এখন পড়ছেন
হোম > জাতীয় > ১ টাকায় চিকিৎসা, ১০ টাকায় খাবার! বিধানসভা ভোটের দিকে তাকিয়ে অবাক দাবি এই দলের!

১ টাকায় চিকিৎসা, ১০ টাকায় খাবার! বিধানসভা ভোটের দিকে তাকিয়ে অবাক দাবি এই দলের!

Priyo Bandhu Media


সামনেই দীপাবলি আর তার আগেই প্রায় গোটা দেশ নির্বাচনের আবহে। কোন রাজ্যে বিধানসভা নির্বাচন তো কোথাও উপনির্বাচন। লোকসভা নির্বাচন শেষ হওয়ার পরেই মহারাষ্ট্র, হরিয়ানাতে বিধানসভার সাধারণ নির্বাচন হতে চলেছে। আগামী 21 শে অক্টোবর এর পাশাপাশি গোটা দেশে আরও মোট 51 টি আসনে হবে বিধানসভা উপনির্বাচন। মহারাষ্ট্রে নির্বাচনের কথা মাথায় রেখে বিজেপি শিবসেনা তাদের নির্বাচনী প্রচার শুরু করে দিয়েছে। মহারাষ্ট্রের বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপি ও শিবসেনা এক জোট হয়ে লড়াই করছে। এদিন শিবসেনার বিধানসভা নির্বাচনের জন্য নির্বাচনী ইস্তেহার প্রকাশ হলো।

এই ইস্তেহারে শিবসেনা দাবি করেছে, এক টাকায় চিকিৎসা ও 10 টাকায় পেট ভরে খাবার দেওয়া হবে মহারাষ্ট্র বাসীকে। এছাড়া আরও বলা হয়েছে, শিবসেনা বিজেপি জোট হলে উদ্ধব ঠাকরের পুত্র আদিত্য ঠাকরে মুখ্যমন্ত্রী হবেন। যদি তা নাও হয় তাহলেও এই প্রতিশ্রুতি পালন করা হবে বলে জানানো হয়েছে শিবসেনা শিবির থেকে।

শনিবার মুম্বাইয়ে শিবসেনার ইস্তেহার প্রকাশের অনুষ্ঠানে তাঁদের তরফ থেকে জানানো হয়, নারীর শিক্ষা, যুব সম্প্রদায় এবং কৃষকের ওপর বিশেষ জোর দেওয়া হবে। যেসব পরিবার আর্থিকভাবে পিছিয়ে রয়েছে, তাঁদের পরিবারের মেয়েদের শিক্ষার ওপর বিশেষ জোর দেওয়া হবে। এছাড়াও ন্যূনতম আয় 10 হাজার টাকা করার এবং বিদ্যুতের মাশুল 30 শতাংশ কমানোর জন্য বিশেষ পদক্ষেপ নেওয়া হবে। শিবসেনার আত্মবিশ্বাস দেখে পরিষ্কার বোঝা যাচ্ছে, এবারের বিধানসভা নির্বাচনে মহারাষ্ট্রের ক্ষমতায় আসছে বিজেপি শিবসেনা জোট।

WhatsApp-এ প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর পেতে – ক্লিক করুন এখানে

আমাদের অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপের লিঙ্ক – টেলিগ্রামফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউব, ফেসবুক পেজ

আমাদের Subscribe করতে নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।

এবার থেকে আমাদের খবর পড়ুন DailyHunt-এও। এই লিঙ্কে ক্লিক করুন ও ‘Follow‘ করুন।



আপনার মতামত জানান -

আগামী একুশে অক্টোবর মহারাষ্ট্র বিধানসভা নির্বাচন। এই নির্বাচনে 288 টি আসনে শরদ পাওয়ারের ন‍্যাশনালিস্ট কংগ্রেস এর সাথে জোট করে লড়ছে কংগ্রেস। অন্যদিকে বিজেপির 66 আসনে এবং 124 টি তে শিবসেনা প্রার্থী দিচ্ছে। এছাড়াও বাকি আসনগুলোতে বিভিন্ন শরিক দল প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবে বলে জানা গেছে।

আপাতত মহারাষ্ট্রে একুশে অক্টোবর এর বিধানসভা নির্বাচনের দিকে লক্ষ‍্য রেখে যুযুধান রাজনৈতিক শিবিররা যুদ্ধে নেমেছে। শিবসেনার ইস্তেহারের দাবি ইতিমধ্যে কংগ্রেসের তরফ থেকে খারিজ করে দেওয়া হয়েছে। এবার মহারাষ্ট্র বিধানসভা নির্বাচনের আগেই বিজেপি ও শিবসেনা জোট ভেঙে যাবার একটা গুজব রটেছিল। বিরোধীরাও সেই খবরে যথেষ্ট আশার আলো দেখেছিলেন। কিন্তু পরবর্তীতে বিরোধীদের সব আশা ভেঙ্গে দিয়ে বিজেপি শিবসেনা জোট অটুট রয়ে যায়। আপাতত দেশের রাজনৈতিক মহল মহারাষ্ট্রের একুশে অক্টোবর বিধানসভা নির্বাচনের দিকে তাকিয়ে।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!