এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > উত্তরবঙ্গ > নিজের ছেলেকে বড় পদ দিয়ে ‘মনের মত’ সাংগঠনিক পরিবর্তন বিধায়কের! তীব্র দ্বন্দ্ব শাসকদলে

নিজের ছেলেকে বড় পদ দিয়ে ‘মনের মত’ সাংগঠনিক পরিবর্তন বিধায়কের! তীব্র দ্বন্দ্ব শাসকদলে

উত্তর দিনাজপুর জেলা তৃণমূলের অন্দরে বিতর্ক যেন কমছে না কিছুতেই। এবার ইসলামপুর ব্লকের অঞ্চল কমিটি ঘোষণা করে ফের বিতর্ক তৈরি করে দিলেন ইসমপুরের তৃণমূল বিধায়ক আবদুল করিম চৌধুরী। সূত্রের খবর, সোমবার বিকালে গোলঘরে করিম সাহেব একটি সাংবাদিক বৈঠক করেন। আর ওই বৈঠকেই তাঁর ছেলে তথা ঘোষিত ব্লক কমিটির সভাপতি মেহেতাব চৌধুরী ব্লকের ১৩টি অঞ্চলের সভাপতি ও কার্যকরী সভাপতির নাম ঘোষণা করেন। এমনকি তাঁদের হাতে নিয়োগপত্র ও অঞ্চল কমিটির তালিকাও তুলে দেওয়া হয়।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, সম্প্রতি ইসলামপুর ব্লক ও টাউন কমিটি ঘোষণা করেন আব্দুল করিম চৌধুরী। ব্লক সভাপতি হিসেবে নিজের ছেলে মেহেতাব চৌধুরী এবং টাউন সভাপতি হিসেবে গঙ্গেশ দে সরকারকে দায়িত্ব দেন তিনি। তবে করিম সাহেবের এহেন সিদ্ধান্তের তীব্র বিরোধীতা করতে দেখা যায় উত্তর দিনাজপুর জেলা তৃণমূলের সভাপতি কানাইয়ালাল আগরওয়ালকে। তিনি বলেন, “বিধায়ক কমিটি তৈরি করতে পারেন না।”

আর এর পরেই উত্তর দিনাজপুর জেলা তৃণমূলের অন্দরে তীব্র চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়। এদিন এই প্রসঙ্গে জেলা তৃণমূলের সভাপতি কানাইয়ালাল আগরওয়াল বলেন, “এবিষয়ে আগে অনেক বক্তব্য দিয়েছি। আমি শুধু বলব বৈধ নয়।” অন্যদিকে এই ব্যাপারে করিম সাহেব বলেন, “ব্লক ও টাউন কমিটি আমি আগেই তৈরি করেছি। এদিন ব্লক সভাপতি মেহেতাব চৌধুরী অঞ্চল কমিটি গঠন করেছে। আমি বিধায়ক হিসাবে তার অনুমোদন দিলাম। দিদিকে বলো কর্মসূচিতে আমরা বিভিন্ন গ্রামে যাচ্ছি। এই নতুন অঞ্চল কমিটি আমাদের সঙ্গে দিদিকে বলো কর্মসূচিতে সঙ্গে থাকবে। আগে কানাইয়াবাবু বিধায়ক ছিলেন। তিনি এখন আর বিধায়ক নেই। ফলে এখন তাঁর কাছে প্রাক্তন কমিটির সদস্যরা আছেন। তাঁরা নিজেরা কাজ করছেন, আমার সঙ্গে কোনও সম্পর্ক নেই। আমার তৈরি করা নতুন কমিটিই বৈধ। প্রাক্তনীরা আমাদের সঙ্গে আসতে চাইলে সঙ্গে নেওয়া হবে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলে দিয়েছেন তৃণমূলের বিধায়করাই ব্লক ও টাউন কমিটি তৈরি করবেন। এখন যাঁরা বিরোধিতা করছেন তা সম্পূর্ন বেআইনি, গায়ের জোরে করছে। কানাইয়াবাবু যেটা করছেন তা দলবিরোধী।” আর জেলা তৃণমূলের অন্দরে কানাইয়ালাল বনাম করিম সাহেবের এই দ্বন্দ্ব এখন তুমুল আকার ধারণ করেছে।

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

আপনার মতামত জানান -

একাংশের দাবি, করিম চৌধুরী ব্লক কমিটি ঘোষণা করার কয়েক দিন আগেই কানাইয়ালারবাবু জাকির হোসেনকে ব্লক সভাপতি করেন। ফলে ইসলামপুরে দুই নেতার ঘোষিত দুজন ব্লক সভাপতি রয়েছেন। সম্প্রতি জাকির হুসেন ১০টি অঞ্চলে দলের সভাপতিদের নিযোগ করেছেন। এদিন মেহেতাব চৌধুরী ১৩টি অঞ্চলের কমিটি ঘোষণা করলেন। ফলে দু’জনের মধ্যে কে বৈধ, তা নিয়ে দলের কর্মীরা ধোঁয়াশায় রয়েছেন।

বিশেষজ্ঞদের অনেকে বলছেন, কমিটি গঠনকে কেন্দ্র করে করিম-কানাইয়ার দ্বন্দ্বে দলের মধ্যে গোষ্ঠী কাজিয়া চরমে চলছে। নীচুতলার কর্মী-সমর্থকরা চাইছেন রাজ্য নেতৃত্ব হস্তক্ষেপ করে বিষয়টি পরিষ্কার করুক। না হলে করিমবাবু ও কানাইয়াপন্থীতে দল বিভক্ত হয়ে থাকবে। যা আগামীতে নির্বাচনগুলোতে জেলা নেতৃত্বকে প্রবল সমস্যায় ফেলবে। সব মিলিয়ে এখন দ্বন্দ্ব মিটিয়ে জেলা তৃণমূলের এই দুই হেভিওয়েট নেতা দলের সংগঠনকে শক্তিশালী করতে আদৌ নিজেদের সমস্যা মিটিয়ে নেন কিনা, এখন সেদিকেই তাকিয়ে সকলে।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!