এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > নদীয়া-২৪ পরগনা > পুরসভার চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অনাস্থা প্রস্তাব আনলেন দলেরই 11 জন কাউন্সিলর, অস্বস্তিতে শাসকদল

পুরসভার চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অনাস্থা প্রস্তাব আনলেন দলেরই 11 জন কাউন্সিলর, অস্বস্তিতে শাসকদল

Priyo Bandhu Media

দলের চেয়ারম্যান। অথচ তাঁর ওপরই আস্থা নেই হালিশহর পুরসভার তৃনমূল কাউন্সিলরদের একাংশের। তাই একসময়ের চেয়ারম্যানের ওপর ভরসা থাকা কাউন্সিলরেরাই এখন সেই চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধেই অনাস্থা আনতে ব্যাস্ত। কিন্তু হঠাৎ কাউন্সিলরদের মধ্যে এই অসন্তোষ তৈরি হল কেন? প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, 23 আসনবিশিষ্ট এই হালিশহর পুরসভায় তৃনমূল 22 টি এবং বিজেপি একটি আসন পায়। ফলে এখানে বোর্ড গঠন করে তৃনমূল। আর এই বোর্ড গঠনের পর দীর্ঘদিন ধরেই শহরের 4 নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর তথা এই পুরসভার ভাইস চেয়ারম্যান তাঁর অফিসেই আসেন না।

এছাড়াও এক কাউন্সিলর এলাকার বাইরে রয়েছেন। ফলে এখন তৃনমূলের কাউন্সিলর সংখ্যা 20। এদিন এই 20 জনের মধ্যে 11 জন তৃনমূল কাউন্সিলরই চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অনাস্থা চিঠিতে সই করেছেন। যেখানে 10 নং ওয়ার্ডের তৃনমূল কাউন্সিলর প্রনব লৌহেরও স্বাক্ষর রয়েছে। জানা যায়, এই প্রনব লৌহ একসময় শহর তৃনমূল যুবর সভাপতি ছিলেন। মাস কয়েক আগে তিনি নাগরিক পরিষেবা সংক্রান্ত কিছু বিষয় নিয়ে তাঁর অনুগামীদের সাথে করে পুরসভায় নালিশ জানাতে আসেন। অভিযোগ, সেখানেই এই প্রনব লৌহ পুর আধিকারিকদের ওপর চড়াও হন। আর এরপরেই দলীয় পদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হয় তাঁকে। তাহলে কি নিজে যুব সভাপতির পদ থেকে সরে যাওয়াতেই কাউন্সিলর হিসাবে চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অনাস্থা আনলেন তিনি?

এদিন এই প্রসঙ্গে কাউন্সিলর প্রনব লৌহ বলেন, “চেয়ারম্যানের ওপর কারও আস্থা না থাকায় দলের 11 জন কাউন্সিলর এই অনাস্থা আনার ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। তবে এই সংখ্যাটা আরও বাড়বে।” সূত্রের খবর, বৃহস্পতিবার পুরসভার এগজিকিউটিভ অফিসার এবং ব্যারাকপুর মহকুমা শাসকের কাছে একটি অনাস্থার চিঠি জমা পড়েছে। সোমবার সব কাগজপত্র দেখার পর এই ব্যাপারে মন্তব্য করবেন বলে জানান মহকুমা শাসক আবুল কালাম আজাদ ইসলাম।

ফেসবুকের কিছু টেকনিকাল প্রবলেমের জন্য সব খবর আপনাদের কাছে পৌঁছেছে না। তাই আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

কিন্তু দলের শহর সভাপতি তথা হালিশহর চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে দলীয় কাউন্সিলরদের একাংশের এই অনাস্থা প্রসঙ্গে কি প্রতিক্রিয়া তৃনমূলের? এ প্রসঙ্গে জেলা তৃনমূলের পর্যবেক্ষক নির্মল ঘোষ বলেন, “এদিন মহরম নিয়ে ব্যাস্ত ছিলাম। বিষয়টি শুনেছি। শনিবার জেলা কমিটির মিটিংয়েই এই ব্যাপারে আলোচনা হবে।” এখন জেলা কমিটির মিটিংয়ে চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে দলীয় কাউন্সিলরদের এই অসন্তোষ চাপা দিতে আদৌ সমর্থ হয় কি না শাসকদল সেদিকেই তাকিয়ে সকলে।

আপনার মতামত জানান -

Top
error: Content is protected !!