এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > এবার কি এই পুরপ্রধানও বিজেপিতে যেতে চলেছেন, জোর শোরগোল রাজ্যে

এবার কি এই পুরপ্রধানও বিজেপিতে যেতে চলেছেন, জোর শোরগোল রাজ্যে

লোকসভা নির্বাচনে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় 42 টি আসনের মধ্যে 42 টি আসনই দখল করার ডাক দিয়েছিলেন। কিন্তু বাস্তবে তার সেই স্বপ্ন পূর্ণ হয়নি। উল্টে বিজেপি এই রাজ্য থেকে 18 টি আসন নিজেদের ঝুলিতে পুড়েছে। আর তৃনমূলের ভরাডুবি এবং বিজেপির উত্থানের পরেই শাসক দল ভেঙে একের পর এক জনপ্রতিনিধি গেরুয়া শিবিরে নাম লেখাতে শুরু করেছেন।

ইতিমধ্যেই কাঁচরাপাড়া, ভাটপাড়ার মত পুরসভাগুলো বিজেপির দখলে চলে গেছে। যাকে ঘিরে প্রবণ অস্বস্তিতে পড়েছে তৃণমূল। আর এবার রাজ্যের এক পৌরসভার চেয়ারম্যানের বিজেপিতে যোগদানের জল্পনা ফুটে উঠতে শুরু করেছে। তিনি আর কেউ নন, বনগাঁ পৌরসভার তৃণমূলের চেয়ারম্যান শংকর আঢ্য।

প্রসঙ্গত, লোকসভা ভোটে পরাজয়ের পরই তৃণমূল পরিচালিত বনগাঁ পৌরসভা 24 জন কাউন্সিলরের মধ্যে প্রথমে 11 জন এবং পরে তিনজন কাউন্সিলার পুরপ্রধানের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ এনে অনাস্থা প্রস্তাব তোলেন। যা নিয়ে শাসকের অন্দরেই চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে।

ফেসবুকের কিছু টেকনিক্যাল প্রবলেমের জন্য সব আপডেট আপনাদের কাছে সবসময় পৌঁচ্ছাছে না। তাই আমাদের সমস্ত খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে যোগদিন আমাদের হোয়াটস্যাপ বা টেলিগ্রাম গ্রূপে।

১. আমাদের Telegram গ্রূপ – ক্লিক করুন
২. আমাদের WhatsApp গ্রূপ – ক্লিক করুন
৩. আমাদের Facebook গ্রূপ – ক্লিক করুন
৪. আমাদের Twitter গ্রূপ – ক্লিক করুন
৫. আমাদের YouTube চ্যানেল – ক্লিক করুন

এদিকে গতকাল দিল্লিতে বিজেপির সদর দপ্তরে নোয়াপাড়ার তৃণমূল বিধায়ক সুনীল সিং এবং গাড়ুলিয়া পৌরসভার কাউন্সিলররা তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগদান করার পরেই চাপে পড়ে শাসক দল। আর এরই মাঝে বনগাঁ পৌরসভা যাতে তাদের হাত থেকে বেরিয়ে না যায়, তার জন্য দলের কাউন্সিলরদের ক্ষোভকে মান্যতা দিয়ে পুরপ্রধান শংকর আঢ্যকে ইতিমধ্যেই সরে যাওয়ার নির্দেশ দিয়েছে উত্তর 24 পরগনা জেলা তৃণমূল নেতৃত্ব। তবে এখনও পর্যন্ত তিনি এই ব্যাপারে কিছু জানেন না বলে জানিয়ে দিয়েছেন সেই শংকর আঢ্য।

আর এই জটিল পরিস্থিতির মাঝেই এবার বনগাঁ পৌরসভার চেয়ারম্যানের বিজেপিতে যোগদানের জল্পনা তীব্র থেকে তীব্রতর ভাবে ফুটে উঠতে শুরু করল। অনেকে বলছেন, চেয়ারম্যান পদ থেকে দল তাকে সরে যাওয়ার নির্দেশ দেওয়াতেই এবার হয়ত ক্ষোভের কারণেই শিবির বদল করতে পারেন শংকরবাবু।

কিন্তু সত্যিই কি তাই! তাহলে কি তিনি বিজেপিতে যোগদান করছেন! এই ব্যাপারে অবশ্য বনগাঁ পৌরসভার তৃণমূলের চেয়ারম্যান শংকর আঢ্যর তরফে কোনো প্রতিক্রিয়া মেলেনি। সব মিলিয়ে এবার চেয়ারম্যান পদ থেকে তাকে সরিয়ে দেওয়ার নির্দেশ নামা জারি হতেই এবার শংকর আঢ্য ঠিক কী পদক্ষেপ নেন, সেদিকেই তাকিয়ে সকলে।

Top
error: Content is protected !!