এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > মেদিনীপুরের দুর্ঘটনা থেকে ‘শিক্ষা’ নিয়ে অমিত শাহের সভায় একের পর এক পদক্ষেপ বঙ্গ-বিজেপির

মেদিনীপুরের দুর্ঘটনা থেকে ‘শিক্ষা’ নিয়ে অমিত শাহের সভায় একের পর এক পদক্ষেপ বঙ্গ-বিজেপির

মাত্র কদিন আগেই মেদিনীপুরে আয়োজিত প্রধানমন্ত্রীর কৃষক জনসভা মঞ্চে শামিয়ানা ভেঙে বহু মানুষের জখম হওয়ার ঘটনা থেকে শিক্ষা নিয়ে আগামী ১১ ই অগষ্ট শনিবার কলকাতায় অমিত শাহের সভায় বাড়তি সতর্কতা অবলম্বন করতে চলেছে রাজ্য বিজেপি। এদিনের সভায় কোনো শামিয়ানা রাখার পরিকল্পনা হয়নি। মঞ্চ লোহার কাঠামো দিয়ে তৈরী করা হচ্ছে বলেই জানা গিয়েছে।

এই সভার আয়োজনের দায়িত্ব থেকে দায়িত্বপ্রাপ্ত ডেকরেটার্সেরও পরিবর্তন করা হয়েছে। বিজেপির রাজ্য নেতৃত্বের পক্ষ থেকে পিডব্লুডির কাছে মঞ্চ তৈরীর কাজ বিশদে দেখার জন্যে আর্জি জানানো হয়েছে। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, কলকাতা পুলিশ এদিন বিজেপির যুব মোর্চাকে তাদের প্রস্তাবিত সভাস্থল রাসমণি রোডের পরিবর্তে মেয়ো রোডে সভা করার অনুমতি দিয়েছে। সেখানেই এখন শেষ মুহূর্তের চলছে জোর কদমের মঞ্চ তৈরীর কাজ।

বৃহস্পতিবার এই মঞ্চ তৈরীর কাজ পর্যবেক্ষণ করতে যান গেরুয়া শিবিরের কেন্দ্রীয় নেতা তথা দলের রাজ্য পর্যবেক্ষক নেতা কৈলাস বিজয়বর্গীয়। তাঁর সাথে বিজেপি রাজ্য নেতৃত্বের তরফে ছিলেন সায়ন্ত্বন বসু, রাজু বন্দ্যোপাধ্যায় সহ অন্যান্য শীর্ষনেতারা। এই সভার দিনে নিরাপত্তা ব্যবস্থা ত্রুটিমুক্ত রাখতে ড্রোন ব্যবহার করা হবে বলে জানা গিয়েছে। বেলেঘাটার একটি ডেকরেটার্স সংস্থা এই সভামঞ্চ তৈরীর দায়িত্বভার পেয়েছে বলে জানা যাচ্ছে।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

তবে বেলেঘাটার এই ডেকরেটার্স সংস্থাকে প্রযুক্তিগত দিক থেকে সাহায্য করছে রাঁচির অপর একটি ডেকরেটার্স সংস্থা। উল্লেখ্য রাঁচির এই ডেকরেটার্স সংস্থাই পুরুলিয়ায় অমিত শাহের সভার দিন মঞ্চ তৈরী করেছিলো। এদিকে রাজ্য বিজেপি সূত্রে জানতে পারা গিয়েছে যে কলকাতার কোনও ডেকরেটার্স সংস্থার কাজ পছন্দ না হওয়ায় তাদের পুরো কাজের দায়িত্ব দেওয়া হয়নি।

দলের গোপন সূত্রে পাওয়া খবর অনুসারে আসন্ন সভায় মঞ্চ তৈরীর কাজ কোন ডেকরেটার্সকে দেওয়া হবে তা নিয়েও দলের অন্দরে বেশ মতবিরোধ তৈরী হয়েছিলো সাম্প্রতিক কালে। রাজ্য বিজেপির একটি গোষ্ঠী মেদিনীপুরে প্রধানমন্ত্রী মোদীর সভার মঞ্চ তৈরীর কাজ রাঁচির ডেকরেটার্স সংস্থাকে দিতে চেয়েছিল। কিন্তু দলের অন্য গোষ্ঠীর মদতে কলকাতার সংস্থা মেদিনীপুরে মঞ্চ তৈরীর কাজ পেয়েছিল।

অবশ্য এই কাজের পিছনে তাদের যুক্তি ছিলো কলকাতার ওই সংস্থাই দীর্ঘদিন ধরে বিজেপির মঞ্চ তৈরীর কাজ করেছে তাই এক্ষেত্রেও তাদেরকেই সুযোগ দেওয়া উচিত। তবে মেদিনীপুরের সভায় দুর্ঘটনার পরে মঞ্চ ও শামিয়ানা তৈরীর কাজ নিয়ে জবাবদিহি করতে হয়েছিল রাজ্য বিজেপি নেতৃত্বকে। অতীতের ঘটনা থেকে শিক্ষা নিয়েই অমিত শাহের আগামী সভার প্রতি এতো কড়া পরিচালন ও নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা ব্যবস্থার আয়োজন করা হয়েছে।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!