এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > হজ-যাত্রা নিয়ে মোদী সরকারের এই দুটি রেকর্ড পদক্ষেপে নির্বাচনের আগে হাসি ফুটছে গেরুয়া শিবিরে

হজ-যাত্রা নিয়ে মোদী সরকারের এই দুটি রেকর্ড পদক্ষেপে নির্বাচনের আগে হাসি ফুটছে গেরুয়া শিবিরে

কট্টর হিন্দুত্ত্ববাদী দল হিসাবে গায়ে ছাপ পরে গেলেও চলতি বছর হজ যাত্রায় দুটি পৃথক ক্ষেত্রে রেকর্ড গড়লো কেন্দ্রের বিজেপি সরকার। সরকারী সূত্রে জানা যাচ্ছে এবার ভারতের হজ যাত্রীর মোট সংখ্যা ১ লাখ ৭৫ হাজার ২৫ জন। শুধু তাই নয় আরও একটি উল্লেখযোগ্য রেকর্ড হলো সেই হজ যাত্রীদের মধ্যে ৪৭%-ই হলেন মহিলা যাত্রী। কেন্দ্রীয় সংখ্যালঘু বিষয়ক মন্ত্রী মুখতার আব্বাস নকভি জানান, এই বছরে মোট ৩ লাখ ৫৫ হাজার ৬০৪ টি আবেদন জমা পড়ে। যার মধ্যে পুরুষ আবেদনকারীর সংখ্যা ১ লাখ ৮৯ হাজার ২১৭ জন এবং মহিলা আবেদনকারীর সংখ্যা মহিলা ১ লাখ ৬৬ হাজার ৩৮৭ জন।

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

কিন্তু হজ কমিটির থেকে হজ যাত্রার অনুমোদন পেয়েছেন মাত্র ১ লাখ ৭৫ হাজার ২৫ জন। স্বাধীনতার পরে এই প্রথম এত বেশি সংখ্যক মানুষ হজ করতে যাচ্ছেন বলে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী দাবি করলেন। তিনি আরও জানালেন এই প্রথমবার কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে হজ যাত্রীদের জন্যে কোনো প্রকার ভর্তুকি দেওয়া হচ্ছেনা। এই বছরে যাত্রী সংখ্যা বেশি হলেও বিমান ভাড়া বাবদ খরচ অনেকটাই কম হচ্ছে। সংখ্যালঘু মন্ত্রক সূত্রে খবর, এই বছরে মোট ১ হাজার ৩০৮ জন মহিলা পুরুষ সঙ্গী বা ‘মেহরাম’ ছাড়াই হজ যাত্রায় সামিল হচ্ছেন। আগামী ১৪ ই জুলাই থেকে হজ যাত্রা শুরু হবে বলে জানা গিয়েছে। স্বাভাবিকভাবেই, লোকসভা নির্বাচনের আগে তিন তালাক ইস্যু ও হজ যাত্রায় এই রেকর্ড তুলে ধরে নরেন্দ্র মোদী বা বিজেপি যে মুসলিম-বিরোধী নয় তা নিয়ে তীব্র প্রচারে নামতে পারবেন গেরুয়া শিবিরের নেতা-কর্মীরা। আর তাই বৃহত্তর বিরোধী জোটের চাপে কিছুটা কোনঠাসা গেরুয়া কার্যকর্তাদের মুখে হাসি ফুটেছে কেন্দ্র সরকারের এই পদক্ষেপে।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!