এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > অটোর নতুন রুটের দখল নিয়ে তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্বে রণক্ষেত্র সোনারপুর

অটোর নতুন রুটের দখল নিয়ে তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্বে রণক্ষেত্র সোনারপুর

এতদিন এলাকা বিবাদ থেকে পুকুর দখল, বিভিন্ন ক্ষেত্রে তৃণমূলের গোষ্ঠী কোন্দল প্রত্যক্ষ করা যেত। আর এবার পরিবহনব্যবস্থাতেও প্রবল বিবাদে জড়িয়ে পড়লেন তৃণমূলের দুটি গোষ্ঠী। জানা গেছে, অটোর নতুন রুট চালু করা নিয়ে তৃণমূলের দুই অটো ইউনিয়নের নেতা-কর্মীরা একে অপরের বিরুদ্ধে এদিন সরব হতে শুরু করেন।

সূত্রের খবর, রাজপুর-সোনারপুর রুটে অটো চলাচলের জন্য পরিবহন দপ্তরের পক্ষ থেকে নতুন চল্লিশটি অটোর অনুমতি পাওয়া গেছে। কিন্তু সেই রুটে আগে থেকেই অটো চলাচলের ফলে আগের অটো চালকরা দাবি করতে শুরু করেন, বর্তমানে এখানে যাত্রীসংখ্যা অনেকটাই কমে গেছে। তার উপরে যদি নতুন করে এখানে গাড়ি আসে, তাহলে তাদের ব্যবসা অনেকটাই ক্ষতির মুখে পড়বে।

আর মঙ্গলবার সেই প্রতিবাদেই এখানকার পুরনো অটো চালকরা সোনারপুর থানার উল্টোদিকে স্টেশনের সামনে মঞ্চ বেঁধে তীব্র প্রতিবাদে গর্জে ওঠেন। কিন্তু তৃণমূলের এক গোষ্ঠী এই ঘটনায় প্রতিবাদে গর্জে উঠলে দেখা যায়, সোনারপুর শহর আইএনটিটিইউসির সভাপতি তাপস চট্টোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে সেই এলাকার বেশকিছু অটোচালক সেখানে এসে পাল্টা প্রতিবাদ জানিয়ে দলকে না জানিয়ে কেন এই ধরনের কর্মসূচি নেওয়া হচ্ছে, তার জন্য চিৎকার-চেঁচামেচি শুরু করে দেন।

আর এতেই শুরু হয় বিপত্তি। তৃণমূলের দুই গোষ্ঠীর বিবাদে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে সোনারপুর এলাকা। পরিস্থিতি সামাল দিতে ঘটনাস্থলে আসতে হয় পুলিশকে। অবশ্য পুলিশ যখন ঘটনাস্থলে আসেন, তখন আইএনটিটিইউসির সোনারপুরের সভাপতি তাপস চট্টোপাধ্যায় পুলিশের উদ্দেশ্যে বলেন, “এখানে কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটবে না। এটা আমাদের অভ্যন্তরীণ ব্যাপার। আমরা কথা বলে পরিস্থিতি মিটিয়ে নেব।” কিন্তু এখানেই প্রশ্ন, যদি তাদের এটা অভ্যন্তরীণ ব্যাপারই হবে, তাহলে কেন তা প্রকাশ্যে এল! কেন এইভাবে দলীয় ঘটনাকে দলীয় গোষ্ঠী কোন্দলের রূপ দিল তৃনমূল কংগ্রেস!

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

এদিন এই প্রসঙ্গে রাজপুর-সোনারপুর রুটের আইএনটিটিইউসি সভাপতি মৃদুল মুখোপাধ্যায় বলেন, “আমাদের নেত্রী দোলা সেনের সঙ্গে সঙ্গে কথা বলেই আমরা আজ প্রতিবাদ মঞ্চের ডাক দিয়েছিলাম। সভা শুরুর আগে আমাদের দলের কিছু স্থানীয় নেতা এসে বাধা দেয়। বিষয়টি নিয়ে আমরা দলের শীর্ষ নেতৃত্বকে জানাব।”

কিন্তু এইভাবে অটোর রুট বদল নিয়ে যেভাবে তৃণমূলের গোষ্ঠী কোন্দল প্রত্যক্ষ করল সোনারপুর, তাতে কি তাদের দল সম্পর্কে খুব ভালো বার্তা গেল জনমানসে! এদিন এই প্রসঙ্গে জেলা আইএনটিটিইউসি সভাপতি শক্তি মণ্ডল বলেন, “সোনারপুর-রাজপুরে সরকারিভাবে নতুন অটো রুটের লাইসেন্স দেওয়া হয়েছে। এদিন সেই সব রুটে নতুন অটো চালাতে গেলে বাধা দেওয়া হয়। ওইখানে যার নেতৃত্বে এটা হচ্ছে, তিনি অটো ইউনিয়নের স্বঘোষিত নেতা। স্বাভাবিকভাবেই অটো চালানো বন্ধ করা আমি সমর্থন করি না। কারণ সরকারিভাবে তা দেওয়া হয়েছে।”

তবে শক্তিবাবু যাই বলুন না কেন, যেভাবে অটো রুটের বদলকে কেন্দ্র করে তৃণমূল বনাম তৃণমূলের গোষ্ঠী সংঘর্ষ হল, তাতে প্রবল অস্বস্তিতে পড়ল তৃনমূল বলে মত রাজনৈতিক মহলের।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!