এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > রাজীবের নাগাল পেতে নজরে নবান্ন, ক্রমশ চাপ বাড়াচ্ছে সিবিআই

রাজীবের নাগাল পেতে নজরে নবান্ন, ক্রমশ চাপ বাড়াচ্ছে সিবিআই

লোকশিল্পীর গানের মধ্যে রয়েছে, “তোমায় হৃদ মাঝারে রাখব, ছেড়ে দেব না।” কিন্তু বাস্তবের মাটিতেও যে সিবিআই এবং রাজীব কুমারের মধ্যে এই গান বাস্তব হয়ে দাঁড়াবে, তা বুঝতে পারেননি কেউই। কেননা যেভাবে রাজীব কুমারকে নিজেদের নাগালে পেতে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা রাজ্য সরকারের সদরদপ্তর নবান্নে পৌঁছে গেল, তাতে সেই সমস্ত জল্পনাই প্রবলভাবে উস্কে দিচ্ছে।

সূত্রের খবর, রবিবার বিকেলে সিবিআইয়ের তদন্তকারী অফিসারদের একটি টিম চারটি চিঠি নিয়ে নবান্নে উপস্থিত হন। প্রথমে সেখানকার কর্তব্যরত পুলিশ কর্মীরা তা নিতে অস্বীকার করলেও প্রায় কুড়ি মিনিট পর দুটি চিঠি নেওয়া হলেও বাকি দুটি চিঠি ফেরত দেওয়া হয়। আর সিবিআইয়ের এই পদক্ষেপের পরই এবার বাড়তে শুরু করেছে জল্পনা। কি কারনে হঠাৎ রাজ্য সরকারের প্রাণভোমরা হিসেবে পরিচিত রাজীব কুমারের ব্যাপারে নবান্নে উপস্থিত হতে দেখা গেল সিবিআই কর্তাদের! তা নিয়েও তৈরি হয়েছে প্রশ্ন।

অনেকে বলছেন, প্রাক্তন পুলিশ কমিশনার রাজীব কুমার ছুটিতে থাকাকালীন তাঁর অবস্থানের বিষয়ে সরকারকে ঠিক কি জানিয়েছেন, তার তথ্য পেতেই এদিন নবান্নে এসেছিল সিবিআই আধিকারিকরা। জানা গেছে, সোমবার ফের এই চিঠি নিয়ে নবান্নে পৌঁছে যাবে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা।

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ার খবর আরও সহজে হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের যে কোনও এক্সক্লুসিভ সোশ্যাল মিডিয়া গ্রূপে। ক্লিক করুন এখানে – টেলিগ্রাম, হোয়াটস্যাপ, ফেসবুক গ্রূপ, ট্যুইটার, ইউটিউবফেসবুক পেজ

প্রিয় বন্ধু মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরের নোটিফিকেশন আপনার মোবাইল বা কম্পিউটারের ব্রাউসারে সাথে সাথে পেতে, উপরের পপ-আপে অথবা নীচের বেল আইকনে ক্লিক করে ‘Allow‘ করুন।


আপনার মতামত জানান -

প্রসঙ্গত, হাইকোর্ট রায়দানের পর সিবিআইয়ের পক্ষ থেকে রাজীব কুমারকে ডাকা হলেও তিনি সেখানে উপস্থিত হননি। শনিবারের পর রবিবার সেই রাজীব কুমারের সঙ্গে তদন্তকারী সংস্থার কর্তারা যোগাযোগ করার চেষ্টা করলেও তা সফলতা পায়নি।

তবে যতটুকু পাওয়া খবর অনুযায়ী জানা গেছে যে, সামনাসামনি সিবিআই কর্তাদের সঙ্গে রাজীব কুমার দেখা না করলেও নিজেকে বাঁচাতে আইনি লড়াইয়ের প্রস্তুতি চালিয়ে যাচ্ছেন তিনি। আর তাই তো তারই অঙ্গ হিসেবে শনিবার সিবিআইকে একটি মেইল পাঠিয়ে কলকাতা পুলিশের প্রাক্তন পুলিশ কমিশনার জানিয়ে দিয়েছিলেন যে, জামিনের জন্য তিনি আবেদন জানাচ্ছেন। তবে রাজীব কুমার তার জামিনের ব্যাপারে আবেদন জানালেও বিশেষজ্ঞরা বলছেন, হাইকোর্টের পক্ষ থেকে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে যে কলকাতার এই প্রাক্তন পুলিশ কমিশনারকে গ্রেপ্তারের ক্ষেত্রে আর কোনো বাধা নেই। তাই সেই পরিস্থিতিতে তিনি আগাম জামিনের আবেদন করলেও তা আদৌ গ্রাহ্য হবে কিনা, তা নিয়ে সংশয় থেকেই যাচ্ছে।

অন্যদিকে ইতিমধ্যেই সিবিআইকে একটি মেলে রাজীব কুমার জানিয়ে দিয়েছেন যে তিনি ব্যক্তিগত কারণে ছুটিতে রয়েছেন। আর এমতাবস্থায় চারটি চিঠি নিয়ে রবিবার নবান্নে সিবিআইয়ের একটি টিমের হাজির হওয়া রীতিমতো কালঘাম ছুটিয়ে দিচ্ছে সরকারপক্ষকে। এখন রবিবারের পর সোমবার নবান্নে হাজির হয়ে সিবিআই আধিকারিকরা ঠিক কি পন্থা অবলম্বন করেন, সেদিকেই তাকিয়ে গোটা রাজ্যবাসী।

আপনার মতামত জানান -
Top
error: Content is protected !!