এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > দু-একদিনের মধ্যেই স্পষ্ট হয়ে যাবে রাজ্য পুলিশকে বসিয়ে সব বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনী দিয়ে ভোট কিনা

দু-একদিনের মধ্যেই স্পষ্ট হয়ে যাবে রাজ্য পুলিশকে বসিয়ে সব বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনী দিয়ে ভোট কিনা

রাজ্যের বিগত পঞ্চায়েত নির্বাচনের করুন পরিস্থিতির কথা তুলে ধরে আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে যাতে রাজ্য অবাধ ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচন হয় তার জন্য প্রতি বুথেই কেন্দ্রীয় বাহিনীর উপস্থিতির জন্য নির্বাচন কমিশনের কাছে আবেদন করতে দেখা গিয়েছিল রাজ্যের বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলোকে।

যে ঘটনা নিয়ে রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল বনাম বিরোধী দলগুলির মধ্যে তীব্র দড়ি টানাটানিও চলেছে। কিন্তু এবারের লোকসভা নির্বাচনে রাজ্যের প্রতি বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েন করা কি সম্ভব! এখন এই প্রশ্নই ঘোরাফেরা করছে সমস্ত মহলে। প্রসঙ্গত, এই বাংলায় মোট বুথের সংখ্যা 78 হাজার 799 টি এবং ভোটগ্রহণ কেন্দ্রের সংখ্যা প্রায় 53 হাজার।

গত 2014 সালের লোকসভা নির্বাচনের সময় এই রাজ্যে 617 কম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী এসেছিল এবং পরবর্তীতে গত 2016 বিধানসভা নির্বাচনের সময় প্রতি বুথেই কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েন করা হয়েছিল। আর এই বিধানসভা নির্বাচনের সময় রাজ্যে 700 কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী এসেছিল।

কিন্তু এবারে আসন্ন 2019 সালের লোকসভা নির্বাচনে রাজ্যের বিরোধী দলগুলোর পক্ষ থেকে সেই কেন্দ্রীয় বাহিনী দিয়ে প্রতি বুথে সুষ্ঠু ও অবাধ নির্বাচন করার দাবি তোলা হলেও কাশ্মীরে জঙ্গি হামলার পর ঠিক কত কেন্দ্রীয় বাহিনী রাজ্যে পাঠানো সম্ভব তা নিয়ে বিভিন্ন মহলে তৈরি হয়েছে সংশয়। তবে ইতিমধ্যেই রাজ্যে 10 কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী এসে তাদের রুটমার্চ শুরু করেছে বলে জানা গেছে।

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর আরও সহজে হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের যে কোনও এক্সক্লুসিভ সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপে। ক্লিক করুন এখানে – টেলিগ্রাম, হোয়াটস্যাপ, ফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউবফেসবুক পেজ

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

কিন্তু আশ্চর্যজনকভাবে মনোনয়ন প্রক্রিয়া জমা দেওয়া শেষ হয়ে গেলেও এখনও পর্যন্ত আলিপুরদুয়ার লোকসভা কেন্দ্রে কেন্দ্রীয় বাহিনীদের দেখা পাওয়া যায়নি বলে এদিন নির্বাচন কমিশনের দ্বারস্থ হতে দেখা গেছে সিপিএমের রবীন দেবকে। ঠিক কবে রাজ্যে পূর্ণাঙ্গ মাত্রায় কেন্দ্রীয় বাহিনী আসবে?

এদিন এই প্রশ্নের উত্তরে রাজ্যে মুখ্য নির্বাচন আধিকারিক আরিজ আফতাব বলেন, “কত সংখ্যক কেন্দ্রীয় বাহিনী আসবে তা এখনও জানানো হয়নি। দুই একদিনের মধ্যেই আমরা তা জানতে পারবো।” তবে কেন্দ্রীয় বাহিনীর পাশাপাশি আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে প্রতি বুথে সিসিটিভি ক্যামেরা এবং নিরাপত্তা ব্যবস্থা কঠোর করার কথা এদিন ফের শোনা গেছে রাজ্য নির্বাচন কমিশনের কর্তাদের গলায়।

তবে নিরাপত্তা ব্যবস্থা যতই কঠোর করা হোক না কেন, বিগত পঞ্চায়েত নির্বাচনে রাজ্যে যেভাবে সন্ত্রাসের পরিবেশ সৃষ্টি হয়েছিল তা যাতে আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে আর না হয় তার জন্য এখন কেন্দ্রীয় বাহিনীর ওপরই বেশি ভরসা রাখতে শুরু করেছে রাজ্যের বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলো। তাই শেষ পর্যন্ত ঠিক কত কেন্দ্রীয় বাহিনী রাজ্যে আসে এখন সেদিকেই তাকিয়ে রয়েছেন সকলে।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!