এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > আরবিআই ও কেন্দ্রীয় সরকারের সংঘাতের কারণ প্রকাশ্যে,চমকে গেল দেশবাসী

আরবিআই ও কেন্দ্রীয় সরকারের সংঘাতের কারণ প্রকাশ্যে,চমকে গেল দেশবাসী

আরবিআই এবং মোদী সরকারের অন্তর্দ্বন্দ্বের খবর নতুন কিছু নয়। কিন্তু দ্বন্দ্বের কারণ নিয়ে স্পষ্ট করে জানা নেই কারো,এ নিয়ে বহুদিন ধরেই জল্পনা রয়েছে জাতীয় রাজনীতির অন্দরে। তবে সমস্ত জল্পনার অবসান ঘটিয়ে এবার সংঘাতের প্রকৃত কারণ প্রকাশ্যে এল।

একটি সংবাদমাধ্যমের সূত্রের খবর, দীর্ঘদিনের রাজস্ব ঘাটতি মেটাতে আরবিআই-এর গচ্ছিত টাকার সিংহভাগ অনুদান হিসাবে চাইছিল কেন্দ্র। কিন্তু রিজার্ভ ব্যাঙ্ক তা দিতে আপত্তি করার জেরেই মন কষাকষির সূত্রপাত। আর এটাই এখন বৃহৎ আকার নিয়ে কাদা ছোঁড়াছুঁড়ির পর্যায়ে চলে গিয়েছে। পরিস্থিতি এতোটাই জটিল হয়েছে যে আরবিআই গভর্নর উর্জিত প্যাটেলের পদত্যাগ নিয়েও কানাঘুষো শুরু হয়েছে।

এই ইস্যুতে রিজার্ভ ব্যাঙ্কের পাশে রয়েছেন প্রাক্তন গর্ভনর রঘুরাম রাজনও। তিনি সম্প্রতি একটি সাক্ষাৎকারে ডেপুটি গর্ভনর বিরল আচার্যের ভাষাতেই বলেছেন,আরবিআই আসলে রাহুল দ্রাবিড়ের মতো হওয়া উচিত,নভজ্যোৎ সিধুর মতো হওয়া উচিৎ নয়। অর্থাৎ এরকম উপমার মাধ্যমে তিনি বোঝাতে চেয়েছেন ধীর,নিয়ন্ত্রিত এবং সঠিক পদক্ষেপই অর্থনীতির পক্ষে ফলপ্রসূ হয়।

সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমটিতে প্রকাশিত খবর থেকে জানা গিয়েছে,এই মুহূর্তে আরবিআইয়ের সঞ্চিত টাকার পরিমান প্রায় ৯ লক্ষ ৫৯ হাজার কোটি টাকা। তা থেকে এক তৃতীয়াংশ অর্থাৎ প্রায় ৩ লক্ষ ৬০ হাজার টাকা অর্থমন্ত্রককে পাঠানোর দাবী করেছিল কেন্দ্র। তবে ঠিক কোন কারণে টাকা প্রয়োজন সেটারও স্পষ্ট উল্লেখ ছিল না। তবে কেন্দ্রের দাবী সাফ কথায় নাকচ করে দিয়েছে আরবিআই।

এই টাকা দিলে দেশের আর্থিক ভারসাম্য নষ্ট হবে, মুদ্রাস্ফীতি এক লাফে অনেকটা বেড়ে যাবে। ফলত দৈনন্দিন দ্রব্যের আকস্মিক মূল্যবৃদ্ধিতে সমস্যায় পড়বে আমজনতা,এমনটাই দাবী আরবিআইয়ের।

এই প্রেক্ষিতে আরবিআইয়ের সমর্থনে কথা বলে বিজেপি সরকারের বিরোধীতায় মেতেছে অবিজেপি রাজনৈতিক দলগুলো। দাবীতে জানিয়েছে,ভারতীয় ইতিহাসে এর আগে মাত্র একবার আরবিআইয়ের গচ্ছিত অর্থ হাতানোর চেষ্টা করা হয়েছিল,সেটা ইন্দো-চীন যুদ্ধের সময়। কিন্তু তখন পরিস্থিতি ছিল ভিন্ন। আপৎকালীন অবস্থায় তখন সরকারের কাছে এটা ছাড়া আর কোনো উপায় ছিল না।

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

 

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

কিন্তু এখন তো সেরকম কোনো জরুরি পরিস্থিতি তৈরি হয়নি,তবে কেন রিজার্ভ ব্যাঙ্কের গচ্ছিত অর্থে কোপ বসাতে চাইছে কেন্দ্র? প্রশ্নে সরব বিরোধীরা। এবং ইস্যুর নিষ্পত্তি যদি কেন্দ্রীয় সরকার অবিলম্বে না করে তাহলে লোকসভা ভোটের আগে কেন্দ্রকে জটিল সমস্যার মুখোমুখি পড়তে হবে বলেই মনে করছেন রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!