এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > নিহত রাজনৈতিক কর্মীর পরিবারের অসহায়তা বুঝতে এবার সরাসরি কথা বলবেন স্বয়ং রাজ্যপাল

নিহত রাজনৈতিক কর্মীর পরিবারের অসহায়তা বুঝতে এবার সরাসরি কথা বলবেন স্বয়ং রাজ্যপাল



বিগত পঞ্চায়েত নির্বাচনের পর থেকেই জেলায় জেলায় বিরোধীদের ওপর শাসকদলের সন্ত্রাস অব্যাহত বলে অভিযোগ করছেন রাজ্য প্রদেশ কংগ্রেসের নেতারা। সম্প্রতি উত্তর দিনাজপুরের চোপড়ায় খুন হতে হয়েছে কংগ্রেস কর্মী সামিরুল ইসলামকে।

আর এরপরই শাসকদল তৃনমূলের বিরুদ্ধে সুর চড়িয়ে পুলিশের বিরুদ্ধে এই দলীয় কর্মী খুনের তদন্তে নিষ্ক্রিয়তার অভিযোগ তোলেন প্রদেশ কংগ্রেস নেতৃত্ব। কিন্তু আর শাসকের কাছে কোনো দরবার নয়, অবশেষে লাগাতার এই বিরোধী কর্মী খুন আটকাতে এবার রাজ্যপালের দ্বারস্থ হলেন বিধান ভবনের নেতারা।

সূত্রের খবর, গতকাল দলীয় কর্মীদের খুনের গ্রেপ্তারি ও শাস্তির দাবিসহ রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতির অভিযোগে রাজ্যপালের হস্তক্ষেপ চেয়ে রাজভবনে সেই রাজ্যপাল কেশরীনাথ ত্রিপাঠীর সঙ্গে দেখা করেন রাজ্য প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি প্রদীপ ভট্টাচার্য্য, দীপা দাশমুন্সি, রাজ্যের বিরোধী দলনেতা আব্দুল মান্নান, শঙ্কর মালাকার, অমিতাভ চক্রবর্তী সরদার আমজাদ আলী সহ অন্যান্যরা।

আর সেইখানেই রাজ্যপাল কেশরীনাথ ত্রিপাঠী কংগ্রেস নেতাদের আশ্বাস দিয়ে বলেন যে, আগামী 16 ই নভেম্বর তিনি উত্তরবঙ্গ সফরে গিয়ে সেই নিহত কংগ্রেস কর্মী সামিরুল এর পরিবারের সঙ্গে দেখা করবেন। তবে শেষ পর্যন্ত ঠিক হয় 16 নয়, আগামী 18 ই নভেম্বর দার্জিলিংয়ের রাজভবনে সেই নিহত কংগ্রেস কর্মীর পরিবারের সদস্যদের নিয়ে রাজ্যপালের সাথে দেখা করবেন প্রদেশ কংগ্রেসের প্রতিনিধিরাই।

এদিন এ প্রসঙ্গে রাজ্য প্রদেশ কংগ্রেসের সভাপতি সোমেন মিত্র এবং দীপা দাশমুন্সি বলেন, “আমরা পুলিশের ওপর আর কোনো ভরসা করতে পারছি না। রাজ্যপাল আমাদের গোটা ঘটনায় আশ্বাস দিয়েছেন। আগামী 17 ই নভেম্বর চোপড়ায় সামিরুলের হত্যার প্রতিবাদে আমরা সভা করব।”

এদিকে এদিনই উত্তরবঙ্গের সমস্ত জেলা ও উত্তর 24 পরগনা সাংগঠনিক জেলা নেতৃত্বের সাথে একটি বৈঠক করেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি সোমেন মিত্র। জানা গেছে, আজ মুর্শিদাবাদ জেলা কংগ্রেস নেতৃত্বের সঙ্গে একটি বৈঠক করবেন তিনি। আরজে বৈঠকে উপস্থিত থাকবেন প্রাক্তন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর রঞ্জন চৌধুরীও।

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

 

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

রাজনৈতিক মহলের মতে, আসন্ন লোকসভা ভোটের আগে রাজ্যের শাসকদল তৃণমূলের বিরুদ্ধে নিজেদের রাজনৈতিক অস্ত্রে আরও বেশি করে শান দিচ্ছে বিধান ভবন। আর তাইতো এবার দলীয় কর্মী খুনে সরাসরি রাজ্যপালের দ্বারস্থ হয়ে রাজ্য রাজনীতিকে সরগরম করে তুলতে চাইছে তারা।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!