এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > সমগ্র শিক্ষা অভিযানে কেন্দ্রের নতুন নির্দেশিকায় চাপে রাজ্য সরকার

সমগ্র শিক্ষা অভিযানে কেন্দ্রের নতুন নির্দেশিকায় চাপে রাজ্য সরকার

এবার শিক্ষা অভিযান নিয়ে এক নতুন নির্দেশিকা এল কেন্দ্রের তরফে। আর কেন্দ্রের তরফে পাঠানো এই নির্দেশই নির্দেশিকায় রাজ্য অনেকটাই পিছিয়ে রয়েছে বলে মনে করছেন বিকাশ ভবনের কর্তারা। কিন্তু কি সেই নির্দেশিকা?

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, সর্বশিক্ষা, মাধ্যমিক শিক্ষা এবং শিক্ষক শিক্ষন জুড়ে শিক্ষা অভিযান চালু করা হয়েছে। আর এরপরই সেখানে বেশ কয়েকটি নিয়মের ক্ষেত্রেও উল্লেখযোগ্য পরিবর্তন হয়েছে। আর এবার সেই নিয়মগুলিই প্রকাশ করছে কেন্দ্রীয় সরকার।

আর যেখানে বলা হয়েছে যে, প্রতি মাসে অনলাইনের খরচের হিসেব এবং আগের অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে নতুন অ্যাকাউন্ট করতে হবে। সূত্রের খবর, এই শিক্ষা অভিযান প্রকল্পে কেন্দ্র মোট সাড়ে তিন হাজার কোটি টাকা মঞ্জুর করেছিল। তবে 2200 কোটি টাকার বেশি কেন্দ্রের তরফে মিলবে না বলেই এখন ইঙ্গিত মিলতে শুরু করেছে। ইতিমধ্যেই প্রথম কিস্তির 1400 কোটি টাকা রাজ্যের অ্যাকাউন্টে ঢুকে গিয়েছে। বাকি 800 কোটি টাকা দ্বিতীয় কিস্তিতে আসবে।

কিন্তু দ্বিতীয় কিস্তির টাকা পৌঁছনোর আগেই শিক্ষা অভিযান চালু করার ক্ষেত্রে সোসাইটি তৈরির নির্দেশ দিল কেন্দ্র। এদিকে পুরনো সমস্ত সোসাইটি ভেঙে দিয়ে নতুন সোসাইটি তৈরি করার কথা বলা হলেও রাজ্য এখনো সেই পুরনো সোসাইটি মোতাবেকই কাজ চালিয়ে যাচ্ছে। পাশাপাশি ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খোলার নির্দেশ দেওয়া হলেও এখনো পর্যন্ত তা সম্ভব হয়নি বলেই জানিয়েছেন শিক্ষা দপ্তরের একাংশ কর্তারা। ফলে এই সব ক্ষেত্রে যদি কেন্দ্র রাজ্যের কাছে এই ব্যাপারে জবাবদিহি তলব করে তাহলে অনেকটাই চাপে পড়তে হতে পারে এই রাজ্যকে।

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

 

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

অন্যদিকে প্রতি মাসে অনলাইনের খরচের হিসেব দেওয়ার নির্দেশেও প্রবল চাপে পড়েছে রাজ্যের শিক্ষাদপ্তর। আর এতসবের পরেও গোদের উপর বিষফোঁড়া হিসেবে অডিট শেষের নির্দেশনামাও প্রবল চিন্তায় ফেলেছে রাজ্যকে। জানা গেছে, সেপ্টেম্বরের মধ্যে এই অডিটের কাজ শেষ করে ফেলার কথা থাকলেও এখনো পর্যন্ত তা শেষই হয়নি। ফলে সেই দ্বিতীয় কিস্তির অর্থ আসা নিয়েও তৈরি হয়েছে ধন্দ। সব মিলিয়ে এবার শিক্ষা অভিযানেও কেন্দ্রের নির্দেশিকায় প্রবল চাপে রাজ্য সরকার।

Top
error: Content is protected !!