এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > নদীয়া-২৪ পরগনা > সুন্দরবনে মহিলাদের স্বনির্ভর করতে ভেড়া ও ছাগল পালনের বিশেষ প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা

সুন্দরবনে মহিলাদের স্বনির্ভর করতে ভেড়া ও ছাগল পালনের বিশেষ প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা

Priyo Bandhu Media


এবার রাজ্যের প্রত্যন্ত প্রান্ত সুন্দরবনের মহিলাদের স্বনির্ভর করতে এগিয়ে এল পশ্চিমবঙ্গ প্রানী ও মৎস্য বিজ্ঞান বিশ্ববিদ্যালয়। জানা গেছে, সুন্দরবনের যে কৃষক পরিবারগুলো রয়েছে সেই পরিবারের 1000 মহিলাকে গাড়ল ভেড়া ও বাংলার কালো ছাগল পালন করার প্রশিক্ষন দেওয়া হবে এই বিশ্ববিদ্যালয়ের তরফে। তবে শুধু প্রশিক্ষনই নয়, হিঙ্গলগঞ্জ, গোসাবা, বাসন্তী সহ সুন্দরবনের এলাকার একাধিক কৃষক পরিবারকে এই গাড়ল ভেড়া ও কালো ছাগল দেওয়ার পাশাপাশি তাঁদের জীবনযাত্রার মানোন্নয়নও ঘটানো হবে।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

——————————————————————————————-

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে।

কিন্তু কবে থেকে শুরু হবে এই প্রশিক্ষন পর্ব? সূত্রের খবর, আগামী 27 আগষ্ট বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল ক্যাম্পাসে 40 জন মহিলাকে দিয়েই এই প্রশিক্ষন পর্ব শুরু হবে। তবে প্রশিক্ষনের সময় যে ছাগল বা ভেড়া দেওয়া হবে সেই পশুগুলি থেকে উৎপাদনের বিপনন ক্রিয়া চলা পর্যন্ত তাঁদের সহযোগীতা করা হবে বলে খবর।

ভারত সরকারের জৈব প্রযুক্তি বিভাগের “বায়োটেক কিষানহাব ক্যালকাটা” নামে এই প্রকল্পে ধাপে ধাপে 5000 মহিলাকে প্রশিক্ষন দেওয়া হবে। আর সেখান থেকেই 1000 জনকে বেছে নিয়ে এই পশুপালনে তাঁদের উৎসাহ আছে কি না তা খতিয়ে দেখে এই প্রশিক্ষনে প্রতিনিধিও নির্বাচিত করা হবে।

 এ প্রসঙ্গে পশ্চিমবঙ্গ প্রানী ও মৎস্যবিজ্ঞান বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষনা, সম্প্রসারন ও খামার অধিকরন বিভাগের অধিকর্তা অরুনাশিস গোস্বামী বলেন, ” এই প্রকল্পের মাধ্যমে পরিবারগুলি আর্থিক ভাবে লাভবান হবে।” বিশ্ববিদ্যালয়ের তরফে জানা গেছে, মোহনপুর ক্যাম্পাসে এই কালো ছাগল ও গাড়ল ভেড়ার প্লাজমা সংরক্ষীত রাখা হবে। আর সেখান থেকেই পাওয়া যাবে এই ভেড়া বা ছাগলগুলি। সব মিলিয়ে পিছিয়ে পড়া সুন্দরবনে মহিলাদের স্বনির্ভর করতে বিশ্ববিদ্যালয়ের এহেন উদ্যোগে খুশি সকলেই।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!