এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > উত্তরবঙ্গ > লোকসভায় মালদহ ও উত্তর দিনাজপুরে কঠিন লড়াই জিতে, তা ঘাসফুলময় করতে বিশেষ পদক্ষেপ শুভেন্দু অধিকারীর

লোকসভায় মালদহ ও উত্তর দিনাজপুরে কঠিন লড়াই জিতে, তা ঘাসফুলময় করতে বিশেষ পদক্ষেপ শুভেন্দু অধিকারীর

আসন্ন লোকসভা নির্বাচনের আগে এবার ফের মালদহ ও উত্তর দিনাজপুরে একদিকে সরকারি, আর অন্যদিকে রাজনৈতিক কর্মসূচি করলেন এই দুই জেলার তৃণমূল পর্যবেক্ষক তথা রাজ্যের পরিবহন ও পরিবেশ মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী। সূত্রের খবর, মালদহের মোথাবাড়িতে এক রাজনৈতিক কর্মসূচি পালন করেন তিনি। আর এরপরই মালদহ থেকে উত্তর দিনাজপুরের হেমতাবাদ গিয়েও একটি রাজনৈতিক কর্মীসভা করেন শুভেন্দুবাবু।

জানা গেছে, এই মালদহের মোথাবাড়িতে দলীয় সম্মেলনে জেলার প্রায় ২,২০০ টি বুথের মধ্যে প্রতিটি বুথ থেকে ৫ জন কর্মীকে বাছাই করে সেখানে নিয়ে আসা হয়েছিল। বিশেষজ্ঞ মহলের ধারণা, গত পঞ্চায়েত নির্বাচনে এই মালদায় শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেস প্রথম স্থান অধিকার করলেও সেখানে আশ্চর্যজনকভাবে কংগ্রেস এবং সিপিএমকে পেছনে ফেলে দ্বিতীয় স্থানে উঠে এসেছে বিজেপি। সুতরাং, আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি যাতে আর এখানে মাথা তুলে ঠিকমত না দাঁড়াতে পারে সেই জন্য এখন থেকেই জেলার সংগঠনকে চাঙ্গা করতে রাজনৈতিক কর্মী সভার মধ্যে দিয়ে শাসক দলের কর্মী-সমর্থকদের উদ্দীপনা বাড়ান শুভেন্দুবাবু।

পাশাপাশি এই জেলায় কিছুটা হলেও ক্ষমতা দখল করে রাখা কংগ্রেসকেও এবারের লোকসভা নির্বাচনে চাপে ফেলতে চায় শাসকদল। তাই লোকসভা নির্বাচনের আগে জেলায় নিজেদের সংগঠনকে ধরে রাখতে মোথাবাড়ির মতো জায়গায় রাজনৈতিক সম্মেলন করে এই মালদহ জেলায় ঘাসফুলের শক্ত ঘাঁটি করে তুলতে চান শুভেন্দু অধিকারী। অন্যদিকে সম্প্রতি এখানকার কংগ্রেস বিধায়ক সাবিনা ইয়াসমিন যোগ দিয়েছেন তৃনমূলে। ফলে কেন এই মোথাবাড়িতে তৃণমূলের সম্মেলন হচ্ছে তা বুঝতে বাকি নেই কোনো রাজনৈতিক দলেরই।

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

এদিন শুভেন্দুবাবুর এহেন রাজনৈতিক কর্মসূচি প্রসঙ্গে মালদা জেলা তৃণমূলের কার্যকরী সভাপতি বলেন, “শুভেন্দুবাবু প্রথমে গৌড়কন্যা বাসস্ট্যান্ডে উত্তরবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ নিগমের নবনির্মিত ডিপো উদ্বোধন করে মোথাবাড়িতে দলের জেলা সম্মেলনে যোগ দেন। লোকসভা নির্বাচনে এই জেলায় ভালো ফল করার দায়িত্ব আমাদের রয়েছে। বিশেষ করে পঞ্চায়েতে মানুষ যেভাবে আমাদের প্রতি ভরসা দেখিয়েছেন, তাঁর যোগ্য সন্মান দিতেই হবে। আর তাই সেই ব্যাপারে শুভেন্দু অধিকারী আমাদের দিশা দেন”।

জানা যায়, তবে শুধু মালদা জেলাই নয়, আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে ভালো ফল করার জন্য শুভেন্দু অধিকারীর নজরে রয়েছে উত্তর দিনাজপুরের রায়গঞ্জ লোকসভা কেন্দ্রটিও। সূত্রের খবর, মালদহ থেকে ফিরে প্রথমে হেমতাবাদের একটি কর্মীসভায় যোগ দিয়ে সেখান থেকে উত্তর দিনাজপুরের কমলাবাড়িতে সরকারি অনুষ্ঠান ও রায়গঞ্জ স্টেডিয়ামের ক্ষেত-নদী উৎসবে যোগ দেন রাজ্যের পরিবহণ ও পরিবেশ মন্ত্রী।

এদিন এই প্রসঙ্গে তৃণমূলের রায়গঞ্জ পৌরসভার চেয়ারম্যান বলেন, “শুভেন্দুবাবু কমলাবাড়ির সরকারি অনুষ্ঠান মঞ্চ থেকেই রায়গঞ্জ পুরসভার একাধিক কাজের উদ্বোধন করেন”। রাজনৈতিক মহলের মতে, এ যেন এক ঢিলে দুই পাখি মারার চেষ্টা করলেন শুভেন্দু অধিকারী। একদিকে সরকারের উন্নয়নমূলক কর্মসূচির উদ্বোধন আর অন্যদিকে সেই প্রশাসনিক কাজে এবং মানুষের পাশে উন্নয়নের বার্তা নিয়ে জেলায় দলীয় কর্মী সমর্থকদেরও চাঙ্গা করার চেষ্টায় এবারের শুভেন্দুবাবুর এই মালদহ এবং উত্তর দিনাজপুর সফর।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!