এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > উত্তরবঙ্গ > উত্তরবঙ্গে রথযাত্রার অনুমতি দিল না রাজ্য সরকার, তীব্র তিরস্কার হাইকোর্টের বিচারপতির

উত্তরবঙ্গে রথযাত্রার অনুমতি দিল না রাজ্য সরকার, তীব্র তিরস্কার হাইকোর্টের বিচারপতির

রাজ্য প্রশাসনের বিভিন্ন দরজায় কড়া নেড়েও মেলেনি আসন্ন রথযাত্রার অনুমতি। আর তাই মরিয়া শেষ চেষ্টা হিসাবে গেরুয়া শিবির পৌঁছে গেছে আদালতের দরজায়। যেখানে রাজ্য সরকারের অ্যাডভোকেট জেনারেল কিশোর দত্ত স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন – উত্তরবঙ্গের রথযাত্রার অনুমতি দেওয়া সম্ভব নয়। আর যার জেরে বিচারপতির তীব্র তিরস্কারের মুখে রাজ্য সরকার।

নিজের বক্তব্য জানাতে গিয়ে কিশোর স্পষ্ট ভাষায় জন্যে দেন, কুচবিহার পুলিশ সুপারের আপত্তির ভিত্তিতেই রথযাত্রার অনুমতি দেওয়া সম্ভব হচ্ছে না। এরপর, এর পরিপ্রেক্ষিতে গেরুয়া শিবিরের বক্তব্য কি তা শুনবে আদালত। শুনানির সময় বিচারপতি তপোব্রত চক্রবর্তী জানতে চান, রথযাত্রা সংক্রান্ত যাবতীয় সমস্যা উভয়পক্ষ একসঙ্গে বসে সমাধান করতে পারে কি না?

বিচারপতি রাজ্যের কাছে স্পষ্ট জানতে চান যে – রথযাত্রায় অনুমতি দেওয়া নিয়ে প্রথমে ডিজি তারপর আইজিকে জানানো হয়। তারপরও কেন অনুমতি দেওয়া হয়নি? রথযাত্রা নিয়ে স্বয়ং রাজ্যপালও জিজ্ঞেস করেছেন। তারপরও মনে হয়নি অনুমতি দেওয়া যায়? জবাবে রাজ্যের অ্যাডভোকেট জেনারেল জানান যে ডিজি বা আইজি নাকি অনুমতি প্রদানের যথাযথ কর্তৃপক্ষই নন! আর রাজ্যপাল সাংবিধানিক অধিকারের ভিত্তিতেই এরমধ্যে হস্তক্ষেপ করতে পারেন না।

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না – তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

কিশোরবাবুর এহেন সওয়াল শুনেই ক্ষুব্দ বিচারপতি বলে ওঠেন, দুঃখিত – বিচারপতিরা ঈশ্বরের দূত নন যে প্রতিটা রাজনৈতিক সমস্যার সমাধান আদালতে করবেন। ডিজি বা আইজি তো জানাতে পারতেন – কোথায় গেলে অনুমতি পাওয়া যাবে! বিচারপতির রুদ্রমূর্তি দেখে কিশোরবাবু বলেন – কত মানুষ আসবেন বা বিজেপির কোন কেন্দ্রীয় নেতা আসবেন তা জানা নেই।

কিশোরবাবু আরও বলেন, ফলে নিরাপত্তাজনিত কারণে সব জেলার পুলিশ সুপারের সঙ্গে বসতে হবে। এর পরিপ্রেক্ষিতে, বিচারপতি স্পষ্ট জানিয়ে দেন – উভয়পক্ষ একসঙ্গে বসলেই, এই সব প্রশ্নের উত্তর স্পষ্ট হয়ে যাবে! এখন দেখার, এর পরিপ্রেক্ষিতে রাজ্য সরকার কোন যুক্তিজাল সাজিয়ে রথযাত্রা আটকায় বা গেরুয়া শিবিরই বা কোন যুক্তিজালে রথযাত্রার অনুমতি আদায় করে।

Top
Close
error: Content is protected !!