এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > পঞ্চায়েতের ‘কারসাজিতে’ 76-এর সংখ্যালঘু বৃদ্ধ এখন ‘মৃত’, ‘জীবিত’ হতে প্রশাসনের দরজায় ধর্না

পঞ্চায়েতের ‘কারসাজিতে’ 76-এর সংখ্যালঘু বৃদ্ধ এখন ‘মৃত’, ‘জীবিত’ হতে প্রশাসনের দরজায় ধর্না

শাসনের পাকদহ গ্রামে ইটের নোনা ধরা দেওয়ালে বাঁশ আর বেত দিয়ে তৈরি জানালার পাল্লা ওয়ালা একটি ছোট্টো ঘরে কোনোওরকমে বাস। আগে আইসক্রিম বিক্রি করলেও এখন 76 র গোড়ায় দাড়িয়ে বয়সের ভারে কাবু তিনি। 13 বছর আগে থেকে বৃদ্ধভাতা পেতে শুরু করেন 76 বছরের বৃদ্ধ মহম্মদ মোতালেব আলি। কিন্তু হঠাৎই তাঁর এই ভাতা বন্ধ হয়ে যাওয়ায় কয়েক বছর আগে এলাকৃর বিডিও অফিসে গিয়ে ভাতা বন্ধের কারন জিজ্ঞাসা করলে বলা হয়- “আপনি মৃত”। মোতালেব আলিকে জানানো হয় যে তাঁর নামে ডেথ সার্টিফিকেটও জমা পড়েছে।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

——————————————————————————————-

 এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

তাই তিনি এই ভাতা পাচ্ছেন না। আর এতেই মৃত ও জীবিত মানুষের মধ্যস্থলে দাঁড়িয়ে রয়েছেন শাসনের পাকদহ গ্রামের এই বৃদ্ধ। মোতালেব আলির অভিযোগ, প্রধানই তাঁর এই ডেথ সার্টিফিকেট জমা দিয়ে এই ভাতা বন্ধ করেছেন। আর তাই এখন প্রশাসনের দরজায় দরজায় ঘুরে ফের নিজের ভাতা চালু করার মরিয়া চেষ্টায় 76 বছর বয়সের এই মোতালেব আলি। মঙ্গলবার জেলাশাসকের কাছে এই ঘটনার সম্পূর্ন বিবরন দিয়ে ফের ভাতা চালুর আবেদন জানিয়েছেন তিনি। এ প্রসঙ্গে উত্তর 24 পরগনার জেলাশাসক অন্তরা আচার্য বলেন, “এখনও এই লিখিত আবেদনটি হাতে পাইনি। খতিয়ে দেখে প্রয়োজনীয় ব্যাবস্থা নেব।” তবে জীবিত বৃদ্ধকে মৃত করে দেওয়ার মত প্রশাসনের এমন নথি দেখে মাথায় হাত 76 র মহম্মদ মোতালেব আলির।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!