এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > ভোটের আগে রোজভ্যালি নিয়ে উত্তাল ত্রিপুরা, বদলাতে পারে সমস্ত রাজনৈতিক সমীকরণ

ভোটের আগে রোজভ্যালি নিয়ে উত্তাল ত্রিপুরা, বদলাতে পারে সমস্ত রাজনৈতিক সমীকরণ

কলকাতার চিটফান্ড সংস্থা রোজভ্যালি বাংলা বাদেও আসাম, বিহার ও ত্রিপুরায় নিজেদের ব্যবসা ফেঁদেছিল। ত্রিপুরার মত ছোট রাজ্যে অভিযোগ, রোজভ্যালিতে মোট ৩৫ হাজার কোটি টাকার দুর্নীতি হয়েছে এবং যেখানে মোট ১৪ লক্ষ মানুষ এর ফলে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন। শুধু তাই নয়, এই দুর্নীতিতে জড়িত থাকার অভিযোগ উঠেছে একাধিক বাম নেতা-মন্ত্রীর দিকে, এমনকি খোদ মুখ্যমন্ত্রী মানিক সরকারের নামও জড়িয়ে গেছে। ফলে ত্রিপুরায় বিধানসভা নির্বাচনের আগে হঠাৎই প্রাসঙ্গিক হয়ে উঠেছে রোজভ্যালি কেলেঙ্কারি, এমনকি তা বদলে দিতে পারে সমস্ত রাজনৈতিক হিসেবে-নিকেশ বলেও মনে করছেন সংশ্লিষ্ট মহল।

রোজভ্যালি কাণ্ডে বাম নেত্রী বিজিতা নাথের বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগ রয়েছে। তিনি নাকি রোজভ্যালিকে নানা সুবিধা পাইয়ে দিয়েছেন, এমনকি বিভিন্ন সভাতেও এই চিটফান্ড সংস্থার নামে তিনি ভালো ভালো কথা বলে ত্রিপুরাবাসীকে এই চিটফান্ডের ফাঁদে পা বাড়াতে উৎসাহ দিয়েছেন বলে অভিযোগ। উল্টোদিকে, ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী মানিক সরকারও রোজভ্যালির বিনোদন পার্কের উদ্বোধন করেছেন আগরতলায়। অর্থাত্‍ সর্বোচ্চ নেতৃত্বও রোজভ্যালি নিয়ে সমস্ত ঘটনা জেনেও চুপ করেছিল বলে বিরোধীদের অভিযোগ। এমনিতেই রোজভ্যালি কাণ্ডে টাকা খুইয়ে ত্রিপুরাবাসী ক্ষুব্ধ, তার উপরে বিজেপি নির্বাচনী প্রচারে দাবি করেছে, ভোটে জিতলে রোজভ্যালিতে টাকা খোয়ানো ১৪ লক্ষ মানুষের ক্ষতিপূরণের ব্যবস্থা করবে। ফলে সবমিলিয়ে বিধানসভা নির্বাচনের আগে রোজভ্যালি নিয়ে ত্রিপুরাতে রীতিমত হইচই পরে গেছে। এখন দেখার, রোজভ্যালি কাঁটা উপরে অষ্টম বামফ্রন্ট সরকারের প্রত্যাবর্তন হয় নাকি, সেই কাঁটার সাহায্যেই সেখানে পরিবর্তন হয়ে গেরুয়া সরকারের পত্তন হয়।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!