এখন পড়ছেন
হোম > রাজ্য > কলকাতা > মুকুলের গেরুয়া-যোগ নিয়ে একাধিক প্রশ্ন তুলে দিল বামফ্রন্ট

মুকুলের গেরুয়া-যোগ নিয়ে একাধিক প্রশ্ন তুলে দিল বামফ্রন্ট

অল্প কদিন আগেই মুকুল রায় যখন তৃণমূল কংগ্রেস দলের তাবড় নেতা ছিলেন তখন রাজ্যে সারদা কেলেঙ্কারীর প্রেক্ষাপটে গেরুয়া শিবির রাজ্যের শাসক দলের উদ্দেশ্যে প্রকাশ্য জনসভায় নাম করেই নানা আপত্তিকর মন্তব্য করতেন। সেই মন্তব্যে ছিলো মুকুল রায়ের ও নাম। রাজ্য বিজেপির তত্‍কালীন পর্যবেক্ষক সিদ্ধার্থনাথ সিং জনসভায় ভাষণে বলতেন ভাগ মমতা ভাগ। ভাগ মুকুল ভাগ। এরপর দলনেতাকে অনুসরণ করে রাজ্য বিজেপি নেতারা তাঁদের বক্তব্যে এই স্লোগানের ব্যবহার করতেন। কিন্তু সেই বিজেপি নেতারা আজ কেন মুকুল রায়কে আগের মতো বিদ্রুপ করছে না? এমন প্রশ্ন করেছে অন্য কেউ নয় খোদ বাম শরিক দল সিপিএম। বিজেপি সভাপতি রাজ্য সফর শেষে দিল্লী ফিরে যাওয়ার অল্প সময়ের মধ্যেই এই প্রশ্ন জানিয়ে সিপিএম দল সোস্যাল মিডিয়ায় ট্যুইট করলো।

আরো খবর পেতে চোখ রাখুন প্রিয়বন্ধু মিডিয়া-তে

——————————————————————————————-

 এবার থেকে প্রিয় বন্ধুর খবর পড়া আরো সহজ, আমাদের সব খবর সারাদিন হাতের মুঠোয় পেতে যোগ দিন আমাদের হোয়াটস্যাপ গ্রূপে – ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

 

তবে আশ্চর্যজনক ভাবেই লক্ষণীয় যে মুকুল রায়ের বিজেপি দলে যোগ দেওয়ার পরে বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব নারদা-সারদা প্রসঙ্গে একটু হলেও শিথিলতা দেখিয়েছে। যেমন অমিত শাহ তাঁর কোনো বক্তব্যেই সারদা বা নারদ প্রসঙ্গ উত্থাপন তো করছেনই না বরং সুকৌশলে এই প্রসঙ্গ এড়িয়ে যাচ্ছেন। অমিত শাহ তাঁর রাজ্য সফর কালে বললেন , ”যদি পশ্চিমবঙ্গের উন্নয়ন করতে হয় রাজ্যে দুর্নীতি নির্মূল করতে হলে রাজ্যের ক্ষমতা থেকে চিটফান্ড এবং সিন্ডিকেটদের বাইরে করতে হলে পশ্চিমবঙ্গে পরিবর্তন করতে হবে আর ভারতীয় জনতা পার্টির সরকার বানাতে হবে।” সিপিএম অবশ্য শুধু বিজেপিকেই নিশানা করেনি। সারদা-নারদা নিয়ে তৃণমূল কংগ্রেস ও কেনও মুকুল রায়কে কিছু বলছে না সেই বিষয়েও তারা সমান কৌতুহলী। এই প্রসঙ্গে সিপিএমের এক কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য বললেন, ”তৃণমূল থেকে মুকুল ভাগিয়েছে বিজেপি। মুকুল এখন বিজেপিকে ভালোই সার্ভিস দিচ্ছে। লোকসান হল তৃণমূলের।”

Top
error: Content is protected !!