এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > আপাতত শুনানি শেষ! রাজীব কুমারের ভাগ্য নির্ধারিত হয়ে যাবে আর কিছুক্ষনের মধ্যেই?

আপাতত শুনানি শেষ! রাজীব কুমারের ভাগ্য নির্ধারিত হয়ে যাবে আর কিছুক্ষনের মধ্যেই?

কলকাতা হাইকোর্ট ‘রক্ষাকবচ’ তুলে নিতেই ১৭ দিনের লম্বা ছুটিতে গেছেন রাজীব কুমার। তাঁর কোনো খোঁজ রাজ্য প্রশাসনের কাছে নেই – ফোনে বা ইমেলেও পাওয়া যাচ্ছে না তাঁকে। তবে, রাজীব কুমারকে জেরা করতে বদ্ধ পরিকর সিবিআইয়ের তদন্তকারী অফিসারেরা কোনো আশা ছাড়তে রাজি নয়। আইনি ও কূশলী – উভয় পদক্ষেপের মাধ্যমেই রাজীব কুমারকে জেরার মুখে টেনে নিয়ে যেতে চান তাঁরা।

এই অবস্থায় ‘ছুটিতে’ থেকেও আগাম জামিনের জন্য মরিয়া চেষ্টা চালাচ্ছেন রাজীব কুমার। আজ সকালেই বারাসতের বিশেষ সিবিআই আদালতে তাঁর আইনজীবীরা ছুটে যান তাঁর আগাম জামিনের আর্জি নিয়ে। কিন্তু সিবিআইয়ের বিশেষ আদালত পত্রপাঠ সেই মামলা খারিজ করে দেয় – বিচারপতি জানিয়ে দেন, আগাম জামিনের আর্জি শোনার এক্তিয়ার তাঁর নেই।

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

ফলে, গ্রেপ্তারির হাত থেকে বাঁচতে মরিয়া রাজীব কুমারের আইনজীবীরা ছুটে যান বারাসতের জেলা দায়রা আদালতে। সেখানে দুপুর ১২ তা নাগাদ আবেদন করা হলে – মামলা গৃহীত হয়। আদালত জানায় দুপুর ২ টোয় সেই মামলার শুনানি হবে। সূত্রের খবর, সময়মত সেই মামলার শুনানি হয়েও গেছে। তবে, ওই আদালতেই পাল্টা রাজীব কুমারের বিরুদ্ধে জামিন অযোগ্য গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করার আবেদন জানায় সিবিআই।

আপাতত দুই পক্ষের সওয়াল-জবাব শেষ হয়ে গেছে, কিন্তু রায়দান আপাতত স্থগিত রাখা হয়েছে। একটি সূত্র জানাচ্ছে, কিছুক্ষনের মধ্যেই রায়দান হয়ে যেতে পারে, আরেকটি সূত্র জানাচ্ছে – এই মামলা অত্যন্ত সংবেদনশীল। ফলে, আইনি সবদিক খতিয়ে দেখে তবেই সিদ্ধান্ত নেবে আদালত – ফলে রায়দান দেরি হতে পারে। আর তাই সবমিলিয়ে জল্পনা চরমে – কখন হবে রায়দান? কী হতে চলেছে রাজীব কুমারের ভাগ্যে? শুরু অপেক্ষার প্রহর।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!