এখন পড়ছেন
হোম > Posts tagged "বিজেপিতে যোগদান" (Page 2)

বাংলা বিজয়ে মোদী-শাহের ভরসার মুখ হতে চলেছেন কি মুকুল রায়ই? নতুন পদক্ষেপে জল্পনা চরমে

মুকুল রায় তৃণমূল কংগ্রেস ছেড়ে বিজেপিতে যোগদান করলেও বিজেপি নিজেদের ধারা মেনে দীর্ঘদিন মুকুলবাবুকে দলের একজন সাধারণ কর্মী করেই রেখেছিল। তৃণমূল কংগ্রেসের সেকেন্ড ইন কম্যান্ড দলে এলেও পদ মেলে নি - কেননা বিজেপির বক্তব্য ছিল পরিষ্কার। ভারতীয় জনতা পার্টি একটি সর্বভারতীয় দল - এখানে এলেই 'ততকাল' পদ মেলে না -

কে কোথায় টিকিট পাবেন বড় কথা নয়, একমাত্র লক্ষ্য তৃণমূল কংগ্রেসকে আড়াআড়ি ভাঙা – স্পষ্ট করলেন বিজেপি নেতা

বিজেপির কেন্দ্রীয় অধিবেশন উপলক্ষে বাংলা বিজেপির সমগ্র রাজ্য নেতৃত্ব তো বটেই, এমনকি জেলা নেতৃত্বও আপাতত দিল্লিতে। কিন্তু, তার মাঝেই নতুন করে বিতর্ক শুরু হয়েছে আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে বিজেপির টিকিট প্রাপ্তি নিয়ে। এ বারে নজিরবিহীনভাবে লোকসভা নির্বাচনে বাংলা থেকে বিজেপির টিকিট পাওয়া নিয়ে চাহিদা তুঙ্গে। রাজ্যের প্রতিটি লোকসভা আসনের জন্য গড়ে

১৯ শে তৃণমূলের ব্রিগেডের দিনেই দিল্লিতে তৃণমূলের ঘুম উড়িয়ে দিতে বিশেষ পরিকল্পনায় মুকুল রায়

আগামী ১৯ শে জানুয়ারী ব্রিগেডে দেশের বিজেপি বিরোধী সমস্ত দলগুলিকে এক জায়গায় এনে - কেন্দ্র থেকে নরেন্দ্র মোদির নেতৃত্বাধীন বিজেপি সরকারের 'বিদায় ঘন্টা' বাজানোর ডাক, দলের ২১ শে জুলাইয়ের শহীদ দিবসের মঞ্চ থেকেই দিয়েছিলেন তৃণমূল কংগ্রেসের সর্বোচ্চ নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আর তাই, সেই ১৯ শে জানুয়ারিকে সফল করতে চূড়ান্ত প্রস্তুতি

বিজেপিতে যোগ দিয়েই বড় প্রাপ্তি প্রাক্তন তৃণমূল সাংসদ সৌমিত্র খাঁর – জানুন বিস্তারিত

রাজ্য রাজনীতিতে এখন খবরের শিরোনামে তৃণমূল কংগ্রেসের বিষ্ণুপুরের সাংসদ সৌমিত্র খাঁ। কিছুদিন আগেই খবরে প্রকাশিত হয় - তৃণমূল ত্যাগী বিজেপি নেতা মুকুল রায়ের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ যোগাযোগ রাখার কারণে আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে আর তিনি তৃণমূল কংগ্রেসের টিকিট পাচ্ছেন না - আর তাই তিনি নাকি বিজেপিতে যোগ দিতে পারেন। এই ব্যাপারে মুকুলবাবুর সঙ্গে

শুধু তৃণমূল ভাঙিয়েই ক্ষান্ত নন, স্বয়ং তৃণমূল নেত্রীর বিরুদ্ধে এবার বিস্ফোরক অভিযোগ সামনে আনলেন মুকুল রায়!

রাজ্য রাজনীতি আজ দুপুরের পর থেকে তোলপাড় হয়ে যায় দু-দুটি ঘটনায়। প্রথমেই, তৃণমূল কংগ্রেসের বিষ্ণুপুর লোকসভার বর্তমান সাংসদ সৌমিত্র খাঁ স্বয়ং তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও দলের অঘোষিত দুনম্বর নেতা অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে একরাশ ক্ষোভ উগরে দিয়ে প্রবল প্রতিদ্বন্দ্বী বিজেপিতে যোগদান করেন। আর এই ঘটনার পরে তৃণমূল কংগ্রেস মহাসচিব পার্থ

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবরকে মান্যতা দিয়ে মৌসুমী চ্যাটার্জি ও সৌমিত্র খাঁ বিজেপিতে – এরপর কারা?

একদা রাজ্যের শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেসের অঘোষিত দুনম্বর নেতা তথা অধুনা বিজেপি নেতা মুকুল রায়ের হাত ধরে দু-দুজন হেভিওয়েট গত কয়েকদিনের মধ্যে বিজেপিতে যোগদান করলেন। প্রথমে যোগদান করলেন অভিনেত্রী মৌসুমী চট্টোপাধ্যায় ও আজকে তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে, বিশেষ করে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে একরাশ ক্ষোভ উগরে দিয়ে গেরুয়া শিবিরে যোগদান

সব জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে দিল্লিতে বিজেপির সদর দপ্তরে গেরুয়া শিবিরে যোগদান করলেন মৌসুমী চ্যাটার্জি

গত কয়েকদিনের জল্পনার অবসান - আজ সকালেই যেমন জানিয়েছিলাম, আজ দুপুরে মুম্বই থেকে দিল্লি গিয়ে বিজেপির সদর দপ্তরে গেরুয়া শিবিরে যোগদান করলেন অতীত দিনের বিখ্যাত অভিনেত্রী মৌসুমী চট্টোপাধ্যায়। প্রসঙ্গত, গত ৩১ শে ডিসেম্বরই আমরা জানিয়েছিলাম - বিজেপি নেতা মুকুল রায় মুম্বইতে গিয়ে মৌসুমীদেবীর সঙ্গে প্রয়োজনীয় কথাবার্তা সেরে এসেছেন। মুকুলবাবু গত ৩১

প্রিয় বন্ধু বাংলার খবরকে সত্য প্রমান করে বিজেপিতে যোগ দিতে চলেছেন হেভিওয়েট বলিউডি অভিনেত্রী

বিগত ইংরেজি বছরের শেষদিনে আমরা জানিয়েছিলাম যে (প্রিয় বন্ধু বাংলা, ৩১.১২.২০১৮ - বলিউডের নামী বাঙালি অভিনেত্রী এবার বাংলা থেকে বিজেপির টিকিটে লোকসভা নির্বাচনে? জল্পনা চরমে) বলিউডের এক বাঙালি অভিনেত্রী ও অতীত দিনের নায়িকা - যিনি প্রচুর বাংলা ও হিন্দি সিনেমায় অভিনয় করেছেন, তিনি বিজেপিতে যোগদান করতে চলেছেন ও লোকসভা নির্বাচনে

বড়সড় শক্তিবৃদ্ধি মালদাতে, লোকসভার আগে খুশির হাওয়া গেরুয়া শিবিরের অন্দরে

খুশির হাওয়া বিজেপি শিবিরে - প্রায় পাঁচশো শ্রমিক নিয়ে বিজেপিতে যোগদান করলেন পুরাতন মালদার নেতা অতুল সরকার। এমিনতেই আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে মালদার আসনগুলি নিয়ে অত্যন্ত আশাবাদী গেরুয়া শিবিরের নেতারা। ফলে, জেলায় সংগঠন আরও মজবুত হওয়ায় রীতিমত উজ্জীবিত গেরুয়া শিবির। প্রসঙ্গত, গতকাল সকাল থেকেই কানাঘুষো শোনা যাচ্ছিল যে অতুলবাবুর নেতৃত্বে পুরাতন

তিন হেভিওয়েট তৃণমূল সাংসদের বিজেপিতে যোগদান নিয়ে জল্পনা, মুখ খুললেন মুকুল রায় – জানুন বিস্তারিত

আজ সকালে এক সর্বভারতীয় ইংরেজি দৈনিকে একটি খবর প্রকাশিত হয় - যেখানে সুস্পষ্ট ভাবে জানানো হয়েছে তৃণমূল কংগ্রেসের তিন হেভিওয়েট বর্তমান সাংসদ মুকুল রায়ের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ যোগাযোগ রেখে চলেছেন - ফলে আগামী লোকসভা নির্বাচনে তাঁরা শাসকদলের টিকিট নাও পেতে পারেন। আর তাই তাঁরা তৃণমূল কংগ্রেস ছেড়ে বিজেপিতে যোগদান করতে পারেন। ওই

Top
error: Content is protected !!