এখন পড়ছেন
হোম > বিশেষ খবর > প্রকাশ্যেই তৃণমূল সাংসদের ছবিতে জুতোর মালা, এলাকা জুড়ে চাঞ্চল্য ছড়ালো

প্রকাশ্যেই তৃণমূল সাংসদের ছবিতে জুতোর মালা, এলাকা জুড়ে চাঞ্চল্য ছড়ালো

বালুরঘাটের সাংসদ অর্পিতা ঘোষের গলায় জুতোর মালা দেওয়া ছবি-সহ ফ্লেক্স টাঙানোর ঘটনায় জেলা জুড়ে শুরু হয়েছে চাঞ্চল্য। এই ঘটনার সূত্রপাত হয় মুখ্যমন্ত্রীর মমতা বন্দোপাধ্যায়ের দক্ষিণ দিনাজপুরে বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার পরিকল্পনার কথা ঘোষণা করতেই। গত ২১ ফেব্রুয়ারি দক্ষিণ দিনাজপুরের গঙ্গারামপুর স্টেডিয়ামে জেলার প্রশাসনিক জনসভা অনুষ্ঠিত হয় । সেখানেই মুখ্যমন্ত্রী তাঁর ঐ জেলায় বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের পরিকল্পনার কথা বলেন। কিন্তু ঐ জেলায় নির্দিষ্ট কোনো স্থানের উল্লেখ তাঁর ভাষণে ছিলো না । এরপর মুখ্যমন্ত্রী কলকাতা ফিরে আসার অনতিবিলম্বেই দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার তৃণমূলের জেলা সভাপতি জমি চিহ্নিত করে গঙ্গারামপুরে বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের দাবি জানাতে শুরু করেন । ফলে শুরু হয় দলের অন্দরেই কোন্দল। যদিও বালুরঘাটের সাংসদ অর্পিতা ঘোষ , জেলা সদর বালুরঘাটে বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের পক্ষে মত পোষণ করেন। এর পর গত বুধবার বুধবার বিধানসভায় আরএসপি-র বিধায়ক বিশ্বনাথ চৌধুরীর সাথে প্রশ্নোত্তরে শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় কার্যত স্পষ্টই করে দেন যে, বিশ্ববিদ্যালয়টি বালুরঘাটেই স্থাপিত হবে। ইতিমধ্যে বালুরঘাটে জমিও চিহ্নিতকরণের প্রাথমিক কাজ সম্পন্ন করেছে প্রশাসন। তবে এই বিষয়ে সাংসদ বলেন, “গুরুত্বের নিরিখে বিশ্ববিদ্যালয়টি কোথায় হবে তা একমাত্র মুখ্যমন্ত্রী ঠিক করবেন। সুতরাং তা নিয়ে অহেতুক বালুরঘাট এবং গঙ্গারামপুরের মধ্যে বিরোধ তৈরির চেষ্টা বন্ধ হোক। ” গঙ্গারামপুরে তাঁর ছবিতে জুতোর মালা দিয়ে টাঙানোর প্রসঙ্গে তিনি সংবাদ মাধ্যম কে জানান , “বিষয় টা খোঁজ নিয়ে দেখছি।”

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!