারম্যান মহম্মদ সোহারাবের এর নেতৃত্বে একটি মনিটরিং কমিটি গঠন করা হয়েছে। সেই কমিটির যুগ্ম আহ্বায়ক করা হয়েছে মোহম্মদ আলি ও সাগির হোসেনকে।এছাড়াও এই কমিটিতে আরো দুজন মুখপাত্র নিয়োগ করা হয়েছে, বলে জানান জেলা সভাপতি সুব্রত সাহা। কিন্তু, এই

Top
error: Content is protected !!