এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > কেন বলেছিলেন যে জোটের প্রধানমন্ত্রী মুখ “রাহুল গান্ধী”? জানালেন বিস্তারিত

কেন বলেছিলেন যে জোটের প্রধানমন্ত্রী মুখ “রাহুল গান্ধী”? জানালেন বিস্তারিত

দেশে বিজেপিকে সরাতে তৈরি হয়েছে বিরোধী মহাজোট। কিন্তু প্রথম থেকেই জল্পনা চলছিল যে, এই বিরোধী মহাজোটের তরফ থেকে কে হবেন প্রধানমন্ত্রী পদপ্রার্থী? যা নিয়ে বিরোধীদের প্রবল চাপে ফেলে দিয়েছিল বিজেপিও।

একদিকে বাংলা থেকে তৃণমূলের অনেক নেতারাই যখন দাবি করছিলেন যে, 2019 এ কেন্দ্রের প্রধানমন্ত্রী রূপে তাঁরা দেখতে চান মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে, ঠিক তখনই অপরদিকে ডিএমকে সুপ্রিমো এম কে স্ট্যালিন প্রধানমন্ত্রী হিসেবে রাহুল গান্ধীর নাম প্রস্তাব করায় বিরোধী জোটের অনেকেই পিছু হটতে শুরু করেছে।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, গত রবিবার করুণানিধির উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন কংগ্রেসের সোনিয়া গান্ধী, রাহুল গান্ধী সহ বিরোধী দলের একাধিক নেতা নেত্রীরা। আর সেখানেই ডিএমকে প্রধান তথা করুনানিধীর পুত্র এম কে স্ট্যালিন বলেন, “মোদি সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করার ক্ষমতা আছে রাহুল গান্ধীরই। দেশকে রক্ষার স্বার্থে ওর হাত শক্ত করা উচিত।”

কিন্তু স্ট্যালিনের মুখ থেকে এহেন কথা শুনে তার প্রবল বিরোধিতা করেন বিরোধী মহাজোটেরই শরিক তৃণমূল, আরজেডি, এনসিপির মত দলগুলো। কিন্তু এরকম পরিস্থিতি তৈরি হলে মূল উদ্দেশ্য থেকেই তো বিচ্যুত হবে সেই বিরোধী মহাজোট? আর তাইতো সমস্ত দিক বুঝে এবং বিরোধী মহাজোটের কোন শরিককেই এখন থেকেই না ক্ষেপিয়ে রবিবারের নিজের করা বক্তব্যকে কিছুটা হলেও পালিশ করলেন সেই ডিএমকে প্রধান এম কে স্ট্যালিন।

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

গতকাল তিনি বলেন, “বিরোধী জোটের একজন শক্তিশালী নেতার প্রয়োজন রয়েছে। সেই কারণেই রাহুল গান্ধীর নাম বলা হয়েছে। আশা করি জোটের অন্যান্য নেতারাও এই বিষয়টা উপলব্ধি করতে পারবেন।” সব মিলিয়ে বিরোধীদের না ক্ষেপিয়ে ফের রাহুল গান্ধীর নামটিকেই প্রধানমন্ত্রী পদপ্রার্থী হিসেবে প্রস্তাব করার কারণ উল্লেখ করলেন করুণানিধীর পুত্র। কিন্তু তাতে ঠিক কতটা চিড়ে ভেজে এখন সেদিকেই তাকিয়ে সকলে।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!