এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > উত্তরবঙ্গ > ছাত্র অবরোধে উত্তাল আসাম, আঁচ এসে পড়ল উত্তরবঙ্গেও – জেনে নিন বিস্তারিত

ছাত্র অবরোধে উত্তাল আসাম, আঁচ এসে পড়ল উত্তরবঙ্গেও – জেনে নিন বিস্তারিত

জাতীয় নাগরিকপঞ্জীর চূড়ান্ত তালিকা থেকে ৪০ লক্ষ বাঙালির নাম বাদ যাওয়ায় অসমের পরিস্থিতি বেশ উত্তপ্ত রয়েছে বিগত কয়েকদিন ধরে। সেই উত্তাপকে আরো একটু ইন্ধন জোগাতে সক্রিয় ভূমিকা নিতে দেখা গেল রাজবংশী স্টুডেন্ট ইউনিয়নকে। ষষ্ঠ তপসিলে তাদের অন্তর্ভুক্তি ও সংরক্ষণ সহ একাধিক দাবী পূরণের জন্য সোমবার সকাল থেকেই রেল অবরোধ কর্মসূচি গ্রহন করেছে তারা।

আর এর জেরে এদিন সকাল সাতটা থেকে অসমে চৌতারা স্টেশানে অবরোধ চলছে। ফলে তীব্র ভাবে ব্যাহত হচ্ছে রেল পরিবেষা। একাধিক রুটের ট্রেন বাতিল করা হয়েছে। কোনো কোনো ট্রেন আবার মাঝপথেই দাঁড়িয়ে রয়েছে। সপ্তাহের প্রথমদিনই ব্যাপক ভোগান্তির শিকার অফিস যাত্রী থেকে শুরু করে কলেজ পড়ুয়ারা।

এদিকে অসমে রেল অবরোধের তীব্র প্রভাব পড়েছে সমগ্র উওর-পূর্ব সীমান্ত রেল পরিষেবায়। রাজধানী সহ তিনটি দূরপাল্লার ট্রেন গন্তব্যস্থলে পৌছাতে পারেনি। নিউ আলিপুরদুয়ারে ব্যাঙ্গালোর এক্সপ্রেস, কোকড়াঝাড় স্টেশানে রাজধানী এক্সপ্রেস এবং নিউ কোচবিহারে কামরূপ এক্সপ্রেসকে আটকে দেওয়া হয়েছে। আরো চারটি দূরপাল্লার ট্রেন দাঁড়িয়ে রয়েছে উত্তরবঙ্গের বিভিন্ন স্টেশানে।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

এছাড়া বাতিল করা হয়েছে কামাখ্যা-আলিপুরদুয়ার ইন্টারসিটি এক্সপ্রেস ও রঙ্গিয়া-এনজেপি প্যাসেঞ্জার। পথেই ধূপগুড়ি স্টেশানে দাঁড় করিয়ে দেওয়া হয়েছে আপ গরিব রথ এক্সপ্রেস। বাংলা থেকে অসমগামী দুরপাল্লাী ট্রেনগুলোকে নিউ জলপাইগুড়ি, নিউ কোচবিহার, নিউ আলিপুরদুয়ারে দাঁড় করানো হয়েছে। ওদিকে, অসম থেকে পশ্চিমবঙ্গে আসা ট্রেনগুলিকেও দাঁড় করিয়ে দেওয়া হয়েছে কোকড়াঝাড়, বঙ্গাইগাঁও স্টেশানে। এমনটাই জানা যাচ্ছে, আলিপুরদুয়ারের ডিআরএম চন্দ্রভির রমনের সূত্রে।

কয়েকঘন্টার টানা অবরোধ কর্মসূচির পর চৌতরা স্টেশানে পৌঁছান রেলের উচ্চপদস্থ আধিকারিকরা। অবরোধকারীদের সঙ্গে আলোচনায় বসেছেন রেলের কর্মকর্তারা বলেও জানা গেছে। এদিকে, দীর্ঘসময় ধরে রেল অবরোধের জেরে বিপাকে পড়েছেন যেসব যাত্রীরা তাঁদের যাতে খাবার, পানীয় জল এবং ওষুধের পর্যাপ্ত যোগান দেওয়া হয় সেদিকেও নজর দেওয়া হচ্ছে। তবে অভিযোগ রয়েছে যাত্রীদের তরফ থেকেও। সময়মতো তারা কোনো পরিষেবাই পাচ্ছেন না বলে জানিয়েছেন আটকে পড়া যাত্রীরা।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!